বন্ধ করুন

আমাদের স্বেচ্ছাসেবক সম্প্রদায় কাজ করে যাচ্ছে বিশ্বের কোনা থেকে না বলা গল্পগুলো আপনাদের কাছে তুলে ধরতে। তবে আপনাদের সাহায্য ছাড়া আমরা তা পারব না। আমাদের সম্পাদনা, প্রযুক্তি এবং প্রচারণা দলগুলোকে সুষ্ঠুভাবে চলতে সহায়তার জন্যে আপনারা আপনাদের দানের অংশ থেকে কিছু গ্লোবাল ভয়েসেসকে দিতে পারেন।

সাহায্য করুন

উপরের ভাষাগুলো দেখছেন? আমরা গ্লোবাল ভয়েসেস এর গল্পগুলো অনুবাদ করেছি অনেক ভাষায় যাতে বিশ্বজুড়ে মানুষ এগুলো সহজে পড়তে পারে।

আরও জানুন লিঙ্গুয়া অনুবাদ  »

মাদাগাস্কার থেকে সরাসরি টুইটারের মাধ্যমে: আনতানানারিভো জ্বলছে, গুজব উঠেছে যে রাষ্ট্রপতি পালিয়েছে

২৬শে জানুয়ারী ২০০৯, সন্ধ্যা ১৯:০৯ এর খবর: যদিও জোর গুজব রয়েছে যে রাষ্ট্রপতি রাভালোমানানা দেশ ছেড়ে চলে গেছেন, অন্যরা বলছে যে এটি ভিত্তিহীন। ড্যানিয়েল অস্টিন টুইটারে জানাচ্ছেন: “বিশ্বস্ত সূত্রের সব খবর মাফিক রাষ্ট্রপতি রাভালোমানানা মাদাগাস্কার ছেড়ে চলে গেছেন এই সংবাদ সঠিক নয়।” থিয়েরি রাতসি জেহেনা টুইটার করছেন যে সরকার জরুরী অবস্থা জারি করবে। প্রচার মাধ্যমগুলো সম্প্রচার বন্ধ করে দিয়েছে এবং অনেক কিছুই বোঝা যাচ্ছে না। গ্লোবাল ভয়েসেস আরও সাম্প্রতিক তথ্য পেলেই জানাবে।

দেশজুড়ে ব্যাপক প্রতিবাদের পর জানুয়ারীর ২৫ তারিখ রাত থেকে মাদাগাস্কারের রাজধানী আনতানানারিভোতে বেশ কিছু নাটকীয় ঘটনা ঘটে গেছে।

২৬শে জানুয়ারী ২০০৯, বিকেল ১৫:২৩ এর খবর: প্রচার মাধ্যমে অসমর্থিত, কিন্তু লেখকের পরিবার কর্তৃক সমর্থিত সংবাদ অনুযায়ী মনে হচ্ছে রাষ্ট্রপতি রাভালোমানানা মাদাগাস্কার থেকে পালিয়ে গেছেন। প্রাথমিক সংবাদে জানা গেছে যে বেশ কিছু রেডিও এবং টিভি স্টেশন সম্প্রচার বন্ধ করে দিয়েছে। একটি ৫ তারা হোটেল সহ বেশ কিছু বাড়ী ও কয়েকটি শপিং মলে ইটপাটকেল ছোড়া হয়েছে ও আগুণ ধরিয়ে দেয়া হয়েছে। দুটি মৃত্যুর খবর পাওয়া গেছে (অসমর্থিত সূত্রে) এবং সর্বশেষ খবর অনুযায়ী বিস্তীর্ণ এলাকায় আগুণ ধরে গেছে। টেক্স্ট মেসেজ ও মোবাইল ওয়েবের মাধ্যমে মাদাগাস্কারবাসীর টুইটার বার্তাগুলো সাম্প্রতিক গন্ডগোলের খবর নিয়মিত জানিয়েছে। মাদাগাস্কারে ইন্টারনেট গণযোগাযোগের একটি মাধ্যম হতে পারে এটি অনেকেই জানে না তাই মনে হয় এগুলো এখনও বাধাহীনভাবে চলছে। নিন্মে এই ঘটনা নিয়ে মাইক্রোব্লগারদের দ্বারা প্রকাশিত খবরগুলোর অনুবাদ দেয়া হলো:

জানুয়ারী ২৫, ২০০৯:

- থিয়েরি বেলা তিনটের সময় জানায় যে সন্ধ্যার দিকে ভিভা রেডিও দখল হতে পারে।

- বেলা ৪টার সময় আর১লিটা জানায় যে শহরতলীতে প্রতিবাদ চলছে এবং সে ধারণা করেছে যে কিছু প্রতিবাদকারীকে পয়সা দিয়ে আনা হয়েছে।

- সন্ধ্যা ৬টার সময় তান্দ্রিয়ামিরাদো পোস্ট করেছে যে ভিভা রেডিও জনগণকে আহ্বান করছে যে তারা যেন সৈন্যদের রেডিও দখল করা থেকে বিরত রাখে।

- রাত আটটায় বারীযাওনা রিপোর্ট করে যে ৬৭ হ কোয়ার্টারে ইটপাটকেল ছোঁড়াছুড়ি আর লুটপাট হয়েছে।

- রাত দশটায় বেশ কিছু পোস্ট জানায় যে বিদেশী ভাড়াটে সৈন্যরা ভিভা রেডিও দখল করেছে এবং এর প্রচার বন্ধ হয়ে গেছে।

জানুয়ারী ২৬, ২০০৯:

- ভোর পাঁচটার সময় জানা যায় জাতীয় রেডিও (আরএনএম) এবং টেলিভিশন (টিভিএম) এর প্রচার বন্ধ রয়েছে।

- সকাল সাতটার সময় মার্গো শপিং সেন্টারে লুটপাট হয়েছে। সৈন্যরা বাধা দিয়েছে।

- সকাল দশটার সময় রাজনীতিবিদদের বাড়ীতে আগুণ দেয়া শুরু হয়

- চার ঘন্টা আগে: দুজন বেসামরিক লোকের মৃত্যুর খবর পাওয়া গেছে এবং সরকার সমর্থিত রেডিওগুলির প্রচার বন্ধ হয়ে গেছে।

- তিন ঘন্টা আগে: রেহিতা জানাচ্ছে যে সৈন্যরা আরএনএস এর ভবন পরিত্যাগ করছে যা তাদের রক্ষা করার কথা ছিল।

২২ মিনিট আগে: পাপাজো৭৮৬ রিপোর্ট করছে যে দক্ষিণের শহরগুলোতে (আন্টসিরাবে ও ফিয়ানারাটসোয়া) শপিং সেন্টারে আগুণ দেয়া হয়েছে।

৮ মিনিট আগে: আমবোহিমিতসিম্বোনার পুরো এলাকায় বসতিগুলোতে আগুণ দেয়া হয়েছে।

৫ মিনিট আগে: ফিদি জানাচ্ছে যে রাষ্ট্রপতির প্লেন তৈরি পরিবার সহ তাকে দুরে নিয়ে যাবার জন্যে।

আলোচনা শুরু করুন

লেখকেরা, অনুগ্রহ করে লগ ইন »

নীতিমালা

  • অনুগ্রহ করে অপরের মন্তব্যকে শ্রদ্ধা করুন. যেসব মন্তব্যে গালাগালি, ঘৃণা, অবিবেচনা প্রসূত ব্যক্তিগত আক্রমণ থাকবে সেগুলো প্রকাশের অনুমতি দেয়া হবে না .