বন্ধ করুন

আমাদের স্বেচ্ছাসেবক সম্প্রদায় কাজ করে যাচ্ছে বিশ্বের কোনা থেকে না বলা গল্পগুলো আপনাদের কাছে তুলে ধরতে। তবে আপনাদের সাহায্য ছাড়া আমরা তা পারব না। আমাদের সম্পাদনা, প্রযুক্তি এবং প্রচারণা দলগুলোকে সুষ্ঠুভাবে চলতে সহায়তার জন্যে আপনারা আপনাদের দানের অংশ থেকে কিছু গ্লোবাল ভয়েসেসকে দিতে পারেন।

সাহায্য করুন

উপরের ভাষাগুলো দেখছেন? আমরা গ্লোবাল ভয়েসেস এর গল্পগুলো অনুবাদ করেছি অনেক ভাষায় যাতে বিশ্বজুড়ে মানুষ এগুলো সহজে পড়তে পারে।

আরও জানুন লিঙ্গুয়া অনুবাদ  »

স্টপ লুমাড কিলিং নামক আন্দোলন দক্ষিণ ফিলিপাইনসের খনি বিরোধী আদিবাসী সম্প্রদায়ের নিরাপত্তা দাবি করছে

"Oplan Bayanihan [a military counterinsurgency program] pushes Lumads to evacuate their lands, but also paves the way for corporations to take hold of the land, and use the Armed Forces of the Philippines as their own security force as they plunder and suck the Earth of it's natural elements." Image by Anakbayan USA.

ওপলান বায়ানিহান [সামরিক বাহিনীর এক সন্ত্রাস বিরোধী কর্মসূচি] লুমাডদের তাদের এলাকা খালি করতে বলছে, সাথে তারা কর্পোরেট প্রতিষ্ঠানদের এই এলাকার ভূমি দখলের জন্য রাস্তা তৈরি করছে এবং তারা ফিলিপাইনসের সামরিক বাহিনীকে ব্যবহার করছে যা তাদের দেশটির নিজস্ব নিরাপত্তা বাহিনী, যাদের সে এই এলাকার প্রাকৃতিক সম্পদ লুণ্ঠন এবং গ্রাস করার জন্য। ছবি এবং শিরোনাম আনাকবায়ান যুক্তরাষ্ট্র-এর

আধা সামরিক বাহিনীর কর্মকাণ্ড এবং খনি পরিচালনাকারী প্রতিষ্ঠান সমূহ লুমাড আদিবাসী সম্প্রদায়ের সদস্যদের নিজেদের এলাকা থেকে তাদের উচ্ছেদ করেছে। ফিলিপাইনসের অনেকে নাগরিক সরকারের প্রতি আহ্বান জানাচ্ছে যেন আদিবাসী নাগরিকদের প্রতি যে অত্যাচার চলছে তার বিরুদ্ধে অতি সত্বর ব্যবস্থা গ্রহণ করা হয়। লুমাড শব্দটি সাধারণত মিন্দানাও দ্বীপের আদিবাসী সম্প্রদায়ের ক্ষেত্রে উল্লেখ করা হয়, যে দ্বীপটি দেশটির দক্ষিণের দ্বিতীয় সর্ববৃহৎ দ্বীপ।

সুরিগাও প্রদেশের লুমাড-এর নেতারা সংবাদ প্রদান করেছে যে আধা সামরিক বাহিনীর তাদের স্কুল এবং সম্প্রদায়ের উপর হামলা চালিয়েছে। প্রায় ২,০০০ নাগরিককে পাহাড়ে অবস্থিত নিজেদের আবাস ছেড়ে দিতে বাধ্য করে এবং এর ফলে তারা শহরের সিটি সেন্টার–এ আশ্রয় গ্রহণ করতে বাধ্য হয়। আশ্রয় গ্রহণকারীদের মধ্যে অনেকে লুমাড সম্প্রদায়ের থেকে এসেছে, যারা খনিজ সম্পদ আরোহণকারী প্রতিষ্ঠান সমূহকে এই এলাকায় প্রবেশ সক্রিয় ভাবে বাঁধা দিচ্ছে।

