বন্ধ করুন

আমাদের স্বেচ্ছাসেবক সম্প্রদায় কাজ করে যাচ্ছে বিশ্বের কোনা থেকে না বলা গল্পগুলো আপনাদের কাছে তুলে ধরতে। তবে আপনাদের সাহায্য ছাড়া আমরা তা পারব না। আমাদের সম্পাদনা, প্রযুক্তি এবং প্রচারণা দলগুলোকে সুষ্ঠুভাবে চলতে সহায়তার জন্যে আপনারা আপনাদের দানের অংশ থেকে কিছু গ্লোবাল ভয়েসেসকে দিতে পারেন।

সাহায্য করুন

উপরের ভাষাগুলো দেখছেন? আমরা গ্লোবাল ভয়েসেস এর গল্পগুলো অনুবাদ করেছি অনেক ভাষায় যাতে বিশ্বজুড়ে মানুষ এগুলো সহজে পড়তে পারে।

আরও জানুন লিঙ্গুয়া অনুবাদ  »

চিলির প্রথম দফা নির্বাচন বিজয়ী মিশেল ব্যাসলেট দ্বিতীয় দফা নির্বাচনের মুখোমুখি

Michelle Bachelet votes on November 17, 2013 in Santiago, Chile. Photo by prensachile3, copyright Demotix

১৭ নভেম্বর ২০১৩ তারিখে চিলির রাজধানী সান্তিয়াগোতে ব্যাসলেট ভোট প্রদান করছে। ছবি প্রানসাচিলে৩-এর, কপিরাইট ডেমোটিক্সের।

৪৬.৭ শতাংশ ভোট অর্জনের মধ্যে দিয়ে চিলির প্রাক্তন রাষ্ট্রপতি মিশেল ব্যাসলেট চিলির রাষ্ট্রপতি নির্বাচনে সুস্পষ্ট ভাবে বিজয়ী হয়েছেন। তবে, ইউএন ওমেন প্রতিষ্ঠানের প্রাক্তন প্রধান নির্বাহী ডিসেম্বরে রক্ষণশীল দলের প্রার্থী ইভিলেইন ম্যাথেই-এর বিপক্ষে দ্বিতীয় দফা নির্বাচনের মুখোমুখি হবেন, যিনি ২৫ শতাংশ ভোট পেয়ে দ্বিতীয় হয়েছেন।

ব্যাসলেটের এই বিজয় কোন বিস্ময়কর বিষয় নয়, বিশেষ করে এমনকি কয়েকজন ভবিষ্যদ্বাণী করেছিল যে, তিনি প্রথম দফা ভোটে নিরঙ্কুশ সংখ্যাগরিষ্ঠতা নিয়ে বিজয়ী হতে পারেন।

কিন্তু সোশ্যাল নেটওয়ার্ক ব্যবহারকারীর ব্যাসেলেটের প্রার্থীতা এবং প্রাক্তন রাষ্ট্রপতি থাকা অবস্থায় তার প্রশাসন নিয়ে তাদের অসন্তোষ এই নির্বাচনী প্রচারণার সময় তুলে ধরেছিল। গতকালের ফলাফলের পর, অনেকে চিলির সোশ্যাল নেটওয়ার্ক এবং বাস্তবতার ফারাক নিয়ে মন্তব্য করেছে:

ব্রান্ডের জন্য এক কৌশলঃ এই সমস্ত নির্বাচনের পর আপনি জানবেন যে সোশ্যাল নেটওয়ার্কের কোন গুরুত্ব নেই।

[যদি আপনি ব্যাসলেট-এর জন্য ভোট প্রদান করেন] তাহলে আমি জেনে খুশি যে সোশ্যাল নেটওয়ার্ক বাস্তবতার প্রতিফলন ঘটায় না। আমরা হচ্ছি স্মার্টফোনের সুবিধাভোগী একদল ব্যক্তি।

[যদি আপনি ব্যাসলেটকে ভোট দেন] তাহলে আপনার সম্ভবত টুইটার একাউন্ট নেই।

আমি জানতে আগ্রহী যে কতজন #সিভোটাস্টেপরব্যাসেলেট হ্যাশট্যাগ ব্যবহারকারী ভোট দিতে গিয়েছিল…সোশ্যাল নেটওয়ার্কের ভিত্তিতে রাষ্ট্রকে বদলে দেওয়া সম্ভব নয়। !!

