বন্ধ করুন

আমাদের স্বেচ্ছাসেবক সম্প্রদায় কাজ করে যাচ্ছে বিশ্বের কোনা থেকে না বলা গল্পগুলো আপনাদের কাছে তুলে ধরতে। তবে আপনাদের সাহায্য ছাড়া আমরা তা পারব না। আমাদের সম্পাদনা, প্রযুক্তি এবং প্রচারণা দলগুলোকে সুষ্ঠুভাবে চলতে সহায়তার জন্যে আপনারা আপনাদের দানের অংশ থেকে কিছু গ্লোবাল ভয়েসেসকে দিতে পারেন।

সাহায্য করুন

উপরের ভাষাগুলো দেখছেন? আমরা গ্লোবাল ভয়েসেস এর গল্পগুলো অনুবাদ করেছি অনেক ভাষায় যাতে বিশ্বজুড়ে মানুষ এগুলো সহজে পড়তে পারে।

আরও জানুন লিঙ্গুয়া অনুবাদ  »

জাপান: অ্যানাইম চলচ্চিত্রে অবতার জীবন্ত হয়ে এসেছে

জাপানের গ্রামের দৃশ্যের পটভূমিতে, কিছূ ভালো লাগার অনুভব আর অদ্ভুত একটা ভার্চুয়াল একটি পৃথিবীর সমন্বয় দেখানো হয়েছে পরিচালক মামোরু হসোদার নতুন অ্যানিমেটেড চলচ্চিত্র সামার ওয়ারে (サマーウォーズসামা ওজু)।

এই অ্যানাইম (জাপানী কার্টুন চলচ্চিত্র) কেঞ্জির গল্প বলে, যে অংকে পটু একজন বেমানান কিশোর। সে ভার্চুয়াল বিশ্বে একটা ঐতিহাসিক যুদ্ধে লিপ্ত হবে যেখানে তাকে কোড ভেঙ্গে অবতারদের সাথে যুদ্ধ করে জিততে হবে। তার পক্ষে আছে সনাতন মতবাদের , ঐতিহ্যবাহী জাপানী একটা পরিবার।

কাদোগাওয়া অ্যানাইমের সৌজন্যে সামার ওয়ার চলচ্চিত্রের একটি ট্রেইলার

পুরস্কার প্রাপ্ত চিত্রনাট্য লেখক আর পরিচালকের সামার ওয়ার চলচ্চিত্রটি জাপানী জনগণ খুব ভালোভাবে গ্রহণ করেছেন আর এই গ্রীষ্মে মুক্তির পরে প্রথম কয়েক দিনে ১০ লাখ দর্শক ছাড়িয়ে গেছে।

মোরিগুরু বিশেষ ভাবে প্রশংসা করেছেন যে বিভিন্ন জিনিষের সংমিশ্রণে এই চলচ্চিত্র যে পারিবারিক মূল্যবোধ তুলে ধরেছে সেটাকে।

テーマ的には人と人のつながりは大切だよねという普遍的なものみたいですけど、大人数の親戚とか、今の時代ならではのネット上の仮想空間とかそういう要素の融合が独特の雰囲気を生み出していたと思います。
正直言うと、最初は「あれ…なんかイマイチかも?」と思って観てたんですが
徐々に勢いのある展開が続き、一気に盛り上がっていったので不安は吹き飛びました。
鑑賞後に心地よい気分で映画館を後にできる作品だったと思います。
大家族って騒がしそうだけどいいなあって思いました^^

এই বাণী সারা বিশ্বের জন্য প্রযোজ্য যে ‘মানুষের মধ্যকার বন্ধন দরকারী’ কিন্তু কিছু জিনিষের মিশ্রণ যেমন বড় একটা পরিবার বা কাল্পনিক ‘ভার্চুয়াল’ বিশ্ব বিশেষ একটা জাল তৈরি করেছে।

সত্যি বলতে, প্রথমে আমি ভেবেছি ‘এই ছবি হালকা ধরনের হবে’ কিন্তু গল্প যখন এগুতে লাগল, হঠাৎ করে সব ঠিক হয়ে গেল আর আর মধ্যকার অনিশ্চয়তা দূর হয়ে গেল।

চলচ্চিত্র যখন শেষ হল, আমার ভিতরে একটি অনুভূতি কাজ করছিল আর আমার মনে হল সিনেমাতে দেখা সার্থক হয়েছে।

আমি এটাও ভাবছিলাম বড় একটা পরিবার থাকা কত ভালো হবে যদিও হৈচৈ বেশী হবে!

