বন্ধ করুন

আমাদের স্বেচ্ছাসেবক সম্প্রদায় কাজ করে যাচ্ছে বিশ্বের কোনা থেকে না বলা গল্পগুলো আপনাদের কাছে তুলে ধরতে। তবে আপনাদের সাহায্য ছাড়া আমরা তা পারব না। আমাদের সম্পাদনা, প্রযুক্তি এবং প্রচারণা দলগুলোকে সুষ্ঠুভাবে চলতে সহায়তার জন্যে আপনারা আপনাদের দানের অংশ থেকে কিছু গ্লোবাল ভয়েসেসকে দিতে পারেন।

সাহায্য করুন

তুরস্কে এক ছাত্রের মৃত্যুতে ধর্মীয় সম্প্রদায় পরিচালিত আবাসন নিয়ে বিতর্ক

বিষয়বস্তু বিজ্ঞপ্তি: এই নিবন্ধে আত্মহত্যা, হত্যা এবং মানসিক স্বাস্থ্য সমস্যার উল্লেখ রয়েছে।

আনাস কারা, ১৯, এলাজুগ ফোরাত বিশ্ববিদ্যালয়ের চিকিৎসা অনুষদের দ্বিতীয় বর্ষের ছাত্র ছিলেন। ১১ জানুয়ারি তারিখে কারা আত্মহত্যা করেন। এই ১৯-বছর-বয়সীর রেখে যাওয়া একটি ভিডিও রেকর্ডিংয়ে তার পরিবার থেকে তাকে বাস করতে পাঠানো ছাত্রাবাসটিতে অসহনীয় বাধ্যতামূলক মগজ ধোলাই এবং তার ভবিষ্যতের আশাহীনতা ব্যাখ্যা করেছেন। ভিডিওটিতে কারা বলেছেন, “আমি নিজেকে যে পরিস্থিতিতে পেয়েছি তাতে আমি সারাজীবনের জন্যে আমার সম্পূর্ণ আনন্দ এবং উদ্যম হারিয়ে ফেলেছি।”

তার ভিডিওটি সামাজিক গণমাধ্যমে ভাইরাল হয়ে দর্শকদের সাম্প্রতিক বছরগুলিতে ধর্মীয় সম্প্রদায় পরিচালিত ছাত্রাবাসগুলিতে আগেকার সহিংসতা, নির্যাতন এবং হত্যার বিভিন্ন ঘটনা মনে করিয়ে দিয়েছে।

২০২১ সালের ডিসেম্বরে একটি ধর্মীয় সম্প্রদায় পরিচালিত ডর্মে কর্মরত একজন বাবুর্চি একজন ১৮-বছর-বয়সী কম্পিউটার প্রকৌশলের ছাত্রের শিরচ্ছেদ করে। কারার মৃত্যুর পরপর বেসরকারি ধর্মীয় সম্পদায় পরিচালিত ছাত্রাবাসগুলি নিয়ে বিতর্কের উদ্ভব হলে সমালোচকরা ক্ষমতাসীন ন্যায়বিচার ও উন্নয়ন পার্টিকে এই ছাত্রাবাসগুলিকে সম্পূর্ণভাবে বন্ধ করে সেগুলিকে সরকারি ছাত্রাবাসে পরিণত করার আহ্বান জানিয়েছে। সরকারি আবাসনের তুলনায় সম্প্রদায়গুলির এসব বেসরকারি প্রতিষ্ঠানে ন্যূনতম সরকারি নিয়ন্ত্রণ বা তদারকিও নেই।

ধর্মীয় সম্প্রদায় পরিচালিত শিক্ষার্থী আবাসন

কারা ইসলামি নূর আন্দোলনের ভ্রাতৃত্ব (তরিকত) আবাসনে থাকতেন। দেশে “‘তরিকত’ নামে পরিচিত ধর্মীয় মতাবলম্বী এবং ‘সেমাত’ নামে পরিচিত ভ্রাতৃত্ব পরিচালিত” অসংখ্য ধর্মীয় আবাসন সম্প্রদায় রয়েছে। সাংবাদিক আম্বেরিন জামান আল-মনিটরের জন্যে তার প্রতিবেদনে ব্যাখ্যা করেছেন

