বন্ধ করুন

আমাদের স্বেচ্ছাসেবক সম্প্রদায় কাজ করে যাচ্ছে বিশ্বের কোনা থেকে না বলা গল্পগুলো আপনাদের কাছে তুলে ধরতে। তবে আপনাদের সাহায্য ছাড়া আমরা তা পারব না। আমাদের সম্পাদনা, প্রযুক্তি এবং প্রচারণা দলগুলোকে সুষ্ঠুভাবে চলতে সহায়তার জন্যে আপনারা আপনাদের দানের অংশ থেকে কিছু গ্লোবাল ভয়েসেসকে দিতে পারেন।

সাহায্য করুন

উপরের ভাষাগুলো দেখছেন? আমরা গ্লোবাল ভয়েসেস এর গল্পগুলো অনুবাদ করেছি অনেক ভাষায় যাতে বিশ্বজুড়ে মানুষ এগুলো সহজে পড়তে পারে।

আরও জানুন লিঙ্গুয়া অনুবাদ  »

রেডিও স্টেশনে রুশ নজরদারি – মৃদু অশনি সংকেত

মস্কোর প্রতিধ্বনি’র প্রধান সম্পাদক আলেক্সি ভেনেডিক্টভ। উৎস: উইকিমিডিয়া কমন্স

রুশ গণমাধ্যমের উপর আরো একটি কঠোর ব্যবস্থার অশনি সংকেত – দ্রুত এবং ধীরে ধীরে ছড়িয়ে  পড়ছে। গতকাল যেমন খবর বেরিয়েছে রাষ্ট্রীয় মিডিয়া পর্যবেক্ষক সংস্থা রস্কোমনাজোর রেডিও স্টেশন এখো মস্কোভি (মস্কোর প্রতিধ্বনি)-কে এই বলে সতর্ক করেছে যে গণমাধ্যমে বিদেশী বিনিয়োগ নিয়ন্ত্রণকারী আইন মেনে না চললে তাদের বন্ধ করে দেয়া হতে পারে।

এদিকে ট্যাবলয়েড ওয়েবসাইট লাইফ নিউজ প্রাথমিকভাবে জানিয়েছে যে এখোকে পাঁচ দিনের মধ্যে বন্ধ করে দেয়া হতে পারে। আরেকটি রুশ গণমাধ্যম প্রতিষ্ঠানকে দমনের আশংকাকে নাকচ করার জন্যে রস্কোমনাজোর কর্মকর্তারা খুব তাড়াতাড়ি ব্যাখ্যা দিয়েছে যে তাদের চিঠিতে যথাসময়ে নির্দিষ্ট কিছু নথি জমা দেয়া সহ কারিগরী বিষয়ে উদ্বেগ জানানো হয়েছে।

রস্কোমনাজোরের চিঠিতে শর্ত দেয়া হয়েছে এখো’কে ২০১৪ সালের একটি আইন মেনে চলতে হবে যাতে বলা হয়েছে যে কোন বিদেশী বিনিয়োগকারী কোন রুশ গণমাধ্যম কোম্পানির ২০ শতাংশের বেশি মালিক হতে পারবে না। ২০১৬ সালের ১ জানুয়ারি থেকে আইনটি কার্যকর হয়েছে এবং এতে গণমাধ্যম কোম্পানিগুলোকে তাদের মালিকানা কাঠামো পরিবর্তন করে সঙ্গতি বিধানের জন্যে এবছরের ১ ফেব্রুয়ারি পর্যন্ত সময় বেঁধে দেয়া হয়েছে।

স্টেশনটির প্রধান সম্পাদক আলেক্সি ভেনেডিক্টভ গতবছর জানিয়েছিলেন যে স্টেশনটি আইনের মধ্যে থেকে কাজ করার জন্যে ইতোমধ্যে পদক্ষেপ গ্রহণ করেছেঃ সঙ্গতি বিধানের জন্যে রুশ গণমাধ্যম ব্যক্তিত্ব ভ্লাদিমির গিউজেন্সকির নেতৃত্বে মার্কিন কোম্পানি ইএম-হোল্ডিং কোম্পানিতে এর অংশীদারিত্ব ৩৪ থেকে কমিয়ে ১৯.৯ শতাংশ করেছে। রাষ্ট্রীয় মালিকানাধীন জ্বালানি জায়ান্ট গ্যাজপ্রমের একটি সহায়ক প্রতিষ্ঠান গ্যাজপ্রম মিডিয়া স্টেশনটির ৬৬% শেয়ারের মালিক।

ভেনেডিক্টভ টুইটারের চিঠিটির প্রতিক্রিয়ায় জানিয়েছেন, রুশ আইনের সঙ্গে সঙ্গতি বিধানের জন্যে এখো তার ক্ষমতার মধ্যে যা কিছু আছে তার সবকিছুই করবে।

আমরা রস্কোমনাজোর দাবি পুরোটাই পূরণ করবো, যদিও আইনের এমন একটি ব্যাখ্যা আমাদের কাছে অপ্রত্যাশিত। আইনজীবীরা এটা নিয়ে কাজ করছে।

