বন্ধ করুন

আমাদের স্বেচ্ছাসেবক সম্প্রদায় কাজ করে যাচ্ছে বিশ্বের কোনা থেকে না বলা গল্পগুলো আপনাদের কাছে তুলে ধরতে। তবে আপনাদের সাহায্য ছাড়া আমরা তা পারব না। আমাদের সম্পাদনা, প্রযুক্তি এবং প্রচারণা দলগুলোকে সুষ্ঠুভাবে চলতে সহায়তার জন্যে আপনারা আপনাদের দানের অংশ থেকে কিছু গ্লোবাল ভয়েসেসকে দিতে পারেন।

সাহায্য করুন

উপরের ভাষাগুলো দেখছেন? আমরা গ্লোবাল ভয়েসেস এর গল্পগুলো অনুবাদ করেছি অনেক ভাষায় যাতে বিশ্বজুড়ে মানুষ এগুলো সহজে পড়তে পারে।

আরও জানুন লিঙ্গুয়া অনুবাদ  »

মেক্সিকো: প্রায় ২০ লাখ শহরবাসী পানির অভাবে ভুগছেন

মেক্সিকো ভ্যালিতে পানির সরবরাহের অভাবের কারনে প্রায় ২০ লাখ লোক ভুগছেন। মেক্সিকোর সংবাদপত্র এল ইউনিভার্সাল অনুসারে কুটজামালা সিস্টেম, যা ভ্যালির ২০% খাওয়ার পানি নিয়ন্ত্রণ করে, পুরো ক্ষমতায় কাজ করছে না আর নিজের এলাকাতে সরবরাহ দিতে পারছে না। মেক্সিকো রাষ্ট্রের ফেডারেল অঞ্চলের ১০টা জেলা আর মেক্সিকো স্টেটের ১৩টা মিউনিসিপালিটি তাই পানির অভাবে ভুগছে।

খরা এবং আরো গুরুতর সমস্যা রোধ করতে, পবিত্র সপ্তাহে প্রথমবারের মতো পানির প্রবাহ কমানোর সিদ্ধান্ত নেয়া হয় আর এর ফলে ক্ষতি হয় ৭ লাখেরও বেশী মানুষ। ভিভির মেক্সিকো ব্লগ জানিয়েছে যারা ঘাটতির ফলে ভুগছেন তারা ভ্রাম্যমান পানির ট্যাঙ্কার ট্রাক থেকে গৃহস্থালী কাজের জন্যে পানি ব্যবহার করেছেন যা প্রতি এলাকায় নিয়মিত আসে। মে মাসে এই ঘাটতি বাড়ানো হয় পুরো সপ্তাহান্ত ধরে পানির মাত্র ২৫% সরবরাহে, আর পুনরায় নোটিশ না দেয়া পর্যন্ত এটা চলতে থাকবে।

তবে মেক্সিকো রাষ্ট্রীয় পানির পাইপ ভেঙ্গে যাওয়ায় পরিস্থিতির আরও অবনতি হয়েছে এবং মে মাসের শেষের দিকে বেশ কিছু ব্লকে পানির সরবরাহ ৫০% এর মতো কমে যায় ৪৮ ঘন্টার জন্য।

ছবি: ফ্লিকার ব্যবহারকারী ওয়ান্ডারলেইন এর সৌজন্যে। ক্রিয়েটিভ কমন্স লাইসেন্সের আওতায় ব্যবহৃত।

ছবি: ফ্লিকার ব্যবহারকারী ওয়ান্ডারলেইন এর সৌজন্যে। ক্রিয়েটিভ কমন্স লাইসেন্সের আওতায় ব্যবহৃত।

ভিভির মেক্সিকো ব্লগের জেসিকা উরিবে পানির সমস্যা নিয়ে সরকারের অনিশ্চয়তার কথা লিখেছেন:

A pesar de todas estas afectaciones y de que es obvio que se necesita el gobierno federal no ha podido dar una respuesta al gobierno capitalino sobre la inversión que necesita el Sistema Cutzamala para ser rehabilitado y modernizado en su totalidad, esperemos que sea pronto cuando decidan el futuro del más importante sistema de abastecimiento de agua de la Ciudad de México, pues cada vez son más los problemas que tiene y más tiempo el que se tardan en solucionarlos.

সকল প্রভাব সত্ত্বেও আর এটা পরিষ্কার হওয়া সত্ত্বেও যে ফেডারেল সরকার সাড়া দিতে পারেননি রাজধানীর মিউনিসিপাল সরকারের আর্থিক বিনিয়োগের ব্যাপারে যাতে কুটজামালা ব্যবস্থা পুরোপুরি মেরামত করা যায়, আশা করি যাতে তারা মেক্সিকো শহরের সব থেকে গুরুত্বপূর্ন পানি ব্যবস্থার ভবিষ্যতের ব্যাপারে সিদ্ধান্ত নিতে পারেন। কারন দিন দিন সমস্যা বাড়ছে আর এগুলোর সমাধান করতে সময় লাগে।

দ্যা মিজা ক্রনিকলসের ব্লগার লেসলী তেলেজ এপ্রিলে পানি ছাড়া তার প্রথমদিনের অভিজ্ঞতা সম্পর্কে জানিয়েছেন:

তারপরে আজকে আমরা জেগে দেখলাম যে কোন পানি নেই। এটা আমাদের পুরো এলাকার সমস্যা। মেক্সিকোর সব থেকে পরিষ্কার রমনী হওয়ার চেষ্টায় না থেমে, আমি মধ্যযুগীয় একটা স্নান করলাম – চুলায় পানি গরম করে সেটা বাথরুমে আমার সব থেকে বড় বাটিতে নিয়ে গিয়ে। সত্যি বলতে, এতে খুব ভালো কাজ হয়েছে। আমার কেন জানি মনে হচ্ছে কালকে এটা এতো মজার হবে না।

পানির অভাবে এলাকার নাজুক পরিস্থিতি সত্ত্বেও, কিছু নাগরিক প্রশ্ন করেছেন যে সমস্যা সমাধানের এটাই সব থেকে ভালো উপায় কিনা। ব্লগার ড্যানিয়েল হের্নান্ডেজ তার ব্লগ ইন্টারসেকশনে পানির ঘাটতির ক্ষেত্রে কিছু অসামঞ্জস্যতা দেখেছেন:

গত ১২ দিন ধরে না জানি কত কোটি মানুষের কলে স্বল্প, নিম্ন চাপের পানি সরবরাহ হচ্ছে। আর হয়তো আরো কয়েক কোটির জন্য কোন পানি নেই- একেবারেই না। তার মানে মরা টয়লেট, গোসল না, হাফ ওঠা গাছ। কিছু স্থান আর এলাকা খুব বেশী ক্ষতিগ্রস্ত হয়নি (আপনি ভেবে দেখতে পারেন কোনটা), আর অন্যরা প্রচন্ডভাবে (আবার ভাবেন কোনটা)।

সময় হয়েছে [প্রাগৈতিহাসিক হিস্প্যানিক দেবতা] টলালোককে কিছু অর্ঘ দান করার?

জিসাস সাইরেজ তার ব্যক্তিগত ব্লগে মন্তব্য করেছেন সরকারের থেকে পানির স্বল্পতার বৈষম্য আর শহরের স্যানিটেশন পদ্ধতি নিয়ে:

তারপরে, প্রতিদিন সকালের মতো, আমি আমার জানালা দিয়ে দেখলাম- এবার বিষ্ময়ে: এসব কথা শুনে যে মেক্সিকো শহরে পানির সংকট চলছে আমি আমার জানালা দিয়ে দেখলাম একজন শহর কর্মী ফুটপাথ পরিষ্কার করছে উল্টো দিকের রাস্তায়। আলামেডা সান্টা মারিয়া লা রিবেরা, ঝাঁটা না পানি দিয়ে! মেক্সিকো শহরের সরকার যারা কাজ করছেন তারা ফুটপাথ পরিষ্কার করাচ্ছেন পানি দিয়ে। এটা পাগলের কাজ, কিন্তু এটা মেক্সিকো।

দ্যা মেক্স ফাইলস ব্লগে লেখকরা জানিয়েছে যে মেক্সিকো শহরে পানির এই যে ভয়ঙ্কর সংকট তা একটা সতর্কবানী হওয়া উচিত সেইসব শহরের জন্য যারা দ্রুত বাড়ছে তাদের প্রাথমিক প্রয়োজনের প্রতি লক্ষ্য না রেখে:

অবশ্য, যখন ভৌগোলিক আর ভুতাত্ত্বিক চ্যালেঞ্জের কথা আসে একটা শহরের পানি ব্যবস্থার উপরে চাপের কথা বিবেচনা করা উচিৎ যে শহর বিগত অর্ধ দশকে অতিরিক্ত বেড়ে গেছে। আর তার সাথে যুক্ত হয় যাকে বিবেচনা করা হয়েছিল বিগত ৫০০ বছর ধরে (লেক তেজকোকো ড্রেন করা) ভালো প্রকৌশল ব্যবস্থা। এ সবই মেক্সিকো শহরে পানির সমস্যাকে আরো ভঙ্গুর করেছে এবং আরও নাটকীয় সমস্যা তৈরি করেছে।

এটা বাস্তবতা অনুভবের একটি উপায় হবে যাতে মূল জিনিষের প্রতি দৃষ্টি দেয়া হয়। কিন্তু আমার মনে হয় একদিন আমরা শিকাগো, বা নিউ ইয়র্ক বা লন্ডনে ঘুম থেকে উঠবো বিষ্মিত হয়ে যে আমাদের পানির ব্যবস্থা কাজ করা বন্ধ করেছে আর আমাদের কোন ধারণা থাকবে না যে এমন কেন হলো। একই ভাবে এটা হচ্ছে মেক্সিকো সিটিতে। তারা জীবনের মূল জিনিষ নিয়ে চিন্তা করছে না।

কোনাগুয়ার জাতীয় পানি কমিশনের কর্মীরা এল ইউনির্ভারসাল সংবাদপত্রে ঘোষণা দেন যে কুটজামেলা ব্যবস্থার স্থায়িত্ব আংশিক হলেও পূর্নরোদ্ধার করা সম্ভব বেশ কিছু বাঁধের মেরামতের মধ্য দিয়ে যা গত এপ্রিলে শুরু হয়েছে।

আলোচনা শুরু করুন

লেখকেরা, অনুগ্রহ করে লগ ইন »

নীতিমালা

  • অনুগ্রহ করে অপরের মন্তব্যকে শ্রদ্ধা করুন. যেসব মন্তব্যে গালাগালি, ঘৃণা, অবিবেচনা প্রসূত ব্যক্তিগত আক্রমণ থাকবে সেগুলো প্রকাশের অনুমতি দেয়া হবে না .