গবেষক সালিম চেভিকের মতে, ক্ষমতাসীন ন্যায়বিচার ও উন্নয়ন পার্টি (একেপি) “লোভ ও শাস্তি নীতির ভিত্তিতে [এই সম্প্রদায়গুলির সাথে] একটি বিশেষ সম্পর্ক বজায় রাখে।” চেভিক জানান, ক্ষমতাসীন দলটি “নির্বাচনী সমর্থনের বিনিময়ে এসব ধর্মীয় সম্প্রদায়ের জন্যে রাষ্ট্রীয় সংস্থান প্রদান করে” মূলত এই নীতিটির আধিপত্য বজায় রাখে। তিনি আরো বলেন:

এই ধরনের সরকারি সহায়তার একটি সাধারণ দিক হল ধর্মীয় সংগঠন নির্মিত আনুষ্ঠানিক প্রতিষ্ঠানগুলির জন্যে জমি এবং সরাসরি আর্থিক সহায়তা প্রদান। এর মধ্যে স্কুল, বিশ্ববিদ্যালয়, ছাত্রাবাস, কুরআন স্কুল এবং গণমাধ্যম সংস্থাসহ ব্যাপক বিস্তৃত প্রতিষ্ঠান রয়েছে। দ্বিতীয় ধরনের সমর্থনের মধ্যে রয়েছে বিশেষভাবে কিছু কিছু ধর্মীয় সংগঠনের জন্যে রাষ্ট্রীয় ক্যাডার খোলা।

ঊনিশে সেপ্টেম্বর বিশ্ববিদ্যালয়ের অধ্যাপক এসারগুল বালজি বিস্তৃত ৪০০টিরও বেশি শাখা এবং ৮০০টি মাদ্রাসা দিয়ে ধর্মীয় সম্প্রদায়, ধর্মীয় উপদল এবং ধর্মচর্চাগুলি কীভাবে তুরস্কের শিক্ষা ব্যবস্থাকে প্রভাবিত করেছে তার ওপর ২০১৮ সালে একটি গবেষণাপত্র প্রকাশ করেছেন। তিনি বলেন, তুরস্কে আনুমানিক ৩০টি ধর্মীয় সম্প্রদায় এবং উপদল রয়েছে। বালজির অনুসন্ধান অনুসারে, এই ধর্মীয় সম্প্রদায়গুলি ক্ষমতাসীন একেপি পার্টির শাসনকালেই বিকাশ বিকাশ লাভ করেছে

এদিকে সাংবাদিক আমবেরিন জামান জানিয়েছেন যে সম্প্রতি শিক্ষা উপমন্ত্রী নিযুক্ত হওয়ার আগে ২০১৪ সাল থেকে ধর্মীয় শিক্ষা বিভাগের প্রধান হিসেবে নাজিফ ইলমাজ দায়িত্বে থাকাকালে ইসলামি মওলানাদের প্রশিক্ষণের মধ্যম স্কুলের সংখ্যা ১,০৩৬টি থেকে বেড়ে ৩,৪২৭টি হয়েছে।

বালজি তার গবেষণার সময় ২৫ লক্ষেরও বেশি তুর্কিকে এই ধর্মীয় সম্প্রদায়ের সাথে একরকমের এবং “তুরস্কের ১০ হাজার বেসরকারি স্কুলের এক তৃতীয়াংশের অন্তত একটি ভ্রাতৃত্বের সাথে সম্পর্কযুক্ত দেখতে পান। একইরকমভাবে দেখতে পান সম্পর্কযুক্ত ৪ হাজারটি ব্যক্তিগত ছাত্রাবাসের মধ্যে ২,৮০০টিকে৷” এসব গোষ্ঠী পরিচালিত আবাসন স্থাপনার সঠিক সংখ্যা এখনও অজানা। ফলে এসব “ধর্মীয় চর্চাগুলি দেশে হাজার হাজার [ডরমেটরি] পরিচালনা করে বলে ধারণা করা হয়” এবং যাদের “পরিদর্শন করা যায় না,” জানিয়েছে গেজেটে ডুভাস (সংবাদ প্রাচীর)।