#সিভোটেস্টেপরব্যাসলেট [যদি আপনি ব্যাসলেটকে ভোট প্রদান করেন]নির্বাচনের দিন চিলিতে আলোচিত ধারায় পরিণত হয় এবং নির্বাচনের পরের দিনও তা আলোচিত ধারা ছিল।

[যদি আপনি ব্যাসলেটকে ভোট প্রদান করেন] তাহলে ছাত্র বিক্ষোভ সম্বন্ধে কোন অভিযোগ নয়।

[যদি আপনি ব্যাসলেটকে ভোট প্রদান করেন]
তাহলে বিদায় জানানো শুরু করুন পেমিকে (ক্ষুদ্র এবং মাঝারি আকারের ব্যবসা] আর
— কম স্থায়িত্বকে।
আর মনসান্তো
এবং থার্মোইলেকট্রিক প্লান্ট স্বাগত জানানোর জন্য তৈরী হোন
আমি কি আরো চালিয়ে যাব?

Conservative candidate Evelyn Matthei will face Michelle Bachelet in a runoff vote on December 15, 2013. Photo by Fernando Lavoz, copyright Demotix

১৫ ডিসেম্বর ২০১৩ তারিখে রক্ষণশীল প্রার্থী ইভিলেইন মাথিয়ে দ্বিতীয় দফা ভোটে মিশেল ব্যাসলেট–এর মুখোমুখি হবেন। ছবি ফার্নান্দো লাভেজ-এর। কপিরাইট ডেমোটিক্সের।

এদিকে জ্যানেথ আলেকজান্দ্রা নির্দেশ করেছে :

মেয়েদের উপস্থিতি আরো জোরালো হচ্ছে। দুজন [নারী] প্রার্থী, ব্যাসেলেট এবং মাথিয়ে, চিলের রাষ্ট্রপতি পদের দ্বিতীয় দফা নির্বাচনের দুজন প্রার্থী।

এবং ব্যাসেলেট এবং ম্যাথেই-এর সমর্থকেরা তাদের অভিনন্দন জানাচ্ছে:

আমাদের রাষ্ট্রের পরবর্তী রাষ্ট্রপতিকে অভিনন্দন… আত্মবিশ্বাসে ভরপুর এক নারী। [মিশেল ব্যাসলেট] আমি আপনার সাথে রয়েছি।

১৫ ডিসেম্বরে আমাদের দ্বিতীয় দফা নির্বাচন, এক সম্পূর্ণ পরিবর্তিত সরকারের জন্য।

সবশেষে এক প্রশান্ত মনোভাব, জুলিও আরিগাদো লিখেছেন:

চিলির নাগরিক যারা ভোট প্রদান করেছে, তারা অসাধারণ। এখন আমরা তাদের উৎসাহ প্রদান করব, যারা ভোট দিতে মোটেও আগ্রহী নয়। ব্যাসলেট এবং ম্যাথেই-কে অভিনন্দন। চিলির জয় হোক!

আলোচনা শুরু করুন

লেখকেরা, অনুগ্রহ করে লগ ইন »

নীতিমালা

  • অনুগ্রহ করে অপরের মন্তব্যকে শ্রদ্ধা করুন. যেসব মন্তব্যে গালাগালি, ঘৃণা, অবিবেচনা প্রসূত ব্যক্তিগত আক্রমণ থাকবে সেগুলো প্রকাশের অনুমতি দেয়া হবে না .