বন্ধ করুন

আমাদের স্বেচ্ছাসেবক সম্প্রদায় কাজ করে যাচ্ছে বিশ্বের কোনা থেকে না বলা গল্পগুলো আপনাদের কাছে তুলে ধরতে। তবে আপনাদের সাহায্য ছাড়া আমরা তা পারব না। আমাদের সম্পাদনা, প্রযুক্তি এবং প্রচারণা দলগুলোকে সুষ্ঠুভাবে চলতে সহায়তার জন্যে আপনারা আপনাদের দানের অংশ থেকে কিছু গ্লোবাল ভয়েসেসকে দিতে পারেন।

সাহায্য করুন

উপরের ভাষাগুলো দেখছেন? আমরা গ্লোবাল ভয়েসেস এর গল্পগুলো অনুবাদ করেছি অনেক ভাষায় যাতে বিশ্বজুড়ে মানুষ এগুলো সহজে পড়তে পারে।

আরও জানুন লিঙ্গুয়া অনুবাদ  »

ডিজিটাল একটিভিস্টরা, গ্রানি.রু এবং অন্যান্য বন্ধ করে রাখা সংবাদ ওয়েবসাইটে পুনরায় প্রবেশের সুযোগ করে দিয়েছে

Image by  Iain Cuthbertson on Flickr. CC BY-SA 2.0

ছবি ফ্লিকারের ইয়ান ক্যাথবার্টসনের। সিসি বাই-এসএ ২.০।

বিশ্বজুড়ে ব্লক বা বন্ধ করে রাখা নয়টি ওয়েবসাইট আনব্লক করে বা খুলে দিয়ে ডিজিটাল জগতে প্রবেশের অধিকার রক্ষায় নিয়োজিত ব্যক্তিরা বিশ্ব সাইবার সেন্সরবিহীন দিবস উদযাপন করেছে, খুলে দেওয়া উক্ত সাইটগুলোর মধ্যে রাশিয়ার স্বাধীন সংবাদপত্র গ্রানি.রু, এবং কাজাখস্তান, উজবেকিস্তান ও তুর্কমেনিস্তানে বন্ধ করে রাখা ফরগানাননিউজ.কম।

সমান্তরাল স্বাধীনতা কার্যক্রম (অপারেশন কোলাটেরাল ফ্রিডম) নামক এক কর্মসূচির অংশ হিসেবে একটিভিস্টরা মিরিরিং নামের এক প্রযুক্তিগত প্রক্রিয়া ব্যবহার করে সেন্সর কৃত উক্ত নয়টি সাইটের মতে দেখতে হুবহু একই রকম সাইট তৈরী করে এবং সেগুলোর কপি বা অনুলিপি আমাজন, মাইক্রোসফট এবং গুগলের মত বিশালকায় ইন্টারনেট কোম্পানির সাইটে রেখে দেয়, যাতে সেগুলো সেই সমস্ত ১১টি দেশে ইন্টারনেটে সহজলভ্য হয়, যে দেশে বর্তমানে এই সকল সাইটগুলোতে প্রবেশাধিকার বন্ধ করে রাখা হয়েছে।

এই ১১টি রাষ্ট্র, যারা “ ইন্টারনেটের শত্রু” হিসেবে চিহ্নিত, তারা এই সকল মিরর সাইটে যাতে কেউ প্রবেশ করতে না পারে তার জন্য আমাজান, মাইক্রোসফট এবং গুগলের মত বড় বড় ইন্টারনেট কোম্পানির সার্ভার ব্লক করে রেখেছ, যার ফলে এই সকল দেশের নাগরিকেরা হাজার হাজার ইন্টারনেট কোম্পানির সেবা থেকে বঞ্চিত হচ্ছে। এর জন্য তাদের অনেক বেশী অর্থনৈতিক এবং রাজনৈতিক মূল্য প্রদান করতে হচ্ছে। এ কারণে সাইবার একটিভস্টরা নয়টি সাইটকে সেন্সরশিপের থাবা থেকে রক্ষা করতে সচেষ্ট

২০১৪ সালের মার্চে রাশিয়ায় গ্রানি.রু সাইটে প্রবেশের সুযোগ বন্ধ করে দেওয়া হয়, এখন (https://gr1.global.ssl.fastly.net/)। এই ওয়েব অ্যাড্রেসের মাধ্যমে এই সাইটে মাধ্যমে প্রবেশ করা যাবে এবং এটি (https://fg1.global.ssl.fastly.net/) হচ্ছে ফারগানান নামক সংবাদ ওয়েবসাইটে ঢোকার লিঙ্ক। সমান্তরাল স্বাধীনতা কর্মসূচি (অপারেশন কোলাটেরাল ফ্রিডম)-এর ওয়েব পাতায় এই ধরনের বন্ধ হয়ে থাকা ওয়েবসাইটের এক পূর্ণ তালিকা রয়েছে।

একদল চীনা একটিভিস্টের সংস্থা গ্রেট ফায়ার-এর সাথে মিলে রিপোটার্স উইদাউট বর্ডার্স সমান্তরাল স্বাধীনতা কর্মসূচি নামক এই কার্যক্রম পরিচালনা করছে, যা ইতোমধ্যে দেশটিতে বন্ধ করে রাখা ডয়েচভেলে, গুগল এবং চায়না ডিজিটাল টাইমস-এর জন্য আনব্লক মিরর সাইট তৈরী করেছে। সরকার কর্তৃক বন্ধ করে রাখা ওয়েবসাইটে যাতে এই নিষেধাজ্ঞা পাশ কাটিয়ে প্রবেশ করা যেতে পারে তার জন্য বিভিন্ন উপাদান এবং প্রযুক্তি এখানে বিনে পয়সায় সহজে পাওয়া যাচ্ছে।

রিপোটার্স উইদাইট বর্ডার্স বলছে যে মিরিরিং নামক কার্যক্রম পরিচালনার জন্য তারা ব্যান্ডউইথ কিনতে যাচ্ছে, সাথে তারা ইন্টারনেট ব্যবহারকারীদের প্রতি আহ্বান জানাচ্ছে যেন প্রয়োজনীয় ব্যান্ড উইথ ফুরিয়ে গেলে বাড়তি ব্যান্ডউইথ কেনার অর্থ প্রদানে তারা সাহায্য করে, যাতে মিরর সাইটগুলো দীর্ঘ সময় ইন্টারনেটে সহজলভ্য হয়ে থাকে।

আলোচনা শুরু করুন

লেখকেরা, অনুগ্রহ করে লগ ইন »

নীতিমালা

  • অনুগ্রহ করে অপরের মন্তব্যকে শ্রদ্ধা করুন. যেসব মন্তব্যে গালাগালি, ঘৃণা, অবিবেচনা প্রসূত ব্যক্তিগত আক্রমণ থাকবে সেগুলো প্রকাশের অনুমতি দেয়া হবে না .