বন্ধ করুন

আমাদের স্বেচ্ছাসেবক সম্প্রদায় কাজ করে যাচ্ছে বিশ্বের কোনা থেকে না বলা গল্পগুলো আপনাদের কাছে তুলে ধরতে। তবে আপনাদের সাহায্য ছাড়া আমরা তা পারব না। আমাদের সম্পাদনা, প্রযুক্তি এবং প্রচারণা দলগুলোকে সুষ্ঠুভাবে চলতে সহায়তার জন্যে আপনারা আপনাদের দানের অংশ থেকে কিছু গ্লোবাল ভয়েসেসকে দিতে পারেন।

সাহায্য করুন

উপরের ভাষাগুলো দেখছেন? আমরা গ্লোবাল ভয়েসেস এর গল্পগুলো অনুবাদ করেছি অনেক ভাষায় যাতে বিশ্বজুড়ে মানুষ এগুলো সহজে পড়তে পারে।

আরও জানুন লিঙ্গুয়া অনুবাদ  »

নাইজেরিয়া: বিশ্বব্যাংকের প্রধানের পদে অকোনজো- আইওয়ালা-এর প্রার্থীতা, গুঞ্জনের সৃষ্টি করেছে

এঙ্গোজি ওকানিয়া–আইওয়ালা (নোই), নাইজেরিয়ার অর্থ এবং অর্থনৈতিক সমন্বয় বিষয়ক মন্ত্রণালয়ের মন্ত্রী। তিনি এখন বিশ্বব্যাংকের সেরা পদটি পেতে চান, এর জন্য তাকে জিম ইয়োং কিম (একজন কোরীয়-আমেরিকান চিকিৎসক এবং নিউ হ্যাম্পশায়ার ডার্টমাউথ কলেজের প্রসিডেন্ট) এবং জোশে এ্যান্টোনিও ওকাম্পোর, (কলম্বিয়ার প্রাক্তন অর্থমন্ত্রী এবং বর্তমানে নিউ ইয়র্কের কলম্বিয়া বিশ্ববিদ্যালয়ের অধ্যাপক) সাথে লড়াই করতে হবে।

এই তিনজনেরই ইচ্ছে বর্তমান প্রেসিডেন্ট রবার্ট জোয়েলিক-এর উত্তরসুরী হবার। বর্তমান প্রেসিডেন্টের জোয়েলিকের মেয়াদ ৩০ জুন ২০১২-এর মধ্যে শেষ হয়ে যাবে। এখন নোই জনসম্মুখে তার এই ইচ্ছা প্রকাশ করেছেন, আর এই ঘটনা আফ্রিকার সামাজিক প্রচার মাধ্যমের নেটনাগরিকদের মাঝে মন্তব্যের ঝড় তুলেছে।

বিশ্বব্যাংকে নোই অথিতি নন, নাইজেরিয়ার বর্তমান সরকারের সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ নারী কর্মকর্তা হবার জন্য তিনি বিশ্ব ব্যাংকের ম্যানেজিং ডিরেক্টরের পদ থেকে পদত্যাগ করেন। গত বছর, নাইজেরিয়াঃ একজন নারীর জন্য গভীর ভাবে অপেক্ষা করছে , নামক প্রবন্ধে নেট নাগরিকরা ভবিষ্যদ্বাণী করে যে নোই শীঘ্রই বাতাসে কিছু ধুলো উড়াবে:

যখন আমি অর্থমন্ত্রী হই, তখন তারা আমাকে অকাঞ্জো ওয়াহালা- অথবা সমস্যা সৃষ্টিকারী নারী নামে অভিহিত করে। এর মানে হচ্ছে আমি আপনাদের নরকে পাঠাবো, কিন্তু তারা আমাকে যে নামে ডাকুক না কেন, এতে আমার কিছু আসে যায় না। আমি এক লড়াকু যোদ্ধা। আমি যা করি, একেবারে তাতে আমার মনোযোগ নিদৃষ্ট থাকে। আর আমি যা পেতে চাই, তা না পাওয়া পর্যন্ত আমি থামি না। যদি আপনি আমার পথে প্রতিবন্ধক হয়ে দাঁড়ান, তাহলে আমি লাথি মেরে আপনাকে সরিয়ে দেব।

এঙ্গোজি ওকানিয়া–আইওয়ালা

এঙ্গোজি ওকানিয়া–আইওয়ালা, নাইজেরিয়ার অর্থ এবং উক্ত মন্ত্রণালয়ের সমন্বয়কারী মন্ত্রী, ছবি www.imf.org/-এর পাবলিক ডোমেইন থেকে প্রকাশিত।

এবং নিশ্চিতভাবে বলা যায়, নোই তা করে। এই বছরের শুরুতে পেট্রোলের উপর থেকে ভর্তুকি উঠিয়ে নেবার মূলে ছিলেন তিনি। আর এই ঘটনা, যা আরো বিস্তৃত হয়ে জাতীয় বিক্ষোভে পরিণত হয়:

