বন্ধ করুন

আমাদের স্বেচ্ছাসেবক সম্প্রদায় কাজ করে যাচ্ছে বিশ্বের কোনা থেকে না বলা গল্পগুলো আপনাদের কাছে তুলে ধরতে। তবে আপনাদের সাহায্য ছাড়া আমরা তা পারব না। আমাদের সম্পাদনা, প্রযুক্তি এবং প্রচারণা দলগুলোকে সুষ্ঠুভাবে চলতে সহায়তার জন্যে আপনারা আপনাদের দানের অংশ থেকে কিছু গ্লোবাল ভয়েসেসকে দিতে পারেন।

সাহায্য করুন

উপরের ভাষাগুলো দেখছেন? আমরা গ্লোবাল ভয়েসেস এর গল্পগুলো অনুবাদ করেছি অনেক ভাষায় যাতে বিশ্বজুড়ে মানুষ এগুলো সহজে পড়তে পারে।

আরও জানুন লিঙ্গুয়া অনুবাদ  »

পোপের “ক্ষমা ও অনুকম্পা” ভ্রমণকে সামনে রেখে ফিলিপাইনে ক্ষুদ্র বিক্রেতাদের দোকান উচ্ছেদ

Street vendors are asking the Catholic Church to stop the government from evicting them in Luneta Park.

রাস্তার পাশের দোকানদারের ক্যাথলিক চার্চের প্রতি আহ্বান জানাচ্ছে যেন লুনেতা পার্ক থেকে তাদের উচ্ছেদ বন্ধে তারা সরকারকে অনুরোধ করে। ছবি ক্যাথি ইমাজোন-এর ফেসবুক পাতা থেকে নেওয়া হয়েছে।

পোপ ফ্রান্সিসের ফিলিপাইন আগমন উপলক্ষে কয়েক দিন আগে থেকে দেশটির প্রধান স্বাধীন উদ্যান ম্যানিলার লুনেতা পার্কে অবস্থিত ক্ষুদ্র বিক্রেতাদের দোকান উচ্ছেদ অভিযান শুরু হয়।

রোমান ক্যাথলিক চার্চের প্রধান পোপ ১৫ থেকে ১৯ জানুয়ারি ফিলিপাইন পরিদর্শন করবেন। আশা করা হচ্ছে যে তার এই ভ্রমণ ফিলিপাইনের রাজধানী ম্যানিলায় লক্ষ লক্ষ নাগরিকের মনোযোগ আকর্ষণ করবে, যে দেশটি এশিয়ার সর্ববৃহৎ ক্যাথলিক অধ্যুষিত রাষ্ট্র।

লুনেতা পার্কে প্রায় ৩৫০ জন ক্ষুদ্র বিক্রেতা বসে, যাদের অনেকে ১০ বছরের বেশী সময় ধরে এই পার্কে বসে। রাস্তার ধারের এই বেশীর ভাগ দোকানদার খাবার এবং পানীয় বিক্রি করে।

আগামী সপ্তাহে হতে যাওয়া পোপের পরিদর্শনের প্রস্তুতি হিসেবে এই সমস্ত বিক্রেতাদের লুনেতা পার্ক খালি করে দিতে বলা হয়। জাতীয় উদ্যান উন্নয়ন কমিটি দাবী করেছে যে পোপের আগমনের ফলে তার নিরাপত্তার কারণে পুলিশ এবং রাষ্ট্রপতি প্রাসাদ থেকে এই নির্দেশ প্রদান করা হয়েছে

ক্ষুদ্র এই সকল বিক্রেতারা উচ্ছেদ নোটিশের বিরুদ্ধে প্রতিবাদ জানায় এবং তারা নিশ্চিত করে যে পোপের নিরাপত্তায় তারা কোন হুমকি নয়:

আমরা পোপকে ভালবাসি। আমরা তার ক্ষতি করব না। আমরা সন্ত্রাসী নই।

Luneta vendors hold protest in front of the office of the National Parks Development Committee. Photo from Facebook page of Kathy Yamzon.

