বন্ধ করুন

আমাদের স্বেচ্ছাসেবক সম্প্রদায় কাজ করে যাচ্ছে বিশ্বের কোনা থেকে না বলা গল্পগুলো আপনাদের কাছে তুলে ধরতে। তবে আপনাদের সাহায্য ছাড়া আমরা তা পারব না। আমাদের সম্পাদনা, প্রযুক্তি এবং প্রচারণা দলগুলোকে সুষ্ঠুভাবে চলতে সহায়তার জন্যে আপনারা আপনাদের দানের অংশ থেকে কিছু গ্লোবাল ভয়েসেসকে দিতে পারেন।

সাহায্য করুন

উপরের ভাষাগুলো দেখছেন? আমরা গ্লোবাল ভয়েসেস এর গল্পগুলো অনুবাদ করেছি অনেক ভাষায় যাতে বিশ্বজুড়ে মানুষ এগুলো সহজে পড়তে পারে।

আরও জানুন লিঙ্গুয়া অনুবাদ  »

শারীরিকভাবে অক্ষম মানুষদের সহযোগিতা করতে সিঙ্গাপুরের নামকরা ভবনগুলো বেগুনী রঙে সেজেছে

About 10,000 people joined the Purple Parade in Singapore. Source: Official Facebook event page

বেগুনী রঙের মিছিলে সিঙ্গাপুরের ১০,০০০ মানুষ যোগ দিয়েছিলেন। ফেইসবুকের অফিসিয়াল ইভেন্ট পেইজ থেকে ছবিটি নেয়া।

চলতি মাসের নভেম্বরের ৫ তারিখে সিঙ্গাপুরের প্রায় ১০,০০০ জন মানুষ বেগুনী রঙের মিছিলে যোগ দিয়েছেন। তাদের প্রচারণা উদ্দেশ্য ছিল, সমাজের শারীরিকভাবে অক্ষম মানুষ যাদের বিশেষ সুবিধা দরকার, তাদের সবাইকে উৎসাহিত এবং সমর্থন করা।

এই প্রচারণার অংশ হিসেবে সিঙ্গাপুরের ১৯টি আইকনিক ভবন ৮ দিন ধরে বেগুনী রঙে সেজেছিল।

সংগঠকদের ভাষ্য অনুযায়ী বেগুনী রঙে সাজার মধ্যে দিয়ে যাদের বিশেষ সুবিধা প্রয়োজন, তাদের সাথে সহমর্মিতা প্রকাশ করা হয়েছে। ইতোমধ্যে বেগুনী মিছিলের প্রতীকি লোগো ডিজাইন করা হয়েছে, যা অনেকটা স্কয়ার আকৃতির। এই লোগোর মধ্য দিয়ে “একতা, অন্তর্ভুক্তি এবং শক্তিশালী বিল্ডিং ব্লক” বুঝানো হয়েছে।

বিশেষ সহযোগিতা সম্পর্কে মানুষের মাঝে আরো বেশি সচেতনতা সৃষ্টির উদ্দেশ্য এই প্রচারণা উৎসবে বিভিন্ন দল, সংস্থা এবং কয়েক হাজার পরিবারের সদস্য যোগ দিয়েছিলেন। উল্লেখ্য, ২০১৩ সালে বেগুনী রঙের এই মিছিল প্রথম আয়োজিত হয়েছিল।

সিঙ্গাপুরের উপপ্রধানমন্ত্রী থারম্যান শানমুগারাতনাম বাণিজ্যিক সংস্থাগুলোতে আরো বেশি করে প্রতিবন্ধী লোকদের নিয়োগ দেয়ার দাবি জানিয়েছেন:

Our next challenge is include Singaporeans with special needs in the workplace. Many more employers have to do their part. And so do all of us – as colleagues at work, as customers, and as friends. Inclusion is about us.

