বন্ধ করুন

আমাদের স্বেচ্ছাসেবক সম্প্রদায় কাজ করে যাচ্ছে বিশ্বের কোনা থেকে না বলা গল্পগুলো আপনাদের কাছে তুলে ধরতে। তবে আপনাদের সাহায্য ছাড়া আমরা তা পারব না। আমাদের সম্পাদনা, প্রযুক্তি এবং প্রচারণা দলগুলোকে সুষ্ঠুভাবে চলতে সহায়তার জন্যে আপনারা আপনাদের দানের অংশ থেকে কিছু গ্লোবাল ভয়েসেসকে দিতে পারেন।

সাহায্য করুন

উপরের ভাষাগুলো দেখছেন? আমরা গ্লোবাল ভয়েসেস এর গল্পগুলো অনুবাদ করেছি অনেক ভাষায় যাতে বিশ্বজুড়ে মানুষ এগুলো সহজে পড়তে পারে।

আরও জানুন লিঙ্গুয়া অনুবাদ  »

কেনিয়া: আন্নান আর তাঁর দলকে ধন্যবাদ

(সমঝোতার) চুক্তিটি ঘোষণার পর রেডিওতে একজন কোফি আন্নান আর তার দলকে নেয়ামা ছোমা ( বারবিকিউ) তে আমন্ত্রণ করেছে, আর একজন তাকে দুটো বিয়ার দিতে চেয়েছেন আর একজন বলেছেন যে কেনিয়ার জন্য আন্নান ঈশ্বর প্রদত্ত সব থেকে ভালো ফেরেশতা ।

নাইরোবি আর কিসুমার রাস্তার উত্তেজনা বোঝাচ্ছিল যে খারাপ দিন শেষ হয়েছে, আর গত দুই মাসের মতো কেনিয়া আবার অতলের দিকে যাবে না ।

চুক্তি শেষ পর্যন্ত করা সম্ভব হয়েছে, তা হয়ত সাংবিধানিক সংশোধন আনবে, তবে কেনিয়ানরা শেষ পর্যন্ত জানে যে তাদের ভাগ্য এখনও তাদের হাতে। এটা একটা জাতির শুরু যারা নিজেদের কে আফ্রিকার ব্যর্থ রাষ্ট্রের ধারা থেকে আলাদা করতে সক্ষম হয়েছে।

চুক্তির বিস্তারিত জিনিষ আর পিছনের কথা বড় বড় শহরে আলোচনা করা হচ্ছে । কেনিয়ান ব্লগগুলোতেও তা লেখা হচ্ছে ।

খবরটি ছড়িয়ে পরার পর, লাভলি মানি ব্লগ কোফি আন্নান আর তার দলকে ধন্যবাদ জানিয়ে একটি চিঠি লিখেছে:

আশাবাদী কেনিয়ানদের পক্ষ থেকে আমি আপনাদের আন্তরিক ভাবে ধন্যবাদ জানাতে চাই আপনাদের কঠোর প্রচেষ্টার জন্য। আর পরিশেষে গ্রাসা মিশেল আর বেনজামিন এমকাপার প্রচেষ্টার কথা অবজ্ঞা করা যাবে না।

লস্টহোয়াইটকেনিয়ান ব্লগের মনে হয়েছে যে এই রাজনৈতিক উন্নয়ন নতুন বছরের উপহারের মতো আর সিদ্ধান্ত নিয়েছে যে কেনিয়ানদের আনন্দ আর নাচ অনলাইনে দেখাবেন:

“এই অসাধারণ দিন উদযাপনের জন্য যখন আমাদের নেতারা সিদ্ধান্ত নিয়েছেন কেনিয়াতে শান্তি ফিরিয়ে আনার, আমি খুবই উত্তেজিত আপনাদের সামনে উৎসবের পুরোটা তুলে ধরতে যাতে আপনারাও দেখতে আর এই আনন্দে শরিক হতে পারেন… আমরা আমার একটা নাচ দিয়ে শুরু করব . . .”