জাতীয় উদ্যান উন্নয়ন কর্তৃপক্ষের অফিসের সামনে ক্ষুদ্র বিক্রেতারা বিক্ষোভ করছে। ছবি ক্যাথি ইমাজোন-এর ফেসবুক পাতা থেকে নেওয়া হয়েছে।

সুন্দরভাবে জীবিকা অর্জন আন্দোলন ( কিলুসান পারা সা ডিসেনটাং কাবুহায়ান)-এর মুখপাত্র গ্যারি সুয়েরা গরীব নাগরিকদের জীবিকার উপায় ধ্বংস করার ক্ষেত্রে পোপের নাম ব্যবহার করায় কর্তৃপক্ষের সমালোচনা করেছে:

সাধারণ মানুষের প্রতি ভালবাসার কারণে পোপ ফ্রান্সিস অতি পরিচিত এবং তিনি আত্মমর্যাদাশীল মানুষ এবং সুবিধা বঞ্চিতদের অধিকার না প্রদানের এক সমালোচক, কিন্তু এখন জীবিকা অর্জনের স্থান থেকে গরীবদের অপসারণের ক্ষেত্রে তার নাম ব্যবহার করা হচ্ছে।

একই সাথে গ্যারি সুয়েরা উদ্যানের বিক্রেতার অধিকার রক্ষায় তাদের, পোপের এই পরিদর্শনের যে বিষয় সেই “ক্ষমা এবং অনুকম্পার” প্রদর্শনের আহ্বান জানিয়েছে:

আমরা জানি যে পোপ চান না, এমন ঘটনা ঘটুক। তার এই পরিদর্শনের বিষয় হচ্ছে “ ক্ষমা এবং অনুকম্পা” প্রদর্শন। স্থানীয় সরকার অফিস থেকে যা করা হচ্ছে সেখানে ক্ষমা এবং অনুকম্পা কোথায়?

Luneta vendors hold a placard which reads: "Vendors not a threat to the life of our dear pope." Photo from Facebook page of Tanggol Kabuhayan (Defend Jobs)

লুনেতা পার্কের বিক্রেতারা একটি প্লাকার্ড ধরে আছে যেখানে লেখা আছে “ ক্ষুদ্র ব্যবসায়ীরা আমাদের প্রিয় পোপের জীবনের জন্য হুমকি নয়”। ছবি তানগাগোল কাবুহায়ান (কাজ বাঁচাও)–এর ফেসবুকের পাতা থেকে নেওয়া হয়েছে।

কয়েকজন ক্ষুদ্র ব্যবসায়ী প্রশ্ন তুলেছে তাদের বদলে সেখানে বাণিজ্যিক খাবারের দোকান বসানো হবে কিনা। তারা খেয়াল করেছে যে ক্যাথলিক চার্চ কর্তৃক প্রিন্ট করা এক তেরপালের স্পনসর হচ্ছে ম্যাকডোনাল্ড, প্রাক্তন সংসদ টেডি কাসিনো প্রশ্ন করছে পার্কে ম্যাকডোনাল্ডের কিওস্ক বা পয়সা দিয়ে নিজের খাবার নিজে সংগ্রহ করার দোকান বসানোর অনুমতি প্রদান করা হবে কিনা।:

পোপ ফ্রান্সিসের আগমন উপলক্ষে লুনেতা পার্কে গণ জামায়েতের সময় রাস্তায় খাবারের দোকান বসানো নিষিদ্ধ কিন্তু ম্যাকডোনাল্ডের কিওস্ক কি নিষিদ্ধ নয়?

ক্ষুদ্র এই সব দোকানিরা উদ্বিগ্ন যে পোপের আগমনের সময় তারা তাদের জীবিকার উপায় হারিয়ে ফেলবে। অনেকে একই সাথে এই কারণেও উদ্বিগ্ন যে এখানে দোকান খালি করে দেওয়ার এই আদেশ হয়ত স্থায়ী ভাবে প্রয়োগ করা হতে পারে, বিশেষ করে যেখানে ইতোমধ্যে কর্তৃপক্ষ অনেক বছর আগে থেকে তা করার চেষ্টা করে আসছে।

ক্যাথলিক চার্চের কর্মকর্তারা ইতোমধ্যে এই সব ক্ষুদ্র ব্যবসায়ীদের দরখাস্ত সম্পর্কে জ্ঞাত হয়েছে, কিন্তু তারা বলছে যে স্থানীয় সরকারকে এই সমস্যা সমাধানে এগিয়ে আসতে হবে।

আলোচনা শুরু করুন

লেখকেরা, অনুগ্রহ করে লগ ইন »

নীতিমালা

  • অনুগ্রহ করে অপরের মন্তব্যকে শ্রদ্ধা করুন. যেসব মন্তব্যে গালাগালি, ঘৃণা, অবিবেচনা প্রসূত ব্যক্তিগত আক্রমণ থাকবে সেগুলো প্রকাশের অনুমতি দেয়া হবে না .