আমাদের এর পরের চ্যালেঞ্জ হলো, সিঙ্গাপুরের কর্মক্ষেত্রে আরো বেশি সংখ্যক শারীরিকভাবে অক্ষম মানুষদের অন্তর্ভুক্ত করা। নিয়োগদাতাদের এই প্রচারণার অংশ করতে হবে। শুধু তাই নয়, এটা আমাদের সবার করা উচিত। কাজের ক্ষেত্রে কখনো সহকর্মী হয়ে, কখনো ক্রেতা হয়ে, কখনো বন্ধু হয়ে তাদের প্রতি সহযোগিতার হাত বাড়িয়ে দিতে পারি। তাহলে সবার অন্তর্ভুক্তি নিশ্চিত হবে।

সিঙ্গাপুরের শারীরিকভাবে অক্ষম ছেলেমেয়েরা যাতে মূল সমাজ ব্যবস্থায় অন্তর্ভুক্ত হয়, সেজন্য সরকার যেসব সংস্কারমূলক কর্মকাণ্ড হাতে নিয়েছে, সেগুলো মনে করিয়ে দেন এই নেতা। তিনি আরো বলেন, এখন সরকারের কাজ হলো দেশটির প্রবৃদ্ধি এই নাজুক সেক্টরের সাথে শেয়ার করে নেয়া।

নিচে বেগুনী রঙের মিছিলের কিছু ছবি রইলো। অনুষ্ঠানের খবর ছড়িয়ে দিতে #পার্পলপ্যারেডএসজি, #গোপার্পলএসজি #পার্পলপ্যারেড২০১৬ হ্যাশট্যাগ ব্যবহার করা হয়েছে।

ভিক্টোরিয়া থিয়েটার এবং কনসার্ট হল বেগুনী রঙে দেখতে সুন্দর লাগছে না?
#পার্পলপ্যারেডএসজি, #গোপার্পলএসজি

#purpleparadesg #gopurplesg

A photo posted by Fion Tan (@beesy_tan) on

#পার্পলপ্যারেডএসজি, #গোপার্পলএসজি

Agreed #purpleparadesg

A photo posted by @veryfunnyha on

সহমত। #পার্পলপ্যারেডএসজি

বেগুনী রঙের মিছিলে যারা যোগ দিয়েছেন, তাদের সবাইকে অসংখ্য ধন্যবাদ। সবার ভালোবাসায় আমরা মুগ্ধ। #পার্পলপ্যারেডএসজি, #গোপার্পলএসজি #পার্পলপ্যারেড২০১৬

পুরো মঞ্চ হুইল ড্যান্স গ্রুপের দখলে। #পার্পলপ্যারেডএসজি, #গোপার্পলএসজি
বেগুনী রঙের মিছিল প্রচারণার লক্ষ্য হলো সমাজের শারীরিকভাবে অক্ষম মানুষদের মূলধারায় অন্তর্ভুক্ত করা এবং তাদের সাথে নিয়ে উদযাপন করা। এই আন্দোলনের মধ্যে দিয়ে সবাইকে সচেতন করে আমরা আরো বেশি অন্তর্ভুক্তমূলক সমাজের দিকে যেতে চাই।

We are all prepared for #purpleparade2016 contingent. #MDAS #gopurplesg

A photo posted by MDAS (@musculardystrophy_sg) on

আমরা সবাই বেগুনী রঙের মিছিলের জন্য প্রস্তুত। #পার্পলপ্যারেডএসজি, #গোপার্পলএসজি

Purple bridge #gopurplesg #clarkequay #singapore #シンガポール

A photo posted by Jun (@nrb19449) on

বেগুনী সেতু। #পার্পলপ্যারেডএসজি, #গোপার্পলএসজি

Never give up! 😀 #gopurplesg #purpleparadesg #purpleparade2016 #thepurpleparade2016

A photo posted by ~Flashduel (@flashduel.y) on

বিনা যুদ্ধে নাহি দিব সূচাগ্র মেদিনী।:D #পার্পলপ্যারেডএসজি, #গোপার্পলএসজি #পার্পলপ্যারেড২০১৬

আলোচনা শুরু করুন

লেখকেরা, অনুগ্রহ করে লগ ইন »

নীতিমালা

  • অনুগ্রহ করে অপরের মন্তব্যকে শ্রদ্ধা করুন. যেসব মন্তব্যে গালাগালি, ঘৃণা, অবিবেচনা প্রসূত ব্যক্তিগত আক্রমণ থাকবে সেগুলো প্রকাশের অনুমতি দেয়া হবে না .