বন্ধ করুন

আমাদের স্বেচ্ছাসেবক সম্প্রদায় কাজ করে যাচ্ছে বিশ্বের কোনা থেকে না বলা গল্পগুলো আপনাদের কাছে তুলে ধরতে। তবে আপনাদের সাহায্য ছাড়া আমরা তা পারব না। আমাদের সম্পাদনা, প্রযুক্তি এবং প্রচারণা দলগুলোকে সুষ্ঠুভাবে চলতে সহায়তার জন্যে আপনারা আপনাদের দানের অংশ থেকে কিছু গ্লোবাল ভয়েসেসকে দিতে পারেন।

সাহায্য করুন

‘জীবন রক্ষা:’ জলবায়ু সংকট সমাধানের জন্যে আদিবাসী জীবনধারা অপরিহার্য

“একটি সুরক্ষিত ভূমিই হলো ভবিষ্যৎ।” ফুতুরোস ইন্দিজেনাস চিত্রিত, অনুমতিসহ ব্যবহৃত।

২২ এপ্রিল তারিখের ধরিত্রী দিবস আমাদের বৈশ্বিক পরিবেশগত সংকট মোকাবেলা সম্পর্কিত বিতর্ককে উৎসাহিত করে। আমরা আদিবাসী সম্প্রদায়ের কাছ থেকে কী শিখতে পারি তা বুঝতে সাহায্য করার জন্যে গ্লোবাল ভয়েসেস মেক্সিকোর চোলুতেকার একজন নাহুয়াটল সাংবাদিক মিরিয়াম ভার্গাসের সাথে কথা বলেছে।

পরিবেশগত সমস্যা নিয়ে প্রতিবেদন করা ভার্গাস এক দশকেরও বেশি সময় ধরে তার স্থানীয় সম্প্রদায়ের সাথে কাজ করেছেন। তিনি মনে করেন জলবায়ু ও পরিবেশগত জরুরি অবস্থার মূল চাবিকাঠি আদিবাসী এবং গ্রামীণ সম্প্রদায়ের মধ্যে পাওয়া যায়, পশ্চিমা, শহুরে বা “সবুজ পুঁজিবাদী” সমাধানগুলির মধ্যে নয়। ভার্গাস “আমরা সবাই ধ্বংস হয়ে গেছি” – নিয়তিবাদের এমন আখ্যানগুলিও বন্ধ করতে চান।

তিনি তাদের হিসেবে জলবায়ুর জন্য জরুরি করণীয় পুনর্বিন্যাস করার জন্যে কর্মরত মেক্সিকোর আদিবাসী সাংবাদিকদের একটি নেটওয়ার্ক ফুতুরোস ইন্দিজেনাস (“আদিবাসী ভবিষ্যৎ”) এর অংশ। তারা আদিবাসী, উন্নয়ন এবং বিষাদ সম্পর্কিত পুরাতন আখ্যানগুলি মোকাবেলা করে।

ফুতুরোস ইন্দিজেনাসে আমরা এই সত্যটির প্রতিফলন করেছি যে আমাদের সম্প্রদায়ে আমরা যা অনুভব করি এটা [নিয়তিবাদ] তার প্রতিনিধিত্ব করে না। [এছাড়াও] এই সংকটের জন্যে আমরা দায়ী নই। আমরা জনগণকে সচেতন হওয়ার আহ্বান জানিয়ে বলি জলবায়ু সংকটটি খুব নির্দিষ্ট কয়েকটি কর্পোরেশনের কারণে ঘটেছে। এই কর্পোরেশনগুলো সমগ্র গ্রহের প্রাকৃতিক সম্পদ দখল করে রেখেছে।