সরকারের এক প্রতিষ্ঠান ন্যাশনাল কমিশন ফর কালচার এন্ড দি আর্টস (এনসিসিএ) লুমাডদের উপর হামলাকে ফিলিপাইনের সংস্কৃতির উপর হামলা হিসেবে বর্ণনা করেছে:

এনসিসি এই সকল আদিবাসী সম্প্রদায়কে স্বীকৃতি প্রদান করে এবং তাদের নেতাদের দেশটির মৌলিক এবং সূক্ষ্ম সংস্কৃতি ঐতিহ্যের মূল হিসেবে বিবেচনা করে। আমাদের যে স্বতন্ত্র শৈল্পিক ঐতিহ্য রয়েছে, তারা এর বাহক। এগুলোর হত্যা করা মানে আমাদের জনগোষ্ঠীর আত্মাকে খুন করা। যেহেতু সময়ের পরীক্ষায় পাশ করা জ্ঞান পদ্ধতি, দক্ষতা এবং অনুশীলনের তারা হচ্ছে জীবন্ত পরিবাহক, তাদের কে আহত করা মানে আমাদের দেশের গ্রহণযোগ্য উন্নয়নের সংস্কৃতিক ভিত্তিকে ক্ষতিগ্রস্থ করা।

সেপ্টেম্বরের বেশ কয়েক দিন, টুইটার হ্যাশট্যাগ #স্টপলুমাডকিলিং বা “লুমাড এ হত্যাকাণ্ড বন্ধ কর” ফিলিপাইনের নেট নাগরিকদের আলোচিত ধারায় পরিণত হয়, যখন বাস্তুচ্যুত লুমাডদের প্রতি একাত্মতা প্রদর্শনের জন্য স্যোশাল মিডিয়ার সাহায্য নেওয়া হয়। নিচে কিছু ছবি এবং মেমে লুমাডদের প্রতি নেট নাগরিকদের সমর্থন প্রদর্শন করছে:

The banner reflects the stand of the Catholic Church in Tandag City where more than 2,000 Lumad evacuees have sought shelter. Photo shared on Facebook by Manassas Benedict L. Serrano.

এই ব্যানারে তানডাগ সিটির ক্যাথলিক চার্চের অবস্থান ফুটে উঠেছে যেখানে ২,০০০-এর মত বাস্তুচ্যুত লুমাড আশ্রয় লাভ করেছে। ছবি ফেসবুকে প্রদর্শন করেছে মানাসসাস বেনডিক্টের, ছবি এল সেরানোর।

Teachers in Manila join call for the protection of the Lumad. Photo from the Facebook page of Carl Marc Ramota.

ম্যানিলার শিক্ষকরা লুমাডদের নিরাপত্তার আহ্বানে যোগ দিয়েছে। ছবি কার্ল মার্ক রামাতোর ফেসবুকের পাতা থেকে নেওয়া।

Women activists in Manila show support for the Lumad. Photo from the Facebook page of Tudla

ম্যানিলার নারী একটিভিস্টরা লুমাডের সপক্ষে সমর্থন প্রদর্শন করেছে। ছবি টুডলারের ফেসবুক পাতা থেকে নেওয়া হয়েছে।

Facebook users were asked to share this profile photo created by human rights group in support of the Lumad.

লুমাড মানবাধিকার দলের তৈরি করা প্রোফাইল ছবি। ফেসবুক ব্যবহারকারীরা সবাইকে শেয়ার করার আহ্বান জানিয়েছে।

সেন্ট সাকো ম্যানিলার ছাত্ররা স্টপ লুমাড-এর সমর্থনে এক প্রতিবন্ধকতা সৃষ্টি করেছে। ছবি এডা গুমবানের:

স্টপ কিলিং লুমাদ নামক আন্দোলন অন্য দেশেও গিয়ে পৌঁছেছে। নীচের ছবি প্রদর্শন করছে লুমাদের প্রতি আন্তর্জাতিক সমর্থন।

Filipino teachers in University of California Berkeley show support for the Lumad. Photo from the Facebook page of Joi Barrios-Leblanc

স্ক্যালিফোর্নিয়া বার্ক্লে বিশ্ববিদ্যালয়ের ফ্লিপিনো শিক্ষকরা লুমাদের প্রতি তাদের সমর্থন প্রদর্শন করছে। ছবি জোই ব্যারিস লেব্লাঙ্ক

