বন্ধ করুন

আমাদের স্বেচ্ছাসেবক সম্প্রদায় কাজ করে যাচ্ছে বিশ্বের কোনা থেকে না বলা গল্পগুলো আপনাদের কাছে তুলে ধরতে। তবে আপনাদের সাহায্য ছাড়া আমরা তা পারব না। আমাদের সম্পাদনা, প্রযুক্তি এবং প্রচারণা দলগুলোকে সুষ্ঠুভাবে চলতে সহায়তার জন্যে আপনারা আপনাদের দানের অংশ থেকে কিছু গ্লোবাল ভয়েসেসকে দিতে পারেন।

সাহায্য করুন

· সেপ্টেম্বর, 2010

গল্পগুলো আরও জানুন প্রযুক্তি মাস সেপ্টেম্বর, 2010

পোস্টটি পড়ুন

সার্বিয়া: মন্ত্রী ডিজিটাল সরকারকে অনলাইন থেকে বাস্তব জগৎে এনেছেন

  27 সেপ্টেম্বর 2010

সার্বিয়ার অনলাইন সমাজ আজ (২২শে সেপ্টেম্বর) বিকেলে ব্যস্ত ছিল স্তুতি মূলক বক্তব্যে বেলগ্রেডে একটা ধারা সৃষ্টিকারী ঘটনার পর। টেলিযোগাযোগ মন্ত্রণালয় আর তথ্য সোসাইটির অফিসের নতুন ঠিকানা 'পারিস্কা ৭, বেলগ্রেড' এ আজ ছিল অনলাইন সমাজের ছোট্ট, অলস একটি জমায়েত যার নাম দেয়া হয়েছে 'টুইট আপ ইন পারিস্কা ৭' আর এটি সংগঠিত হয়েছে বিশেষত: টুইটার আর ফেসবুকের মাধ্যমে।

পোস্টটি পড়ুন

আমি ঘুষ প্রদান করেছিলাম: ভারতের একটি চমকপ্রদ উদ্যোগ

  24 সেপ্টেম্বর 2010

“ঘুষ দিয়েছিলাম? ঘুষ দেইনি? ক্ষমতাহীন? দুর্নীতির শিকার? রাগান্বিত?" আমি ঘুষ দিয়েছিলাম ভারতের নাগরিকদের উৎসাহিত করছে ঘুষ এবং দুর্নীতি সম্পর্কে তাদের গল্পগুলো জানাতে এবং এইসব তথ্যের মাধ্যমে দেশের সব থেকে দুর্নীতিযুক্ত বিভাগ এবং সেবা সমূহকে খুঁজে বের করার চেষ্টা করা হচ্ছে।

পোস্টটি পড়ুন

আজারবাইজান: নির্বাচন আসছে এবং সামাজিক নেটওয়ার্কিং চলছে পুরোদমে

  18 সেপ্টেম্বর 2010

আগামী ৭ই নভেস্বর আজারবাইজানে আবারও নির্বাচন অনুষ্ঠিত হতে যাচ্ছে এবং এবারে সংসদ সদস্য নির্বাচনে ভোট নেয়া হবে। তবে ভোট শুরুর ২৩ দিন আগে নির্বাচন অভিযান শুরু হবে না সরকারীভাবে। তবে ফেসবুকে ইতিমধ্যে কিছু নির্বাচনী প্রচারণা শুরু হয়ে গেছে।

উগান্ডা: অনলাইন মিডিয়া কি উন্নয়নে সাহায্য করতে পারে?

  17 সেপ্টেম্বর 2010

উগান্ডার কাটিন প্রকল্পের তিন বছর হতে যাচ্ছে এবং কাটিন ক্রনিকলস ব্লগে এর কাভারেজ শেষ হতে যাচ্ছে। উন্নয়নের সাথে অনলাইন মিডিয়া যুক্ত করা এই প্রকল্পটি সম্পর্কে পাঠকদের কাছ থেকে মন্তব্য ও প্রতিক্রিয়া জানতে চাওয়া হয়েছে।

পোস্টটি পড়ুন

ভারত: ই-গভার্নেন্স উদ্যোগগুলো কি স্বচ্ছতা আর জবাবদিহিতা এনে দিচ্ছে?

  17 সেপ্টেম্বর 2010

ভারতে অনেক সরকারী এজেন্সি আর সেবাদানকারী সংস্থা এখন সামাজিক মিডিয়া এবং অন্যান্য তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি প্লাটফর্ম তৈরি করছে বিভিন্ন সেবা দেবার জন্যে যাতে নাগরিকরা আরও উদ্বুদ্ধ হয় এবং সরকারের স্বচ্ছতা আর জবাবদিহিতা সম্পর্কে আশ্বস্ত হয়। এখন প্রশ্ন হচ্ছে তারা কতটুকু সফল এবং জনগণের জীবনে তারা কি প্রভাব ফেলছে?