বন্ধ করুন

আমাদের স্বেচ্ছাসেবক সম্প্রদায় কাজ করে যাচ্ছে বিশ্বের কোনা থেকে না বলা গল্পগুলো আপনাদের কাছে তুলে ধরতে। তবে আপনাদের সাহায্য ছাড়া আমরা তা পারব না। আমাদের সম্পাদনা, প্রযুক্তি এবং প্রচারণা দলগুলোকে সুষ্ঠুভাবে চলতে সহায়তার জন্যে আপনারা আপনাদের দানের অংশ থেকে কিছু গ্লোবাল ভয়েসেসকে দিতে পারেন।

সাহায্য করুন

কম্বোডিয়ায় ‘একক নারীর হাঁটা’ প্রতিবাদ পরিকল্পনার জন্য পরিবেশবাদীরা দোষী সাব্যস্ত

লং কুন্থিয়ার ফাইল ছবি | সূত্র; ফেসবুক

কম্বোডিয়ায় “একটি অপরধে প্ররোচনা দেওয়া ও সামাজিক শৃঙ্খলা বিঘ্নিত করার অভিযোগে” পরিবেশবাদী গ্রুপ “মাদার নেচার” এর পাঁচ সদস্যকে দোষী সাব্যস্ত করা হয়েছে গত পাঁচ ই মে, ২০২১।

ফুন কেও রিক্সমি, থন রাথা, লং কুন্তিয়া, চিয়া কুন্থিন, এবং আলেজান্দ্রো গঞ্জালেজ- ডেভিডসনকে ১৮-২০ মাসের কারাদন্ডে দন্ডিত করা হয়েছে এবং ৪০ লাখ রিয়েল (এক হাজার মার্কিন ডলার) জরিমানার নির্দেশ দেওয়া হয়েছে।

২০২০ সালের সেপ্টেম্বরে গ্রেপ্তার হওয়া ফুন কেও রিক্সমি, থন রাথা এবং লং কুন্তিয়া রায় দেওয়ার সময় আদালতে উপস্থিত ছিলেন। চিয়া কুন্থিন আত্মগোপনে রয়েছেন, আর স্পেনের নাগরিক আলেজান্দ্রো গঞ্জালেজ- ডেভিডসন, যিনি এই গোষ্ঠীটি প্রতিষ্ঠা করেছিলেন, তাকে ২০১৫ সালে নির্বাসিত হওয়ার পরে কম্বোডিয়ায় ফিরে আসতে বাধা দেওয়া হয়েছিল।

পরিবেশগত বিষয়ে সচেতনতা বাড়াতে “মাদার নেচার” সোশ্যাল মিডিয়া প্রচারণার উপর নির্ভর করে। ২০১৫ সালে, এই দলটি কৃষকদের এবং গ্রামীণ এলাকাগুলিতে বাঁধ এর ক্ষতিকর প্রভাব তুলে ধরে দুর্গম “আরেং উপত্যকায়” সাফল্যের সাথে একটি মেগা বাঁধ নির্মাণকে বাধা দিয়েছে। প্রতিষ্ঠার পর থেকে এই পর্যন্ত এর আট সদস্যকে কম্বোডিয়ান কর্তৃপক্ষ গ্রেপ্তার করেছে

সেপ্টেম্বরে গ্রেপ্তার হওয়া তিন জনই কম্বোডিয়ার রাজধানী নমপেনের সর্বশেষ বেঁচে থাকা হ্রদগুলোর একটি “বোয়ং তমোক” হ্রদের পরিকল্পিত বেসরকারিকরণ এবং পুনর্নির্মাণের বিরোধিতা করে একটি অভিযানের অংশ হিসাবে প্রধানমন্ত্রীর বাসভবনে যাওয়ার জন্য ‘একক নারীর হাঁটা’ প্রতিবাদ কর্মসূচির পরিকল্পনা করছিলেন।

সাম্প্রতিক বছরগুলিতে, হ্রদের ধারে বাসিন্দাদের স্থানচ্যুত করা রিয়েল এস্টেট প্রকল্পগুলি শহরে তীব্র কোন্দল সৃষ্টি করেছে।কর্মীরা দাবি করছেন যে প্রকল্পগুলির বেশিরভাগ ক্ষমতাসীন দলের কর্মকর্তাদের ঘনিষ্ঠ সহযোগীদের দেওয়া হয়েছিল।তারা প্রাকৃতিক হ্রদগুলি ভরাট করার ক্ষতিকারক পরিবেশের পরিণতি সম্পর্কেও সকলকে সতর্ক করেছিল।

আলেজান্দ্রো গঞ্জালেজ- ডেভিডসন রেডিও ফ্রি এশিয়াকে বলেছিলেন যে তাদের গ্রুপ কোনও আইন লঙ্ঘন করেনি, কারণ গ্রেপ্তার হওয়ার পরিকল্পনা করা হয়েছিল হাঁটার কয়েক ঘন্টা আগে:

