বন্ধ করুন

আমাদের স্বেচ্ছাসেবক সম্প্রদায় কাজ করে যাচ্ছে বিশ্বের কোনা থেকে না বলা গল্পগুলো আপনাদের কাছে তুলে ধরতে। তবে আপনাদের সাহায্য ছাড়া আমরা তা পারব না। আমাদের সম্পাদনা, প্রযুক্তি এবং প্রচারণা দলগুলোকে সুষ্ঠুভাবে চলতে সহায়তার জন্যে আপনারা আপনাদের দানের অংশ থেকে কিছু গ্লোবাল ভয়েসেসকে দিতে পারেন।

সাহায্য করুন

উপরের ভাষাগুলো দেখছেন? আমরা গ্লোবাল ভয়েসেস এর গল্পগুলো অনুবাদ করেছি অনেক ভাষায় যাতে বিশ্বজুড়ে মানুষ এগুলো সহজে পড়তে পারে।

আরও জানুন লিঙ্গুয়া অনুবাদ  »

রুশ সোশ্যাল মিডিয়া ব্যবহারকারীরা দৈনিক ৩০ কোটি পোস্ট লিখে থাকে

Russians tweet, post, and blog 30 million items a day. Nearly everybody's doing it. Image edited by Kevin Rothrock.

প্রতিদিন টুইট, পোস্ট এবং ব্লগ মিলিয়ে রুশ নাগরিকরদের ৩০ কোটি লেখা ছাপা হয়ে থাকে। গড়ে প্রায় প্রতিদিন এই পরিমাণ লেখা প্রকাশ হয়। ছবি সম্পাদনা কেভিন রুথরকের।

নতুন এক গবেষণা অনুসারে, রুশ স্যোশাল মিডিয়া ব্যবহারকারীরা প্রায় প্রতিদিন ডিজিটাল মাধ্যমে ৩০ কোটি নতুন লেখা প্রকাশ করে থাকে। কিবিরাম (স্যোশাল মিডিয়া এবং অনলাইনে সুনাম ধরে রাখার বিষয়ে বিশেষজ্ঞ এক গবেষণা প্রতিষ্ঠান)-এর প্রতিষ্ঠাতা ইগোর আশামানোভ এ মাসের শুরুতে মস্কোর এক বিপণন সম্মেলনে তার প্রতিষ্ঠানের এই প্রাপ্ত উপাত্ত তুলে ধরে।

এছাড়াও রুনেট ইকো জুড়ে স্যোশাল মিডিয়া কার্যক্রম পরিমাপের জন্য কিবিরাম রাশিয়ার সবচেয়ে সক্রিয় সোশ্যাল নেটওয়ার্কগুলোর প্রতি মনোযোগ প্রদান করে, যার মধ্যে রয়েছে ফেসবুক, ভিকোনটাকটে, টুইটার, লাইভজার্নাল ও ইনস্টাগ্রাম। এই গবেষণা অনুসারে, রাশিয়ায় প্রায় ৩০ লক্ষ সক্রিয় ফেসবুক ব্যবহারকারী রয়েছে যারা গড়ে প্রতিদিন ৪০ থেকে ৫০ লক্ষ পোস্ট লিখে থাকে। রাশিয়ায় প্রায় ১৫ লক্ষ থেকে ২০ লক্ষ টুইটার ব্যবহারকারী রয়েছে, যারা প্রতিদিন প্রায় ৮০ থেকে ১ কোটি ২০ লক্ষ টুইট করে থাকে। রাশিয়ার ইনস্টাগ্রাম ব্যবহারকারীরা প্রতিদিন প্রায় ২০ লক্ষ ছবি পোস্ট করে থাকে এবং দেশটিতে নিবন্ধিত লাইভ জার্নাল একাউন্টের সংখ্যা প্রায় ১ কোটি ৪০ লক্ষ।

রাশিয়ার সবচেয়ে জনপ্রিয় অনলাইন নেটওয়ার্ক ভিকোনটাকটে প্রতিদিন তার সেই সমস্ত ব্যবহারকারীর ১ কোটি ২০ লক্ষ লেখা প্রকাশ করে থাকে যারা যে কোন প্রধান স্যোশাল মিডিয়া ব্যবহারকারীর চেয়ে বয়সে তরুণ। গড়ে সবচেয়ে বয়স্করা ওডনোক্লাসনিক নামক ওয়েব সাইট ব্যবহার করে থাকে।

কিবিরামের গবেষণায় ১২,০০০ অনলাইন নিউজ সাইট এবং ১২,০০০-এর বেশী স্বতন্ত্র ব্লগ এবং ইন্টারনেট ফোরাম অর্ন্তভুক্ত করেছিল।

এই সকল ওয়বেসাইটে নাম নিবন্ধন করা সকল ব্যক্তি এবং এই বিশাল পরিমাণ পোস্টের মাঝে, কিবারাম আবিষ্কার করেছে যে এর মাত্র ৫ শতাংশ মূলত মৌলিক লেখা পোস্ট করে থাকে (ওয়েবে সক্রিয় এরকম ব্যক্তির সংখ্যাগরিষ্ঠ অংশ অন্যের লেখা বা উপাদান পুনরায় পোস্ট করে থাকে)।

এই গণনা প্রক্রিয়া এবং রুনেট ইকোর ব্লগার ও ডিজিটাল মিডিয়ার গায়ে এক বিশেষ তকমা একে দেওয়া হবে ভবিষ্যত ইন্টারনেট অধ্যাদেশের এক প্রধান বিষয়। ২০১৪ সালের আগস্ট মাস থেকে প্রয়োগ হওয়া তথাকথিত “ব্লগারদের জন্য আইন”, পাশাপাশি একেবারে সাম্প্রতিক সময়ে রুশ সংসদ দুমার সংসদ আলেক্সেই কাজাকভের ব্লগার এবং সাংবাদিককে সমকক্ষ রূপে গণ্য করার আইনী উদ্যোগ, রুশ নাগরিকদের অনলাইনে আরো বেশী পরিমাণে লেখা প্রকাশ এবং সেগুলোকে সেখানে তুলে ধরার ক্ষেত্রে এর সংখ্যা এবং সেগুলোকে চিহ্নিত করার বেলায় আরো বেশী পরিমাণ প্রচেষ্টার দেখা মিলবে।

আলোচনা শুরু করুন

লেখকেরা, অনুগ্রহ করে লগ ইন »

নীতিমালা

  • অনুগ্রহ করে অপরের মন্তব্যকে শ্রদ্ধা করুন. যেসব মন্তব্যে গালাগালি, ঘৃণা, অবিবেচনা প্রসূত ব্যক্তিগত আক্রমণ থাকবে সেগুলো প্রকাশের অনুমতি দেয়া হবে না .