বন্ধ করুন

আমাদের স্বেচ্ছাসেবক সম্প্রদায় কাজ করে যাচ্ছে বিশ্বের কোনা থেকে না বলা গল্পগুলো আপনাদের কাছে তুলে ধরতে। তবে আপনাদের সাহায্য ছাড়া আমরা তা পারব না। আমাদের সম্পাদনা, প্রযুক্তি এবং প্রচারণা দলগুলোকে সুষ্ঠুভাবে চলতে সহায়তার জন্যে আপনারা আপনাদের দানের অংশ থেকে কিছু গ্লোবাল ভয়েসেসকে দিতে পারেন।

সাহায্য করুন

· ফেব্রুয়ারি, 2011

গল্পগুলো আরও জানুন ডিজিটাল অ্যাক্টিভিজম মাস ফেব্রুয়ারি, 2011

পোস্টটি পড়ুন

বাহরাইন: শোক দিবস পালিত

  28 ফেব্রুয়ারি 2011

শুক্রবার (ফেব্রুয়ারী ২৫) কে ঘোষনা করা হয় সেইসব শহীদদের জন্য ‘শোক দিবস‘ হিসেবে যারা ফেব্রুয়ারী ১৪, ২০১১ তারিখে বাহরাইনের বিক্ষোভ দিবস শুরুর পর থেকে নিহত হয়েছেন।

পোস্টটি পড়ুন

ইরান: আরো বিক্ষোভ, আরেকটি মৃত্যু (ভিডিও)

  21 ফেব্রুয়ারি 2011

বড় বড় শহরের রাস্তাগুলোতে বিপুল পরিমাণ নিরাপত্তা কর্মীর উপস্থিতি সত্ত্বেও প্রত্যক্ষদর্শীরা জানাচ্ছে যে রোববার, ২০ ফ্রেব্রুয়ারি তারিখে দুপুরের আগে থেকে প্রতিবাদকারীরা রাস্তায় জড়ো হয় এবং তেহরান, ইস্পাহান, শিরাজ, মারিভান এবং ইরানের অন্যান্য অনেক শহরে ক্রমশ সংখ্যায় ভারি হতে থাকে।

পোস্টটি পড়ুন

ইরান: সে আসলে কোন পক্ষের শহীদ?

  18 ফেব্রুয়ারি 2011

ইরানের সরকারপন্থী এবং বিরোধী শক্তি উভয়ে দাবি করছে যে সালেহ জালেহ তাদের পক্ষ হয়ে কাজ করার সময় শহীদ হয়েছে। ১৪ ফ্রেব্রুয়ারি তারিখে যখন ইরানের সরকার বিরোধীরা তেহরান এবং অন্যান্য শহরে বিক্ষোভ প্রদর্শন করছিল, সে সময় এক বন্দুকের গুলিতে সে নিহত হয়।

পোস্টটি পড়ুন

মিশর: বিজয়ের মূহূর্তে

  14 ফেব্রুয়ারি 2011

যখন হোসনি মুবারক মিশরের রাষ্ট্রপতি পদ থেকে পদত্যাগ করে, তখন নাগরিকদের ধারণ করা ভিডিও, আমাদের হঠাৎ করে আসা সেই ঐতিহাসিক মুহূর্ত প্রদর্শন করছে এবং সে সময় তাহরির স্কোয়ারের জনতা সে বিষয়ে কি ভাবে প্রতিক্রিয়া প্রদর্শন করতে শুরু করে তা তুলে ধরে।

পোস্টটি পড়ুন

ইরান: মিশরের মুক্তি অর্জনে, আশা, আনন্দ, ঈর্ষা

  14 ফেব্রুয়ারি 2011

ইরানের ব্লগাররা আজ মিশরের রাষ্ট্রপতি হোসনি মুবারকের বিদায়ের ঘটনাটিকে একই সাথে আনন্দ এবং ঈর্ষার সাথে দেখেছে। এটা এক অবিশ্বাস্য যোগাযোগ যে, ইসলামিক বিপ্লবের ৩২ তম বার্ষিকীতে মুবারকের পতন ঘটল। ১৯৭৯ সালের এই বিপ্লবে ইরানের শাসক শাহের পতন হয়েছিল।

মিশর: ওয়ায়েল ঘোনিমকে ছেড়ে দেওয়া হয়েছে?