আমরা ‘একক নারী ওয়াক’/ মার্চ করার সিদ্ধান্ত নিয়েছি: লং কুন্তিয়া তিন কিলোমিটার ধরে সমস্ত পথ সাদা পোষাকে, একা এই মার্চ করবেন। এবং অন্য এক নারীকর্মী, ১৯ বছর বয়সী ফুন কেও রিক্সমি, তিনি এই ওয়াক এর রেকর্ডিং এবং লাইভ স্ট্রিমিংয়ের কাজ করবেন এবং তারপরে থন রাথা, তিনি মূলত নিজের বাড়ি থেকে ইন্টারনেটের মাধ্যমে কথোপকথন করবেন এবং সোশ্যাল মিডিয়ায় এটি সরাসরি সম্প্রচার করবেন।

এটাই আমাদের পরিকল্পনা ছিল।এবং পরিকল্পনা ছিল প্রধানমন্ত্রীর বাসভবনের দিকে হাঁটা।মার্চ শুরুর কয়েক ঘন্টা আগে তারা তিন কর্মীকে গ্রেপ্তার করেছিল এবং সংগঠনের মালিকানাধীন সবকিছু – ক্যামেরা, ল্যাপটপ ইত্যাদি জব্দ করেছিল।

বিচার চলাকালীন সময়ে, “মাদার নেচার” এর ফেসবুক পেজ এ আপলোড করা ভিডিওগুলি প্রমাণ হিসাবে উপস্থাপিত হয়েছিল। মামলার বিচারক বলেছিলেন যে – “দলটি দ্বারা প্রচারিত প্রচারণাগুলি জনগণের জন্য ক্ষোভ তৈরি করতে পারে”। বিচারক আরও জোর দিয়েছিলেন যে “বোয়ং তমোক” হ্রদটির উন্নয়ন নমপেনে যানজট নিরসন করতে পারে।

থন রাথা দোষী সাব্যস্ত হওয়ার পরে আদালতের সাংবাদিকদের কাছে চিৎকার করে বলেছেন:

এটা খুব অন্যায়।যাঁরা কেবল প্রকৃতির যত্ন নিয়েছেন তাদের সাজা দেওয়া হচ্ছে … তারা বিচারের জন্য খুব আগ্রহী।

খেমার আদালত এরকম। দয়া করে লোকেদের বলুন যে আমরা এখনও শক্তিশালী।

কম্বোডিয়ার অভ্যন্তরে এবং কম্বোডিয়ার বাইরে উভয়ই জায়গার মানবাধিকার গোষ্ঠীগুলো আদালতের এই সিদ্ধান্তের সমালোচনা করেছিল, তারা এটিকে গত এক বছরে মত প্রকাশের স্বাধীনতায় বিস্তৃত হামলার সাথে সংযুক্ত করেছিলেন। কম্বোডিয়ান মানবাধিকার গোষ্ঠী ‘লিকারাডো'র পরিচালক ন্যালি পিলর্গ বলেছেন:

এই তরুণদের নমপেনের বৃহত্তম হ্রদ রক্ষা এবং বর্তমান এবং ভবিষ্যত প্রজন্মের জন্য এটি সংরক্ষণের চেষ্টা করার জন্য গ্রেপ্তার করা হয়েছে।এই পরিবেশ প্রতিবাদীগণ দীর্ঘকাল ধরে ভুগছেন এবং আমরা কর্তৃপক্ষকে তাদের জনাকীর্ণ কারাগার থেকে মুক্তি দেওয়ার জন্য আহ্বান জানাই যাতে তারা তাদের পরিবার এবং সম্প্রদায়ের সাথে পুনরায় মিলিত হতে পারে।

রায় ঘোষণার পরে মানবাধিকার পরিস্থিতি নিয়ে জাতিসংঘের বিশেষ দূত মেরি ল'লর এই টুইট পোস্ট করেছেন:

জেনেভায় জাতিসংঘের অফিসে কম্বোডিয়ার কিংডমের স্থায়ী মিশন একটি প্রেস বিবৃতি জারি করে এর প্রতিবাদ করে:

অপরাধ তো অপরাধ-ই এবং অন্য আকাঙ্ক্ষার অনুসরণে একে ন্যায়সঙ্গত করা যায় না।

রায় ঘোষণার আগের দিনগুলি, “মাদার নেচার” তাদের আটককৃত কর্মীদের নির্দোষতার প্রমাণ হিসাবে তাদের ক্যাম্পেইনের ভিডিওগুলি জনসাধারণকে দেখতে বলেছিল:

এগুলো দেখুন এবং নিজেরাই সিদ্ধান্ত নিন যে এমএনসি [মাদার নেচার কম্বোডিয়া] এর কর্মীরা প্রকৃতপক্ষে কারাগারে থাকার যোগ্য অপরাধী কিনা?বা যদি আপনি মনে করেন যে তারা কেবল কম্বোডিয়ান দেশপ্রেমিক যারা এই দেশের প্রাকৃতিক সম্পদ রক্ষা করতে চান, এবং তাদের অবিলম্বে মুক্তি দেওয়া উচিত কিনা?

“মাদার নেচার” এই রায়টি আপিল করার পরিকল্পনা করছে।

আলোচনা শুরু করুন

লেখকেরা, অনুগ্রহ করে লগ ইন »

নীতিমালা

  • অনুগ্রহ করে অপরের মন্তব্যকে শ্রদ্ধা করুন. যেসব মন্তব্যে গালাগালি, ঘৃণা, অবিবেচনা প্রসূত ব্যক্তিগত আক্রমণ থাকবে সেগুলো প্রকাশের অনুমতি দেয়া হবে না .