Filipino activists in New York City show support for the Lumad. Photo from  Anakbayan USA

নিউইয়র্কের ফিলিপিনো একটিভিস্টরা লুমাডদের সপক্ষে তাদের সমর্থন প্রদর্শন করছে ছবি আনাকবাইয়ানের।

Solidarity from a Palestinian family. Photo shared on Facebook by Mark Moreno Pascual

লুমাডদের প্রতি ফিলিস্তিনি এক পরিবারের একাত্মতা। ছবি প্রদর্শন করেছে মার্ক মোরেনো প্যাসকুয়েল

Belgian activists show support for Lumad communities. Photo from the Facebook page of Tinay Palabay

বেলজিয়ান একটিভিস্টরা লুমাড সম্প্রদায়ের প্রতি তাদের সমর্থন প্রদর্শন করছে। ছবি তিনয় পালাবেইর ফেসবুকের পাতা থেকে নেওয়া হয়েছে।

Human rights activists attending a conference in Germany show support for Lumad communities. Photo from the Facebook page of Tinay Palabay

জার্মানির এক সম্মেলনে অংশ গ্রহণ করা মানবাধিকার কর্মীরা লুমাড সম্প্রদায়ের প্রতি তাদের সমর্থন প্রদর্শন করছে। ছবি তিনয় পালাবেইর ফেসবুকের পাতা থেকে নেওয়া হয়েছে।

Activists in the Netherlands show support for the Lumad. Photo from the Facebook page of Marlon Toledo Lacsamana

নেদারল্যান্ডের একটিভিস্টরা লুমাডদের প্রতি সমর্থন প্রদর্শন করছে। ছবি মারলোন টোলেডো লাকসামানার।

‪আদিবাসী সম্প্রদায়ের অধিকার বিষয়ক জাতিসংঘের বিশেষ দূত ভিক্টোরিয়া তাউলি করপোজ এবং মানবাধিকার রক্ষা অধিকর্তা মিশেল ফ্রস্ট সামরিক বাহিনীর প্রতি আহ্বান জানিয়েছে, যেন সামরিক বাহিনী উক্ত এলাকার আদিবাসী শিশুদের কয়েকটি বিদ্যালয় থেকে তাদের দখলদারিত্বের অবসান ঘটায়:‬

বেসামরিক প্রতিষ্ঠানে সামরিক বাহিনীর অবস্থান এবং বেসামরিক নাগরিকদের হত্যা করা, বিশেষ করে বিদ্যালয়ে, যেটি শিশুদের জন্য এক নিরাপদ স্বর্গ, এই ধরণের লড়াই থেকে যে সকল স্থান দূরে থাকে, এই বিষয়টি মোটেও গ্রহণযোগ্য নয়, বিষয়টি ক্ষমাহীন এবং আন্তর্জাতিক মানবাধিকার ও আন্তর্জাতিক মানবাধিকার আদর্শের বিপরীত।

এই ঘটনায় সামরিক বাহিনী অস্বীকার করেছে যে তারা লুমাড জনগোষ্ঠীকে হয়রান করছে। বরঞ্চ তারা উৎসাহ প্রদান করছে যে, আদিবাসীদের মাঝে যুদ্ধ লুমাড এলাকার হানাহানির কারণ। কিন্তু এখানকার অঞ্চলিক সরকার এই ঘটনাকে খণ্ডন করেছে এবং সামরিক বাহিনীর বিরুদ্ধে অভিযোগ করেছে যে তারা এক আধা সামরিক বাহিনী তৈরি করেছে এবং তাদের সশস্ত্র করছে। ফিলিপাইনের সিনেট প্রতিশ্রুতি প্রদান করেছে যে তারা এই বিষয়ে তদন্ত করে দেখবে

আলোচনা শুরু করুন

লেখকেরা, অনুগ্রহ করে লগ ইন »

নীতিমালা

  • অনুগ্রহ করে অপরের মন্তব্যকে শ্রদ্ধা করুন. যেসব মন্তব্যে গালাগালি, ঘৃণা, অবিবেচনা প্রসূত ব্যক্তিগত আক্রমণ থাকবে সেগুলো প্রকাশের অনুমতি দেয়া হবে না .