উদাহরণস্বরূপ ১৯৮৮ সাল থেকে গ্রীনহাউস গ্যাস নির্গমনের ৭০ শতাংশেরও বেশির জন্যে মাত্র ১০০টি কোম্পানি দায়ী এবং গোটা বিশ্বের নির্গমনের অর্ধেকেরও বেশির জন্যে শুধু ২৫টি ব্যক্তিগত ও রাষ্ট্রীয় মালিকানাধীন কর্পোরেশনকে চিহ্নিত করা যেতে পারে। জলবায়ু পরিবর্তন সম্পর্কে নিষ্ক্রিয়তার প্রভাব মানবজাতি ও অন্যান্য প্রজাতির জন্যে মারাত্মক। জলবায়ু পরিবর্তন শুধু জীবাশ্ম জ্বালানি সম্পর্কিত নয় – এর মধ্যে জীববৈচিত্র্যের বাস্তুতন্ত্রের ক্ষতি, বন উজাড়, প্রাকৃতিক সম্পদের অতিরিক্ত ব্যবহার (প্রযুক্তিগত ও ফ্যাশন শিল্পসহ), কৃষি শিল্প এবং আরো অনেক কিছু অন্তর্ভুক্ত।

বিপরীতক্রমে, আদিবাসীরা বিশ্বের জীববৈচিত্র্যের ৮০ শতাংশের সুরক্ষা  করে বলে তারা জলবায়ু পরিবর্তনের প্রভাব প্রশমনে গুরুত্বপূর্ণ। উদাহরণস্বরূপ, আমাজন বনাঞ্চল বিশ্বের অক্সিজেনের ২০ শতাংশের বেশি তৈরি করে। ভার্গাস বলেছেন:

এই উপাখ্যান পরিবর্তনে আমরা সর্বোপরি বিভিন্ন আদিবাসী ও গ্রামীণ সম্প্রদায়, তাদের পুনরায় কেন্দ্রীভূত করা এবং আমরা যেভাবে জীবন গড়ে তুলছি, বিভিন্ন আহরণ প্রকল্প থাকা স্বত্ত্বেও কীভাবে আমরা অঞ্চল এবং স্থানগুলিকে নিরাময় করছি সে  সম্পর্কে কথা বলতে চাই।

ভার্গাস চান জনগণ স্বীকার করুক আমরা জলবায়ু সংকট সমাধান করতে এবং পরিবেশের সাথে সামঞ্জস্যপূর্ণ জীবনযাপন করতে চাইলে আদিবাসীদের জীবনযাপনের পদ্ধতিগুলি অনুসরণ করার মতো একটি উদাহরণ।

আমরা আশাবাদী শব্দ দিয়ে কখনো কখনো ঘটে যাওয়া সমস্ত কিছুর সাথে অদৃশ্য হয়ে যাওয়া সাহস ফিরিয়ে আনার মাধ্যমে এই আখ্যানগুলিকে ফিরিয়ে নিতে চাই। আমাদের একটা আশাপূর্ণ ভবিষ্যৎ রয়েছে, প্রতিবার বীজ বপন করে আমরা প্রতিবারই জীবনকে রক্ষা করে থাকি, প্রতিবার আমরা নিজেদেরকে জনগণ হিসেবে সংগঠিত করে প্রতিবারই আমরা অস্তিত্বশীল থাকি, আর এভাবেই আমরা এখানে আছি।

ঐতিহ্য, শিল্প এবং ভাষার আনন্দ তাকে উৎসাহ দেয়। বিশেষ করে ভাষা তার সম্প্রদায়ের পরিচয়ের কেন্দ্রবিন্দু এবং পৃথিবীর বাস্তুতন্ত্র রক্ষার জন্যে তাদের লড়াইয়ের একটি অবিচ্ছেদ্য অংশ।

বেশ কয়েকটি সম্প্রদায়ে আমরা এমনকি স্থানীয় ভাষাগুলিকে [জলবায়ু সম্পর্কে] উপাখ্যান পরিবর্তনের মধ্যে নিয়ে আসছি। এভাবে আমরা নিজেদের বুননকে আরো শক্তিশালী করে তুলছি – স্থানীয় জনগণ হিসেবে আমরা আমাদের মহাজাগতিক দৃষ্টিভঙ্গি সম্পর্কে গভীরভাবে কথা বলি এবং আমরা গভীরভাবে কথা বলি কী কী আমাদের ক্ষতি করে এবং কী আমাদেরকে পৃথিবীর কাছাকাছি অনুভব করায় তা নিয়ে।