...নাইজেরিয়ার তরুণরা সামাজিক প্রচার মাধ্যমের ব্যবহারের মধ্যে তথ্যের গণতন্ত্রায়ণে ব্যক্তিগত পর্যায়ে নিয়ে এসেছে। যত দিন যাচ্ছে, জাতি যেন নিস্তেজ হয়ে পড়ছে, কেউ কাজ করছে না, আয় করছে না, বা অনেকেই আর শিক্ষা লাভে মনোযোগী নয়।

আফ্রিকার দুই শক্তিশালী অর্থনৈতিক রাষ্ট্র এঙ্গোলা এবং দক্ষিণ আফ্রিকার সহায়তায়, প্রিটোরিয়ায় থেকে নোই- তার এই প্রার্থিতার কথা ঘোষণা করেন এই বাক্য দিয়ে:

আমি বিবেচনা করি, বিশ্বের জন্য বিশ্বব্যাংক একটি অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ প্রতিষ্ঠান এবং বিশেষ করে উন্নয়নশীল বিশ্বের সেরা নেতৃত্বের প্রয়োজন… কাজেই আমি খুব শক্তিশালী একদল প্রার্থীর সাথে এক প্রতিদ্বন্দ্বীতায় অংশগ্রহণে ইচ্ছুক এবং আমি কি আত্মবিশাসী? নিঃসন্দেহে।

আফ্রিকার অন্য দেশ থেকে পাওয়া সমর্থনের প্রতি তিনি কৃতজ্ঞ। নোই-এর ফেসবুকের পাতায় যে বিবৃতিটি প্রদান করা হয়েছিল, তা নিচে তুলে ধরা হল:

মনোনয়ন লাভে এবং বিশ্বব্যাংক যাতে আফ্রিকার নাগরিকদের আরো সেবা প্রদান করতে পারে, সেই জন্য আফ্রিকার আরো প্রতিনিধি সেখানে পাঠানোর জন্য আফ্রিকার অনেক দেশের সমর্থন লাভের কারণে আমি নিজেকে সম্মানিত বোধ করছি। ২২ বছর ধরে বিশ্ব ব্যাংকের চাকুরী করার কারণে উন্নয়নশীল বিশ্বের জীবন যাত্রার মানের উন্নয়নের প্রতি ব্যাংকের প্রতিশ্রুতির বিষয়ে আমি জ্ঞাত। নাইজেরীয়রা অর্থমন্ত্রী থাকার সময় যে আগ্রহ আমার দেশের জন্য সর্বোচ্চটা দিতে আমাকে উদ্দীপিত করেছে, সেই একই আগ্রহ নিয়ে আমি সেখানে যেতে চাই।

তবে আফ্রিকার নেট নাগরিকরা তার প্রার্থিতার প্রতি তাদের প্রতিক্রিয়া প্রদর্শন করেছে। কেউ তার এই প্রার্থিতার প্রতি সমর্থন প্রদান করেছে এবং কেউ তার এই প্রার্থীতা বিরুদ্ধে অবস্থান করেছে। আর অন্যরা এই বিষয়ে শুধুমাত্র ভিন্ন মতপোষণ করেছে।

নোই-এর ফেসবুকের ওয়ালে সাম আয়গো মন্তব্য করেছে:

বিশ্ব ব্যাংকের সর্বোচচ পদের জন্য আপনি যোগ্য নাগরিক, আমি জানি না কেন যুক্তরাষ্ট্র এত বেশী স্বার্থপর, যে এখনো তারা উক্ত পদের জন্য লালায়িত। ম্যাডাম, ঈশ্বর যেন আপনার উপর সুদৃষ্টি প্রদান করে।

স্যামের মতই নাইয়ারদাজভি গুমবনজভান্দা একই আশাবাদ ব্যক্ত করেছে:

আমার ভগ্নি, আপনার প্রার্থীতার প্রতি আমার পূর্ণ সমর্থন রইল।

টুইটারে যারা নোই-এর সমর্থক, তার মধ্যে ডালে@ ডিআরকুমো অন্যতম:

@ডিআরকোমো:: এবার বিশ্বব্যাংকের প্রেসিডেন্ট পদে আফ্রিকার একজন দাবীদার এবং এঙ্গোজি ওকানিয়া–আইওয়ালা তার মধ্যে অন্যতম।

প্রেহ ওমানি লিখেছেন:

@প্রেহফ্রেড: @নোইওয়েলা: এই ঘটনায় নাইজেরিয়াকে সম্মানিত করা হল। উক্ত পদের মতই এর মনোনয়নও সমান গুরুত্বপূর্ণ, অনেকটা গ্রামী,অস্কার, নোবেল ইত্যাদি পুরস্কারের মনোনয়ন লাভের মত! অভিনন্দন!!

