বন্ধ করুন

আমাদের স্বেচ্ছাসেবক সম্প্রদায় কাজ করে যাচ্ছে বিশ্বের কোনা থেকে না বলা গল্পগুলো আপনাদের কাছে তুলে ধরতে। তবে আপনাদের সাহায্য ছাড়া আমরা তা পারব না। আমাদের সম্পাদনা, প্রযুক্তি এবং প্রচারণা দলগুলোকে সুষ্ঠুভাবে চলতে সহায়তার জন্যে আপনারা আপনাদের দানের অংশ থেকে কিছু গ্লোবাল ভয়েসেসকে দিতে পারেন।

সাহায্য করুন

উপরের ভাষাগুলো দেখছেন? আমরা গ্লোবাল ভয়েসেস এর গল্পগুলো অনুবাদ করেছি অনেক ভাষায় যাতে বিশ্বজুড়ে মানুষ এগুলো সহজে পড়তে পারে।

আরও জানুন লিঙ্গুয়া অনুবাদ  »

কে, কবে বলেছিল জাপানের ছাত্রদের বিদ্যালয়ের ভেতরে পড়ার জুতা মনোমুগ্ধকর নয়?

uwabaki shoe art

উয়াবাকি নামক ঘরের ভেতরে পড়ার জুতা। ছবি ফ্লিকার ব্যবহারকারী সানবু-এর (সিসি বাই-এনসি ২.০)। (CC BY-NC 2.0)

জাপানের বিদ্যালয়গুলোর নতুন বছর শুরু হয় এপ্রিল মাসে। আর সেহেতু একই বছরে বিদ্যালয়ের পোষাক নিয়ে তোড়জোড়ের হাওয়া মার্চ থেকে বইতে শুরু করে, অনেক পরিবার স্কুলের পোষাক এবং এর সামগ্রীর জন্য মাস খানেক আগে থেকে প্রস্তুতি গ্রহণ করতে শুরু করে।

জাপানে যারা স্কুলে যাওয়ার প্রস্তুতি গ্রহণ করা শুরু করেছে, তাদের জন্য উয়াবাকি (ঘরের ভেতরে পড়ার এক জুতা) হচ্ছে বিদ্যালয় জীবনের এক অবিচ্ছেদ্য অঙ্গ। ছাত্র, শিক্ষক এবং সাক্ষাৎকার প্রার্থী সকলকে একই ভাবে বিদ্যালয়ে প্রবেশের পূর্বে রাস্তায় পড়ার উপযোগী জুতা খুলে, বিদ্যালয়ে প্রবেশ করতে হয়

ইলাস্টিকের ফিতা লাগানো এই উয়াবাকি জুতা, খুব সহজে ছোট বাচ্চাদের পড়ানো যায় এবং রাবার লাগানো গোড়ালি বিদ্যালয়ের কোণ পিচ্ছিল স্থানে তাদের মাটির সাথে আটকে রাখাতে সাহায্য করে।

সাম্প্রতিক বছরগুলোয়, বিদ্যালয়ের পোষাক পরিচ্ছদের ক্ষেত্রে জাপানের মনোভাব অনেক সহজ হয়ে এসেছে। এখানে একদিকে বিদ্যালয়ে যেমন উয়াবাকি পড়া বাধ্যতামূলক, অন্যদিকে জাপানের কিছু অংশে উয়াবাকির সৌন্দর্য্য বৃদ্ধি করাকে সহজ ভাবে গ্রহণ করা হচ্ছে।

কোন কোন অভিভাবক নিজেরাই তাদের সন্তানদের উয়াবাকি সুন্দর করে নানান ভাবে সাজায়, এদিকে দোকানগুলোয় এখন এমন ধরনের উয়াবাকি বিক্রি হচ্ছে, যেগুলোতে জনপ্রিয় কার্টুন এবং মাঙ্গার চরিত্র আঁকা রয়েছে।

তোমার উয়াবাকিকে সুন্দর করে সাজাতে মা অনেক রাত পর্যন্ত জেগে ছিল। চোখে সুন্দর সুন্দর স্বপ্ন নেমে আসুক!

আমার এক বান্ধবী মধ্য রাত পর্যন্ত আলো জ্বালিয়ে তার সন্তানের উয়াবাকি সুন্দর করে সাজিয়ে দিয়েছে। যখন আমি তাকে প্রশ্ন করলাম কেন সে এত রাত জেগে এই কাজটি করল, সে বলল, “যখন আমার সন্তান জেগে উঠবে এবং তার উয়াবাকি দেখতে পাবে সে দৃশ্য দেখার জন্য আমার তর সইছিল না”।

কি দারুণ, এটা অসাধারণ, এমনকি তারা এখন প্রাথমিক বিদ্যালয়ের শিশুদের জন্য বানানো উয়াবাকি সাজিয়ে দিচ্ছে।

জাপানের পপ সংস্কৃতির এক জনপ্রিয় অনুষ্ঠান হচ্ছে ইয়োকাই ওয়াচ, উয়াবাকি নামক জুতাকে সজ্জিত করার সময় প্রায়শ যার বিষয়বস্তু ব্যবহার করা হয়:

আমার ছেলে আমাকে বলল যে তার স্কুলের উয়াবাকি জুতা সুন্দর করে এঁকে সাজিয়ে দিতে, কাজে আমি ঠিক করেছি, আমি তার জুতায় হুইসপারের ছবি আঁকব।

আমার কিন্ডারগার্টেনে পড়া ভাতিজি তার উয়াবাকি জুতা এঁকে দিতে বলেছে । 乁( ˙ ω˙乁)

কাজে এই বিষয়টি নিঃসন্দেহে অবশ্যম্ভাবী যে কিছু উয়াবাকি আঁকার জন্য কিছু সামগ্রী কিনতে পাওয়া যায়। :

আমি আমার ভাতিজির উয়াবাকি এঁকে দিয়েছি।

উয়াবাকিতে আঁকা ছবি দেখে আমার বাবামা শিশুদের মত মজা পেয়েছে:

আমি আমার মেয়ের বিদ্যালয়ের ভেতরে পড়ার জুতা সুন্দর করে এঁকে দিয়েছি। এটা একটা প্রাথমিক বিদ্যালয়, কাজে আমি খুব শাদামাটা করে এঁকেছি। কিন্তু আমি সেগুলোকে আরো সুন্দর করে সাজাতে চেয়েছিলাম।

আলোচনা শুরু করুন

লেখকেরা, অনুগ্রহ করে লগ ইন »

নীতিমালা

  • অনুগ্রহ করে অপরের মন্তব্যকে শ্রদ্ধা করুন. যেসব মন্তব্যে গালাগালি, ঘৃণা, অবিবেচনা প্রসূত ব্যক্তিগত আক্রমণ থাকবে সেগুলো প্রকাশের অনুমতি দেয়া হবে না .