জীবনের সুরক্ষা

তার চিন্তাধারার কেন্দ্রবিন্দু হলো জীবনের প্রতিরক্ষা (লা ডিফেনসা দে লা ভিদা), বিশেষ করে যাকে তিনি “ভূমিতে মৃত্যুর চর্চা” বলেছেন তার বিরুদ্ধে। তার জন্যে জীবনের উপর কথোপকথন কেন্দ্রীভূত করার মানে হলো একটি নির্ধারিত জায়গায় সব ধরনের জীববৈচিত্র্যের সাথে সহাবস্থানের পরিপ্রেক্ষিতে চিন্তা করা।

আমরা যখন জীবন সুরক্ষার কথা বলি, তখন আমরা অস্তিত্ব বজায় রাখার জন্যে অস্তিত্বের একটা উপায় চালু রাখতে [জীববৈচিত্র্যের] বেঁচে থাকার শর্তগুলো সুরক্ষার বিষয়ে কথা বলি।

তারপরও তিনি যুক্তি দেন যে কিছু উন্নয়নমূলক প্রকল্প জীববৈচিত্র্যের উদ্বেগকে এড়িয়ে যায়। “এখানে আর জল নেই, আর পৃথিবী নেই, বাতাস দূষিত। অবশিষ্ট থাকা জল বা মাটি মানুষকে অসুস্থ করে তোলে,” তিনি বলেন।

বিশ্বব্যাপী প্রযুক্তিগত যন্ত্রপাতি ও অবকাঠামোর জন্যে ধাতু নিষ্কাশন ও বিক্রি করে থাকা খনিজ আহরণকারীরা জলপথকে দূষিত করে, বন উজাড় করে এবং শেষ পর্যন্ত স্থানীয় জনগণের স্বাস্থ্যের ক্ষতি করে, তাদের বাস্তুচ্যুত করে এবং সামাজিক দ্বন্দ্বে অবদান রাখে। লাতিন আমেরিকার আদিবাসী ও গ্রামীণ সম্প্রদায়গুলি প্রায়শই খনি, বাঁধ এবং অন্যান্য বৃহৎ অবকাঠামোগত প্রকল্প স্থাপনের প্রতিবাদের মাধ্যমে প্রায়শই তাদের জীবনকে লড়াইয়ের মুখোমুখি করে। তার সম্প্রদায়ের উপর একটি গ্যাস পাইপলাইন, একটি তাপবিদ্যুৎ স্থাপনা এবং একটি কৃত্রিম জলাশয়ের বিরূপ প্রভাবের নিন্দা করার পরে অজ্ঞাত আক্রমণকারীরা ২০২২ সালের এপ্রিল মাসে ভার্গাসের বাড়িতে দু’বার হামলা চালায়।

ভার্গাস বলেছেন, “উন্নয়ন লাভের জন্যে প্রস্তুত একটা ফাঁকা মাঠ হিসেবে এই সমৃদ্ধ ভূমি, অন্যান্য সম্পদ, অন্য ধরনের জীবনযাপনের উপায়গুলিকে দেখাটা বেশ চিত্তাকর্ষক।”

গ্রামীণ এলাকার শিল্প ও কৃষিজাত পণ্যের বেশির ভাগই চলে যায় শহুরে কেন্দ্রগুলোতে। তাই ভার্গাস উন্নয়নের নেতিবাচক প্রভাব কমাতে শহরবাসীদেরকে তাদের ভোগ কমানোর পরামর্শ দেন। তিনি বলেন:

আক্ষরিক অর্থেই [গ্রামীণ] সম্প্রদায় হিসেবে আমরা আর বাঁচতে, পানি পান করতে, বা শ্বাস নিতে পারি না, কারণ তারা আমাদের বেঁচে থাকার শর্তাবলীর সবকিছুই আহরণ এবং লক্ষ লক্ষ মানুষের জন্যে প্রয়োজনীয় সবকিছু শোষণ করে করে নিয়ে গিয়ে অন্যান্য জায়গায় জীবনধারা তৈরি করছে।