  11 ফেব্রুয়ারি 2011

যখন মিশরীয় নাগরিকরা ক্রমাগত মুবারকের শাসনের অপসারণ দাবী করে আসছিল, সেই সময়ের প্রেক্ষাপটে মিশরীয় সাইবার একটিভিস্ট এবং গুগলের কর্মী ওয়ায়েল ঘোনিমকে আজ ছেড়ে দেওয়া হয়েছে। তাহরির স্কোয়ারের প্রতিবাদকারীরা তাদের মুখপাত্র হিসেবে ঘোনিমের নাম ঘোষণা করে, তারা সরকারের উপর চাপ প্রয়োগ করেছিল, যেন সরকার তাকে ছেড়ে দেয়।

পোস্টটি পড়ুন

ইরান: মিশর এবং তিউনিশিয়ার নামে প্রতিবাদ করা

  10 ফেব্রুয়ারি 2011

ইরানের বিরোধী নেতা মীর হুসেন মৌসাভি এবং মেহদি কারোবি মিশর এবং তিউনিশিয়ার বিপ্লবের সমর্থনে ১৪ ফেব্রুয়ারি তারিখে (২৫ বাহমান) এক মিছিল করার অনুমতি চেয়েছে। তাদের ওয়েবসাইট জানাচ্ছে: এই সংবাদটি বেশ কয়েকজন সাইবার একটিভিস্টকে উদ্দীপ্ত করেছে, যারা ইন্টারনেটে তাদের “সবুজের ছোঁয়া” যুক্ত করেছে।

জীবনের সাথে লড়তে থাকা এক চিত্রনাট্যকারের মৃত্যুতে দক্ষিণ কোরিয় নেট ব্যবহারকারীরা শোক প্রকাশ করছে

  9 ফেব্রুয়ারি 2011

দক্ষিণ কোরিয়ার নেট ব্যবহারকারীরা চোই গো-ইয়ুনের মৃত্যুকে স্মরণ করছে, যিনি ছিলেন চলচ্চিত্রের এক চিত্রনাট্যকার। দারিদ্র এবং ক্ষুধার সাথে লড়াই করে, অসুখে ভুগে ভুগে এই ভদ্রমহিলা মারা যান। তার বাৎসরিক আয় ছিল খুব সামান্য, বছরে ৬০০ মার্কিন ডলার। চলচ্চিত্র শিল্পী সমিতি (ফেডারেশন অফ মুভি ওর্য়াকার্স ইউনিয়ন) তার মৃত্যুকে [কোরিয় ভাষায়] “সামাজিক...

চীন: মাইক্রোব্লগের মাধ্যমে শিশু অপহরণের বিরুদ্ধে লড়াই করা

  9 ফেব্রুয়ারি 2011

চায়না গিকস-এর সি কুস্টার, মাইক্রো ব্লগের একটি প্রচেষ্টার কথা উল্লেখ করে ব্লগ করছেন। এর মাধ্যমে রাস্তায় ভিক্ষা করা শিশুদের ছবি তুলে তার মাধ্যমে হারিয়ে যাওয়া শিশুদের খুঁজে বের করার প্রচেষ্টায় সাহায্য করার চেষ্টা করা হচ্ছে। এছাড়াও ব্লগার সাউদার্ন মেট্রোপলিসের নেওয়া ইয়ু জিয়ানরঙ-এর সাক্ষাৎকারের অনুবাদ করেছে। এই নাগরিক উদ্যোগ তারই মস্তিষ্কপ্রসূত।

পোস্টটি পড়ুন

আরব বিশ্ব: তিউনিশিয়ার পরে কার পালা?

  9 ফেব্রুয়ারি 2011

তিউনিশিয়ার যে ঘটনা প্রবাহ প্রাক্তন রাষ্ট্রপতি জিনে আবেদিন বেন আলিকে দেশ ছেড়ে পালিয়ে যেতে বাধ্য করেছে, তার প্রেক্ষাপটে আরব বিশ্বের নেট নাগরিকরা জিজ্ঞেস করছে: “এরপর কি আমাদের পালা?“