বন্ধ করুন

আমাদের স্বেচ্ছাসেবক সম্প্রদায় কাজ করে যাচ্ছে বিশ্বের কোনা থেকে না বলা গল্পগুলো আপনাদের কাছে তুলে ধরতে। তবে আপনাদের সাহায্য ছাড়া আমরা তা পারব না। আমাদের সম্পাদনা, প্রযুক্তি এবং প্রচারণা দলগুলোকে সুষ্ঠুভাবে চলতে সহায়তার জন্যে আপনারা আপনাদের দানের অংশ থেকে কিছু গ্লোবাল ভয়েসেসকে দিতে পারেন।

সাহায্য করুন

· আগস্ট, 2012

গল্পগুলো আরও জানুন যুদ্ধ এবং সংঘর্ষ মাস আগস্ট, 2012

সিরিয়াঃ বিপ্লবের পথে আপনি এক কাঁটা

সিরিযাতে যারা “বিপ্লবের পথের কাঁটা” তাদের জন্য সাতটি নির্দেশমূলক চিহ্ন রয়েছে। টুইটারে, সিরিয়ান @এনএমসিরিয়া ঐ চিহ্নগুলোর তালিকা করেছেন।

সিরিয়া : #আমারসিরিয়া – তে রাস্তাগুলো হবে স্বাধীনতায় পরিপূর্ণ

সিরীয় নেট নাগরিকরা তাঁদের দেশের জন্য এমন এক নতুন ভোরের স্বপ্ন দেখছেন যেখানে জনগণ স্বাধীনভাবে নিশ্বাস নিতে পারবে, সমতার সাথে বসবাস করতে পারবে এবং যেখানে গোষ্ঠীতন্ত্র অতীত বিষয়ে পরিণত হবে। টুইটারের #আমারসিরিয়া হ্যাসট্যাগে ভবিষ্যৎ সম্পর্কে তাঁরা তাঁদের দৃষ্টিভঙ্গি তুলে ধরেন।

পোস্টটি পড়ুন

আরব বিশ্বঃ সিরিয়া, ফিলিস্তিন এবং বাহরাইন-এর ঈদের দৃশ্য

ঈদ-উল ফিতর মুসলমানদের জন্য রোজার মাস-রমজান শেষ হবার বার্তা ঘোষণা করে, আর এর তিন দিন সারা আরব জাহানে উদযাপন করা হয়, অথবা ঐতিহ্য অনুসারে তা উদযাপিত হতে থাকে। তবে, এবারে সিরিয়া তার নাগরিকদের মৃতদেহ দাফন করা এবং বাহরাইনে পুলিশের গুলিতে এক ১৬ বছরের কিশোরকে কবরে শোয়ানোর কারণে দেশ দুটি নিরবে ঈদ উদযাপন করে।

পোস্টটি পড়ুন

ইরান, ইজরায়েলঃ “ তোমাদের যুদ্ধে মারা যেতে প্রস্তুত নই”

মূল ধারার সংবাদ মাধ্যমের শিরোনাম দেখলে মনে হবে যে ইরান এবং ইজরায়েল এক যুদ্ধের দ্বারপ্রান্তে এসে দাঁড়িয়েছে। ইজরায়েল-এর রাজনীতিবিদেরা ক্রমাগত ইরানের পরমাণু স্থাপনার উপর হামলার হুমকি প্রদান করে আসছে, অন্যদিকে ইরানের সরাকর তাদের সেই পূরোনো স্লোগান আউড়ে যাচ্ছে “ইজরায়েলকে পৃথিবীর মানচিত্র থেকে নিশ্চিহ্ন করে দেওয়া হবে”। কিন্তু যখন উভয় দিক থেকে যুদ্ধের হাঁকডাক শোনা যাচ্ছে, তখন একই সাথে উভয় স্থান থেকে উচ্চারিত হচ্ছে শান্তির বারতা।

পোস্টটি পড়ুন

ভিডিও : মিশর, কঙ্গো, উগান্ডা এবং কলম্বিয়ার মধ্যে যে বিষয়ে মিল রয়েছে

সংঘর্ষের সূত্রপাতের মাঝে ন্যায়বিচার অনুসন্ধান হচ্ছে এমন একটি ঘটনা, যা মিশর, ডেমোক্র্যাটিক রিপাবলিক অফ কঙ্গো, উগান্ডা এবং কলম্বিয়ার মাঝে এক সাধারণ বিষয়ে পরিণত হয়েছে। দি কেস ফর জাস্টিস হচ্ছে একটি সিরিজ বা ধারাবাহিক ভিডিও যা কিনা প্রান্তিক ন্যায়বিচার নামে পরিচিত বিষয় নিয়ে বিতর্ক উপস্থাপন করেছে, এটি কয়েকটি পদ্ধতির সমন্বয় যা কিনা ব্যাপকভাবে মানবাধিকার লঙ্ঘনের ঘটনায় জবাবদিহিতাকে উপস্থাপন করার উপায় তৈরি করে দেয়।