টাকাও এই অ্যানাইম চলচ্চিত্রের প্রশংসা করেছেন আর তার জীবনের সাথে মেলে এমন সব জিনিষ বর্ণনা করেছেন:

観ていて、僕自身といろいろと共通点もあって、思いのほか感情移入してしまいました。
例えば、こんな共通点が。
●僕の出身が長野県(サマーウォーズの舞台は上田、僕は伊那出身)
●毎年夏休みになると、長野の僕の実家に、東京から従兄弟たちが泊まりに来て、
 みんなで大騒ぎして遊んでいた
●高山家は女系家族
●僕の祖母が春に亡くなった
●サマーウォーズの栄おばあさんの誕生日(8月1日)が、僕の家族と同じ

এটা দেখতে দেখতে আমার জীবনের সাথে অনেক মিল পেলাম আর আমি খুব সম্পৃক্ত হয়ে পড়েছিলাম, মানসিক ভাবে, যৌক্তিক ভাবে না।

এগুলো মিলে যাওয়া বিষয়গুলো:

  • আমিও নাগানো প্রিফেক্টর থেকে ( সামার ওয়ার ইউদাতে অবস্থিত, আর ইনা থেকে)
  • আমার নাগানোর বাড়িতে প্রত্যেক গ্রীষ্মে টোকিও থেকে আমার কাজিনরা আসেন। তারা থাকে আর একসাথে আমরা অনেক মজা করি।
  • আমার পরিবার মহিলা কূলের
  • আমার দাদি এই বসন্তে মারা গেছেন।
  • সাকের (সামার ওয়ার চলচ্চিত্রের দাদী চরিত্র) জন্মদিনে আমাদের পরিবারেও আমরা জন্মদিন পালন করি আগস্টের ১ তারিখে।

তবে এই চলচ্চিত্র কিছু সমালোচনার মুখোমুখি হয়েছে। ‘ কিশোর পৃথিবী বাঁচাচ্ছে’ দৃশ্য, বিশেষ করে, কাউকে কাউকে এই চলচ্চিত্রটাকে মানুষের হৃদয়ে স্থান নেয়ার জন্য খুব বেশী হালকা মনে করেছেন।

কেজেড লগহাউসে ব্লগার এইসব আবেগ পূর্ণ দৃশ্যে অসন্তুষ্ট হয়েছেন।

感動シーンが満載でとても心にグッとくるものがありました。
ありましたけど・・・何か足りないような・・。
例えて言うなら「涙は出るんだけど、鼻の奥からツーンとくる感じじゃない」って雰囲気。

বেশ কিছু হৃদয় বিদারক দৃশ্য আছে আর কিছু হৃদয় ছুঁইয়ে যায়। এগুলো থাকা সত্ত্বেও… আমার মনে হচ্ছে কিছু একটা নেই…। উদাহরণ স্বরুপ: এটা এমন অনুভূতি যে ‘আমার চোখে পানি আসছে কিছু আমি আসল শোক অনুভব করছি না।‘
সামার ওয়ার চলচ্চিত্রের কাহিনী প্রথমে ছাড়া হয়েছিল মাঙ্গা হিসেবে মানুষের প্রতিক্রিয়া পরীক্ষা করার জন্য আর এর লিখিত সংস্করণের মান ঠিক করেছেন কাজাহোসি

< 対象>
中高生以上
< 五段階評価>
・面白さ   ★★★☆
・読み易さ ★★★★
・文章    ★★★
・補完    ★★★☆
・総合    ★★★☆
部分的に違うところがちょくちょくあり、ラストに至っては全く別物でした。
結論を先に言えば、映画には到底敵わない。

লক্ষ্য ছিল:

সেকেন্ডারী আর হাই স্কুলের ছাত্র বা ততোর্ধ।

৫ পয়েন্টে মান:

মজা

পড়ার যোগ্যতা

স্টাইল

অন্যান্য

সাধারণ

কিছু অংশে বইটা আলাদা আর শেষটা একেবারেই আলাদা। উপসংহারে এই চলচ্চিত্রের কোন শত্রু নেই!

আলোচনা শুরু করুন

লেখকেরা, অনুগ্রহ করে লগ ইন »

নীতিমালা

  • অনুগ্রহ করে অপরের মন্তব্যকে শ্রদ্ধা করুন. যেসব মন্তব্যে গালাগালি, ঘৃণা, অবিবেচনা প্রসূত ব্যক্তিগত আক্রমণ থাকবে সেগুলো প্রকাশের অনুমতি দেয়া হবে না .