“কেন এঙ্গোজি ওকানিয়া–আইওয়ালা বিশ্বব্যাংকের পরবর্তী প্রেসিডেন্ট হওয়া উচিত” নামক প্রবন্ধে ল্যান্ট প্রিটচেট, যুক্তরাষ্ট্রের প্রার্থী জিম ইয়োং কিমের সাথে ছয়টি বৈশিষ্ট্যের মাধ্যমে নোই-এর তুলনা করেছেন। প্রিটচেট বিষয়টিকে যে ভাবে মুল্যায়ন করেছেন, তাতে উক্ত পদের জন্য নোই পেয়েছেন ৫ নম্বর এবং কিম অর্জন করেছে ১ নম্বর:

যুক্তরাষ্ট্রের এতে নেতৃত্ব প্রদান করার সুযোগ রয়েছে। তারা এই দাবী ত্যাগ করতে পারে এই কারণে যে এতে তাদের আভ্যন্তরীণ রাজনীতিতে আরো বেশী ভুমিকা রাখার সুযোগ থাকবে এবং তারা যুক্তরাষ্ট্রের এক প্রার্থীকে সামনে তুলে ধরছে যে কিনা আফ্রিকার দেশ সমূহের মনোনীত উক্ত পদে বিকল্প প্রার্থী, এঙ্গোজি ওকানিয়া–আইওয়ালার চেয়ে কম যোগ্য।

নিচে নোই-এর প্রার্থিতার বিরোধিতা করে প্রদান করে করা কিছু টুইট তুলে ধরা হল।

অলালু আদেনিরান:

@লাদেনইরান:: নাইজেরিয়ার এক উত্তেজনাকে আমরা মিইয়ে দিচ্ছি। #নোই বিশ্বব্যাংকের এই পদে বসতে সক্ষম হবে না। @বারাকওবামার জন্য এটা নির্বাচনের বছর এবং সে প্রবল প্রতিদ্বন্দ্বিতার মুখে রয়েছে।

ইসমাইল উমার এই বিষয়ে খানিকটা ব্যাঙ্গ করেছে:

@ইয়াঙ্কি ২০০৮৯৩:: @ নোইওয়েলা যদি খুব বাস্তববাদী হওয়া যায়, তাহলে আপনি বিশ্বব্যাংকের পেশায় এগিয়ে যেতে পারেন। আমরা নাইজেরীয় নাগরিকরা নাইজেরিয়ার অর্থনীতিতে আর আপনরা প্রভাব দেখতে চাই না।

এএ, যেমনটা এএ-এতে‏:

@আদাবা২০১৫: @ নোইওয়েলা বিশ্বব্যাংকের প্রসিডেন্ট পদে আসীন হবার লড়াইয়ে আপনার সফলতা কামনা করছি। আমরা চাই আপনি সফল হোন, কারণ আপনি চলে যাচ্ছেন, এই বিষয়টি দেখার জন্য আমাদের আর তর সইছে না। কিছু কিছু ঘটনায় আপনি এই সরকারের জন্য লজ্জার কারণ হয়ে দাঁড়িয়েছেন।

দি ইনডিফারেন্ট গ্যাং, কেন অপালোর ব্যক্তিগত অভিমত দ্বারা প্রভাবিত:

@কেঅপালো: বিশ্ব ব্যাংকের প্রধানের পদে মনোনয়নের বিষয়ে এক বিস্ময়কর প্রতিক্রিয়া এসেছে, আমি দ্বিধান্বিত। এনগোজিকে সেখানে দেখতে ভালই লাগবে, কিন্তু আমি বিস্মিত যে এতে আসলে কোন ধরনের পার্থক্য তৈরী হবে কিনা।

একটি বিষয় হচ্ছে নিশ্চিত, আর সেটি হচ্ছে, নোই বিশ্ব ব্যাংকের প্রেসিডেন্ট পদে লড়াই-এর ময়দান খালি করে সরে পড়বে না। কে এই পদে বসবে, কয়েক সপ্তাহের মধ্যে সেই বিষয়টি নির্ধারণ হতে যাচ্ছে। তবে পিটার মাইকেল, উক্ত পদে নোই এবং আফ্রিকান অন্য জাতীর মনোনয়ন প্রাপ্তদের বিষয়ে বেশীরভাগ নেটনাগরিকদের দৃষ্টিভঙ্গির সারাংশ তৈরী করেছেন, যা নীচে তুলে ধরা হল:

অভিনন্দন ম্যাডাম! এমনকি যদিও এখনো আপনি সে পদে আসীন হতে পারেননি, তারপরেও আমরা আপনাকে নিয়ে গর্বিত, আপনি আপনার বুদ্ধিমত্তা এবং দক্ষতা দিয়ে নাইজেরিয়াকে গর্বিত করেছেন। এটি এমন এক অর্জন যাকে, কেউ হরণ করতে পারবে না। স্রষ্টা যেন আপনার কনুই মোলায়েম করে, আপনার প্রজ্ঞাকে আরো বৃদ্ধি করে, যাতে আপনি মানবতার সেবায় ক্রমাগত কাজ করে যেতে পারেন।

আলোচনা শুরু করুন

লেখকেরা, অনুগ্রহ করে লগ ইন »

নীতিমালা

  • অনুগ্রহ করে অপরের মন্তব্যকে শ্রদ্ধা করুন. যেসব মন্তব্যে গালাগালি, ঘৃণা, অবিবেচনা প্রসূত ব্যক্তিগত আক্রমণ থাকবে সেগুলো প্রকাশের অনুমতি দেয়া হবে না .