পলিটিক্যাল আর্টিক্যালস ব্লগেও কেনিয়ার আনন্দ ধরা পড়েছে:

কেনিয়ানরা চিৎকার আর নাচ করেছে যখন প্রেসিডেন্ট কিবাকি আর বিরোধী দলীয় নেতা রায়লা ওডিংগা নাইরোবিতে ক্ষমতাভাগের চুক্তিতে সই করলেন।

ওডিঙ্গার দল অরেন্জ ডেমোক্র্যাটিক মুভমেন্ট এর সমর্থকরা চুক্তি সই এর পর কিসুমুতে উৎসব করেছে। জাতিসংঘের পূর্বতন মহা সচিব কোফি আন্নান কিবাকি আর ওডিংগার সাথে সরাসরি আলোচনার পরই চুক্তি সম্ভব হয়েছে।

কুমেকুচা ব্লগের লেখা থেকে বোঝা যায় যে কেমন করে সংঘর্ষের আর ধীর গতির কথার কারনে মানুষের জীবন প্রায় স্থবির হয়ে গিয়েছিল :

মনে হচ্ছে পুরো দেশ ডিসেম্বর ৩০, ২০০৭ থেকে শ্বাসরুদ্ধকর অবস্থায় ছিল আর মাত্র কয়েক ঘণ্টা আগে আন্নানের শান্তি চুক্তি সই হবার পরে মানুষ এখন আবার প্রাণ ভরে শ্বাস নিতে পারছে। ওই মূহুর্তটির নাটকীয়তা ও উত্তেজনা ধরে রেখে আন্নান বললেন “আমাদের মধ্যে চুক্তি হয়েছে”।

কেনিয়ার বিভিন্ন অন্চলে বিপুল উৎসব করার খবর পাওয়া গেছে। যেমন মিগোরীতে, প্রত্যক্ষদর্শীদের খবর অনুযায়ী উন্মত্ত ভাবে আনন্দ করেছে লোকজন। আমি যখন লিখছি আমি এখনও রিফ্ট ভ্যালী থেকে প্রতিক্রিয়ার কোন খবর পাই নি। ওখানে এখন পর্যন্ত কোন উৎসবের খবর পাওয়া যায় নি।

হোয়্যারম্যাডনেসরিসাইডস ব্লগের জন্যে এটি সময় সবাইকে “নতুন বছরের শুভেচ্ছা” জানানোর কারন অনেক জন্যেই এখন সময় নতুন করে তাদের সাধারণ জীবনে ফেরত যাওয়া:

আমাদের এখানকার সবাই একে অপরকে “নববর্ষের শুভেচ্ছা” জানাচ্ছে। আজ সেই দিন যেদিন ২০০৮ সাল শুরু হল আমাদের জন্যে।

‘ওরিউঙ্গা পালা'য় আমি ডক্টর ফ্র্যান্ক এনজেঙ্গা (কেনিয়ার সবচেয়ে জনপ্রিয় মনোবিদ) কেনিয়ার নির্বাচন পরবর্তী সহিংসতার জন্যে কারণ হিসেবে উল্লেখ করেছেন “রাজনীতি নিয়ে কথা বলা থামানো তে অক্ষমতাকে”।

ওয়ান নাইরোবিয়ান এই আনন্দ উৎসব গুলো পর্যবেক্ষণ করার পর আন্তর্জাতিক প্রচার মাধ্যমকে অনুরোধ জানিয়েছে এনিয়ে তাদের কাভারেজ বাড়াতে:

এই সাম্প্রতিক উন্নয়নকে সারা কেনিয়া উন্মত্ত আনন্দ উৎসবের মধ্যে দিয়ে স্বাগত জানিয়েছে এবং এটি দুই মাস ব্যাপী উত্তেজনা ও সংঘর্ষকে থামাবে।

আমার গভীর আশা যে আন্তর্জাতিক প্রচার মাধ্যমগুলো যেমন সিএনএন, বিবিসি, আলজাজিরা, স্কাই নিউজ এই সুখবর ১৫ মিনিট অন্তর অন্তর প্রচার করে জানাবে যে কেনিয়ানরা শুধু ধারালো অস্ত্রের প্রতিনিধিত্ব করে না, তারা সহাবস্থান, অধ্যাবসায়, প্রতিরোধ, চুক্তি, শান্তি এবং একতাকেও প্রতিফলিত করে। শুধ ঋণাত্মক রিপোর্ট করবেন না!

এই চুক্তি সম্পাদনের পর এখন সময় ক্ষত সারানোর এবং পুন:নির্মানের।

আলোচনা শুরু করুন

লেখকেরা, অনুগ্রহ করে লগ ইন »

নীতিমালা

  • অনুগ্রহ করে অপরের মন্তব্যকে শ্রদ্ধা করুন. যেসব মন্তব্যে গালাগালি, ঘৃণা, অবিবেচনা প্রসূত ব্যক্তিগত আক্রমণ থাকবে সেগুলো প্রকাশের অনুমতি দেয়া হবে না .