এই বিষয়ে অনুসন্ধানী সাংবাদিক তৈমুর সোয়কান তার ২০১৯ সালের বইয়ে বলেছেন, এই গোষ্ঠীগুলি শাসক দলের অধীনে একটি “স্বর্ণযুগ” উপভোগ করছে।

এই ছাত্রাবাসগুলি আবার খুবই সস্তা। অধিকাংশ সময় সরকার পরিচালিত ছাত্রাবাসে স্থান খুঁজে না পাওয়া কম আর্থিক ক্ষমতার পরিবারের শিক্ষার্থীদের এসব ধর্মীয় সম্প্রদায়ের আবাসনে থাকা ছাড়া কোন উপায় থাকে না।

কিন্তু কম দাম সঙ্গে নিয়ে আসে কিছু বন্ধন। নির্দিষ্ট শ্রেণীর বাসিন্দাদের এগুলি নিতেই এবং তাদের অবশ্যই নিয়ম ও কর্তব্য মেনে চলতেই হয়। সকল ডরমিটরি ও ব্যক্তিগ আবাসন পরিষেবা মালিক ইউনিয়ন (টিইউআইওএস)-এর সভাপতি উমুত গেজেচি গেজেটে ডুভারের সাথে এক সাক্ষাৎকারে বলেছেন, “পরিবারগুলি এই ছাত্রাবাসগুলিতে তাদের সন্তানদের জন্যে অপেক্ষমান বিপদ সম্পর্কে সচেতন হলেও এগুলো অপেক্ষাকৃত সস্তা বাসস্থানের প্রস্তাব করে বলে তাদের কাছে আর অন্য কোন বিকল্প থাকে না।”

তার ভিডিওতে কারা বলেন যে তাকে দিনে পাঁচবার উপাসনায় এবং ধর্মীয় ক্লাসে যোগ দিতে বাধ্য করা হতো। তিনি তার নিজের ক্লাসের পড়াশোনার জন্যে তার সামান্য অবসর সময় থাকতো।

২০ বছর বয়সী বিশ্ববিদ্যালয় ছাত্র #আনাসকারা একটি ধর্মীয় সম্প্রদায় পরিচালিত একটি আবাসনে বসবাসের যন্ত্রণার বিশদ বিবরণ দিয়ে আত্মহত্যা করার পরে তুরস্কে ব্যাপক ক্ষোভ ও দুঃখবোধের সৃষ্টি হয়েছে। নীচের জরিপটি অনুসারে, তুরস্কের ৮২% মানুষ তাদের সন্তানদের এধরনের ডর্মে পাঠাবে না।

জনসাধারণের প্রতিক্রিয়া

তুরস্কের মনঃচিকিৎসক সমিতি (পিএটি) একটি বিবৃতিতে বলেছে, “তরুণদের মানসম্পন্ন শিক্ষা, আবাসন, খাদ্য এবং মনোসামাজিক সহায়তা পরিষেবা প্রাপ্তি নিশ্চিত করা একটি সরকারি বাধ্যবাধকতা,” অনলাইন সংবাদ মঞ্চ বায়ানেট জানিয়েছে

কারার বিশ্ববিদ্যালয়ের বন্ধুরা তাদের দুঃখ প্রকাশ করে একটি চিঠি পড়ে শুনিয়েছে। “আমরা কিছু না করা পর্যন্ত আমাদের আর কতজনকে হারাতে হবে? আরো কত তরুণের হাসি মুছে যেতে হবে? আমরা দাবি করছি যে এই পরিস্থিতির সমাধান করা হোক এবং পরিবার, শিক্ষক ও প্রশাসন এই পরিস্থিতির জন্যে কিছু করুকে। আমরা ফোরাত চিকিৎসা অনুষদের শিক্ষার্থী এবং আনাসের বন্ধু হিসেবে আজ এখানে এসেছি। আপনার বয়স সবসময় ১৯ই থাকবে।”

