বন্ধ করুন

আমাদের স্বেচ্ছাসেবক সম্প্রদায় কাজ করে যাচ্ছে বিশ্বের কোনা থেকে না বলা গল্পগুলো আপনাদের কাছে তুলে ধরতে। তবে আপনাদের সাহায্য ছাড়া আমরা তা পারব না। আমাদের সম্পাদনা, প্রযুক্তি এবং প্রচারণা দলগুলোকে সুষ্ঠুভাবে চলতে সহায়তার জন্যে আপনারা আপনাদের দানের অংশ থেকে কিছু গ্লোবাল ভয়েসেসকে দিতে পারেন।

সাহায্য করুন

উপরের ভাষাগুলো দেখছেন? আমরা গ্লোবাল ভয়েসেস এর গল্পগুলো অনুবাদ করেছি অনেক ভাষায় যাতে বিশ্বজুড়ে মানুষ এগুলো সহজে পড়তে পারে।

আরও জানুন লিঙ্গুয়া অনুবাদ  »

কিরগিজস্তানের বিশকেকের সুপার মার্কেটে প্রথম অপেরা ফ্ল্যাশ মবের আয়োজন করা হয়। এটি ছিল যাদুকরী।

This young woman was one of the stars of the recent opera flash mob in the Frunze Supermarket. Screenshot shared by People of KG's YouTube channel.

ফ্রুনজে সুপার মার্কেটে সম্প্রতি যে অপেরা ফ্ল্যাশমবের আয়োজন করা হয়, তাতে এই তরুণী ছিল এক তারকা। স্ক্রিনশট প্রদর্শন করেছে ইউটিউব চ্যানেল পিপলস অফ কেজি।

এমন এক সপ্তাহ যখন কিরগিজস্তান কেবল নেতিবাচক ঘটনার কারণে সংবাদের শিরোনাম হয়েছে, সেখানে অনলাইনে প্রদর্শীত এক ভিডিও নাগরিকদের হাসির এক কারণ এনে দিয়েছে।

দেশটির প্রথম অপেরা ফ্ল্যাশমবের বিষয়টি ইউটিউবের পিপলস অফ কেজি নামক চ্যানেলের মাধ্যমে অনলাইনে দেখা যাচ্ছে। পিপল অফ কেজি হচ্ছে এমন এক অনলাইন উদ্যোগ, যা সেই সমস্ত কিরগিজ নাগরিকদের তুলে ধরে, যারা অবিশ্বাস্য সব কর্মকাণ্ড করে।

এটি ছিল এমন এক ভিডিও যা আরইএফ /আরএল দ্রুত প্রদর্শন করা হয়:

ডিসেম্বরের শুরুর কোন এক দিনে সন্ধ্যায় বিশকেকের ফ্রুনজে নামক সুপার মার্কেটের গতানুগতিক কেনাকাটা হঠাৎ করে এক সংস্কৃতিক অনুষ্ঠানে পাল্টে যায়, যা দৃশ্যত এক অপেরা ফ্ল্যাশ মবে পরিণত হয়। যে সমস্ত ব্যক্তিদের দেখে মনে হচ্ছিল এক সাধারণ ক্রেতা, তারা এবং দোকানের কর্মচারীরা হঠাৎ করে গান গাইতে শুরু করে, দোকানের নিয়মিত ক্রেতাদের সুন্দর এক বিনোদন উপহার দেওয়ার জন্য ভার্দির অপেরা, লা ত্রাভিতা থেকে একটা গান গেয়ে শোনানো হয়েছে।

এই বিষয়টি মোটেও বিস্ময়কর নয় যে এই সপ্তাহে অপেরা ফ্ল্যাশমব কিরগিজ স্যোশাল মিডিয়ায় সবচেয়ে ব্যাপকভাবে প্রদর্শীত বিষয় হিসেবে প্রমাণীত হয়েছে। এটা দেখার জন্য এক মিনিট সময় নিন এবং উপভোগ করুন!

আলোচনা শুরু করুন

লেখকেরা, অনুগ্রহ করে লগ ইন »

নীতিমালা

  • অনুগ্রহ করে অপরের মন্তব্যকে শ্রদ্ধা করুন. যেসব মন্তব্যে গালাগালি, ঘৃণা, অবিবেচনা প্রসূত ব্যক্তিগত আক্রমণ থাকবে সেগুলো প্রকাশের অনুমতি দেয়া হবে না .