যদিও আইন নির্দিষ্ট করে বলা নেই যে অংশীদারী কোম্পানি যুক্তরাষ্ট্রে নিবন্ধিত হতে পারবে না। কেউ কেউ প্রাথমিকভাবে উদ্বেগ জানিয়েছে যে রস্কোমনাজোর এমনভাবে আইনটির ব্যাখ্যা দিয়েছিল যার অর্থ দাঁড়িয়েছিল যে মিডিয়া বা গণমাধ্যম কোম্পানিগুলোতে শেয়ারের বিদেশী মালিকানা সম্পূর্ণভাবে নিষিদ্ধ।

মস্কোর প্রতিধ্বনি’র প্রধান সম্পাদক আলেক্সি ভেনেডিক্টভ। উৎস: archive.govern,ent.ru

কিন্তু রস্কোমনাজোর কর্মকর্তারা দাবি করেছেন যে চিঠিটি রেডিও স্টেশনটির সম্ভাব্য বন্ধ হয়ে যাওয়ার সঙ্গে সম্পর্কিত কিছু নয়। এজেন্সিটির একজন প্রতিনিধি ভাদিম আপেলনস্কি লাইফ নিউজকে বলেছেন যে এটা “রুশ গণমাধ্যমের বিদেশী মালিকানা সংক্রান্ত আইনি বিধান অনুসরণের প্রয়োজনীয়তা সম্পর্কে মনে করিয়ে দেয়ার একটি কারিগরি, তথ্যমূলক চিঠি” মাত্র। রুশ দ্যুমা’র যোগাযোগ কমিটির প্রধান লিওনিদ লেভিন আরও ব্যাখ্যা করে বলেছেন যে চিঠিটি “বিদেশী মালিকদের শেয়ার বিষয়ক আইন ভঙ্গ সম্পর্কিত নয় বরং” উল্লিখিত মালিকানার বিস্তারিত “কাগজপত্রের সময়মত প্রক্রিয়াজাতকরণের প্রয়োজনীয়তা সম্পর্কিত”।

এখো মস্কোভি যে এবারই প্রথমবারের মতো রুশ সরকারের বিশেষ মনোযোগ আকর্ষণ করেছে তা নয়। ২০১৪ সালের অক্টোবরে স্টেশনটি ইউক্রেন যুদ্ধের উপর তাদের কভারেজের জন্যে রস্কোমনাজোর থেকে একটি সতর্কবার্তা পেয়েছিল। মাত্র কয়েক সপ্তাহ আগে রুশ জরুরী সেবা মন্ত্রণালয় ঘোষণা করেছে  যে এটি রেডিও স্টেশনটির স্থাপনাগুলোতে একটি সহজ পরিদর্শন চালাবে – ক্রেমলিনের আনুকূল্যের বাইরে চলে যাওয়া বিভিন্ন ব্যবসা প্রতিষ্ঠান এবং সংস্থা বন্ধ করে দেয়ার জন্যে সাধারণভাবে ব্যবহৃত একটি কৌশল।

স্টেশনটি বিরোধী দলের এক্টিভিস্টদেরগুলোসহ বিস্তৃত ধরনের দৃষ্টিভঙ্গি উপস্থাপনার জন্যে সুপরিচিত। এর নিয়মিত অনুষ্ঠান প্রদায়ক বা উপস্থাপকদের মধ্যে স্পষ্টভাষী পুতিন সমালোচক ভ্লাদিমির কারা-মুর্জা যিনি সম্প্রতি দুই বছরে মধ্যে দ্বিতীয়বারের মতো  মারাত্নকভাবে অসুস্থ্য হয়ে পড়েছেন সম্ভবত: ইচ্ছাকৃত বিষক্রিয়ার কারণে। দুর্নীতি দমন এক্টিভিস্ট এবং বিরোধী দলের নেতা আলেক্সি নাভালনিও একজন নিয়মিত প্রদায়ক; ২০১৮ সালের প্রেসিডেন্ট নির্বাচনে পুতিনের বিরুদ্ধে প্রচারণা চালানো থেকে বিরত রাখার জন্যে গত সপ্তাহে একটি রুশ আদালত তাকে আত্মসাতের দায়ে দোষী সাব্যস্ত করেছে।

আর এটা কারো অজানা নয় যে এখো ভুল পথে পুতিনকে প্রায়শঃই রগড়ে দেয়। ২০১২ সালে মিডিয়া কর্মীদের একটি কুখ্যাত সভায় তিনি ভেনেডিক্টভকে বলেছিলেন, “আপনি দিনরাত আমার উপর ডায়রিয়া ঢেলে দেন।”

আলোচনা শুরু করুন

লেখকেরা, অনুগ্রহ করে লগ ইন »

নীতিমালা

  • অনুগ্রহ করে অপরের মন্তব্যকে শ্রদ্ধা করুন. যেসব মন্তব্যে গালাগালি, ঘৃণা, অবিবেচনা প্রসূত ব্যক্তিগত আক্রমণ থাকবে সেগুলো প্রকাশের অনুমতি দেয়া হবে না .