বিরোধী দলগুলিও ব্যক্তিগত ছাত্রাবাস বা ধর্মীয় আবাসনে থাকতে বাধ্য শিক্ষার্থীদের জন্যে সরকারি অনুদানপ্রাপ্ত ছাত্র আবাসন এবং বিকল্প না থাকার সমালোচনা করেছে। দেভা পার্টির নেতা এবং সাবেক ক্ষমতাসীন দলের রাজনীতিবিদ আলী বাবাকান টুইট করেছেন:

এই দেশের তরুণরা তাদের নিজস্ব বিশ্বাস ও সিদ্ধান্তের ভিত্তিতে কাজ এবং আমরা তাদের বুদ্ধিবৃত্তিক ও অর্থনৈতিক স্বাধীনতা নিশ্চিত করতে না পারা পর্যন্ত আমরা কেউই স্বাধীন হতে পারবো না।

এদিকে ক্ষমতাসীন দল বিরোধীদের উদ্দেশ্যমূলকভাবে “মতাদর্শগত প্রতিহিংসা ও বিভাজনের” আহ্বানের অভিযোগ করেছে। ২০২১ সালের সেপ্টেম্বরে আবাসন সংকট নিয়ে প্রতিবাদের সময় শাসক দল ছাত্রদের বাসস্থানের অভাব সম্পর্কে মিথ্যা বলার জন্যে অভিযুক্ত করেছিল। আলমনিটরের সাংবাদিক নাজলান এরতান জানিয়েছেন, স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী সুলেইমান সোয়লু তাদেরকে বিভিন্ন সন্ত্রাসী গোষ্ঠী এবং এলজিবিটিকিউ+ আন্দোলনের সাথে যুক্ত থাকার অভিযোগ করে “পেশাদার উস্কানিদাতা” হিসেবে বর্ণনা করেছেন।

সামাজিক গণতন্ত্রীদের ফাউন্ডেশন যুব শাখা সোদেভা ইয়াং  প্রকাশিত একটি প্রতিবেদন অনুসারে – ২০২০ সাল থেকে তুরস্কে সরকারি ডর্মের ধারণ ক্ষমতা ব্যাপকভাবে কমে গেছে৷ “২০২০-২০২১ সালের মধ্যে শিক্ষা মন্ত্রণালয়ের উচ্চ শিক্ষা ক্রেডিট এবং বোর্ডিং ইনস্টিটিউশন (কেওয়াইকে) পরিচালিত অন্তত ২০টি ডর্ম বন্ধ করে দেওয়া হয়েছে।”

আলমনিটরের সাথে এক সাক্ষাৎকারে সোদেভা ইয়াংয়ের মুখপাত্র এবং আন্তর্জাতিক সম্পর্কের ছাত্র সেলিম জানকারা বলেছেন, “বিগত দশকে, আমরা ধর্মীয় প্রতিষ্ঠান পরিচালিত ছাত্রাবাস বা শিক্ষার্থীদের আবাসনের সংখ্যা ব্যাপক বৃদ্ধি পেতে দেখেছি। আমাদের প্রতিবেদনের একটি রক্ষণশীল অনুমানে সকল ছাত্রাবাসের অন্তত ১৭% এসব ধর্মীয় উপদলগুলোর মালিকানাধীন বললেও হয়তো কম করে বলা হবে।”

আত্মহত্যার এক নম্বর কারণ হলো বিষন্নতার চিকিৎসা না করা। বিষন্নতা চিকিৎসাযোগ্য এবং আত্মহত্যার প্রতিরোধ করা যায়। আপনি আত্মহত্যা প্রবণতা এবং মানসিক সংকটে থাকাদের জন্যে গোপনীয় সহায়তার লাইন থেকে সাহায্য পেতে পারেন। আপনার দেশে আত্মহত্যা প্রতিরোধ হেল্পলাইন খুঁজতে বন্ধুবৎসল.অর্গ-এ যান।

আলোচনা শুরু করুন

লেখকেরা, অনুগ্রহ করে লগ ইন »

নীতিমালা

  • অনুগ্রহ করে অপরের মন্তব্যকে শ্রদ্ধা করুন. যেসব মন্তব্যে গালাগালি, ঘৃণা, অবিবেচনা প্রসূত ব্যক্তিগত আক্রমণ থাকবে সেগুলো প্রকাশের অনুমতি দেয়া হবে না .