পশ্চিমা সমাধানের প্রয়োজন নেই

বেশিরভাগ পশ্চিমা এবং উপসাগরীয় দেশগুলি এই গ্রহ পূরণ করতে পারার চেয়েও অনেক বেশি সম্পদ ভোগ করে। “এই জীবনধারা কার্যকর নয়,” ভার্গাস বলেছেন। “আমাদের সম্প্রদায়গুলিতে আমাদের জীবনধারায় আমরা এখন পর্যন্ত যে ভারসাম্য অর্জন করতে পেরেছি, আমাদের অবশ্যই তাতে ফিরে যেতে হবে।”

এই কারণে তিনি মনে করেন জলবায়ুর জরুরি পরিস্থিতির সমাধান পশ্চিমে বা শহরে নয়, বরং পাওয়া যাবে গ্রামীণ এবং আদিবাসী সম্প্রদায়গুলিতে।

সংকটটির সমাধান বৈশ্বিক উত্তরে বা কর্পোরেশনগুলিতে নয়, বরং  আমরা যারা এখানে মাটির কাছাকাছি বাস করি, আমরা যারা ভুট্টা এবং মটরশুটি চাষ করছি, এই চর্চাগুলির মাধ্যমে শিল্প থেকে জমি এবং আমাদের সমস্ত অঞ্চলের অবনতি ঘটানো অভ্যাস থেকে আমরা নিরাময় করছি। আমাদের জনগণ বহু বছর ধরে যা করে আসছে এবং এখন যার পুনর্জন্ম হচ্ছে যুবক ও নারীদের মাধ্যমে সেসব নিয়ে আমাদের অবশ্যই ভাবতে হবে।

এর মানে এই কথা বলা যাবে না যে মেক্সিকোর আদিবাসী সম্প্রদায়গুলি সারা বিশ্বের অন্যান্য মানুষের সাথে সম্পর্ক রাখে না বা এর থেকে অনেক দূরে।

গত বছর গ্লাসগোর কপ-২৬ সম্মেলনে ভার্গাস ও তার সহকর্মীরা এমন একটি আন্তর্জাতিক সম্প্রদায়কে দেখে উৎসাহিত হন যাদের সাথে তিনি পৃথিবীর অন্যান্য সম্ভাব্য ভবিষ্যত কল্পনা করতে পারেন৷

আমরা সব দিক দিয়ে বোনা এবং ঐক্যবদ্ধ একটি জাতি বলে জাতীয়তাবাদের এই আলোচনাটি আমাদের আলাদা করতে পারবে না।  অনেক অর্থে মিলে যাওয়া আমাদের অনেক আচার-অনুষ্ঠানে আমাদের দেখা হওয়া ছাড়াও আমাদের মাটির প্রতি ভালবাসা রয়েছে।

উপসংহারে তিনি বলেন:

তাই আমরা বলি আমরাই আদিবাসী ভবিষ্যৎ। সবাই যখন জিজ্ঞেস করে আমরা কীভাবে এই সংকট থেকে বের হবো তখন আমরা বলি, ‘এই হলো সমাধান!’ এটা খুঁজতে আমাদের বেশিদূর যেতে হবে না, জীবিত বিকল্প হিসেবে আমরা অস্তিত্বশীল, আমরা বিকল্পগুলি তৈরি এবং রূপান্তর করছি।

আলোচনা শুরু করুন

লেখকেরা, অনুগ্রহ করে লগ ইন »

নীতিমালা

  • অনুগ্রহ করে অপরের মন্তব্যকে শ্রদ্ধা করুন. যেসব মন্তব্যে গালাগালি, ঘৃণা, অবিবেচনা প্রসূত ব্যক্তিগত আক্রমণ থাকবে সেগুলো প্রকাশের অনুমতি দেয়া হবে না .