বন্ধ করুন

আমাদের স্বেচ্ছাসেবক সম্প্রদায় কাজ করে যাচ্ছে বিশ্বের কোনা থেকে না বলা গল্পগুলো আপনাদের কাছে তুলে ধরতে। তবে আপনাদের সাহায্য ছাড়া আমরা তা পারব না। আমাদের সম্পাদনা, প্রযুক্তি এবং প্রচারণা দলগুলোকে সুষ্ঠুভাবে চলতে সহায়তার জন্যে আপনারা আপনাদের দানের অংশ থেকে কিছু গ্লোবাল ভয়েসেসকে দিতে পারেন।

সাহায্য করুন

উপরের ভাষাগুলো দেখছেন? আমরা গ্লোবাল ভয়েসেস এর গল্পগুলো অনুবাদ করেছি অনেক ভাষায় যাতে বিশ্বজুড়ে মানুষ এগুলো সহজে পড়তে পারে।

আরও জানুন লিঙ্গুয়া অনুবাদ  »

দক্ষিণ-পশ্চিম মেক্সিকোতে পাওয়া মৃতদেহ নিখোঁজ আয়তজিনাপা শিক্ষার্থীদের নয়

Portraits of missing Mexican students with carnations in a symbolic act in front of the Mexican Embassy in Bogota, Colombia on Nov. 7. Photo from Agencia Prensa Rural's Flickr account. CC BY-NC-ND 2.0

কলম্বিয়ার বোগটাতে অবস্থিত মেক্সিকান দূতাবাসের সামনে ৭ নভেম্বর তারিখে নিখোঁজ মেক্সিকান শিক্ষার্থীদের প্রতিকৃতিতে কার্নেশন ফুল দিয়ে শ্রদ্ধাঞ্জলি। ছবি সূত্র এজেন্সিয়া প্রেনসা রুরাল এর ফ্লিকর একাউন্ট। 

এ মামলা নিয়ে কাজ করা আর্জেন্টাইন ফরেনসিক বিশেষজ্ঞ ঘোষণা দিয়েছেন যে মেক্সিকোর গুয়েরেরো রাজ্যে সেরো ভিয়েজো, লা পারোটা এবং কোকুলা এলাকার বিভিন্ন আবর্জনার স্তূপে খুঁজে পাওয়া দেহাবশেষগুলো আয়তজিনাপার রাউল ইসিদ্রো বুরজোস রুরাল টিচারস কলেজের নিখোঁজ হওয়া ৪৩ জন শিক্ষার্থীদের কারও নয়। 

সংবাদ প্রচার মাধ্যম টেলিসুর মেক্সিকো এ বিষয়ে একটি বিশেষ রিপোর্ট সম্প্রচার করেছেঃ

ভিডিওঃ আর্জেন্টাইন ফরেনসিক বিশেষজ্ঞঃ খুঁজে পাওয়া দেহাবশেষগুলো আয়তজিনাপার শিক্ষার্থীদের নয়। #আয়তজিনাপাসোমোসটোডোস

এ ঘটনার শিকার পরিবারগুলোর অনুরোধে অক্টোবর মাসের প্রথম সপ্তাহ থেকে আর্জেন্টাইন ফরেনসিক নৃতত্ত্ববিদদের একটি দল (স্প্যানীশ ভাষায় ইএএএফ) মেক্সিকোর দক্ষিণে ইগুয়ালা এবং কোকুলা পৌরসভায় অবস্থিত অবৈধ গণকবরগুলো নিয়ে তদন্ত করছেন। ইগুয়ালার পুলিশ বাহিনী এবং গুয়েরেরোস ইউনিডোস সন্ত্রাসী দলের মাঝে সহিংসতায় গত ২৬ সেপ্টেম্বর তারিখে সেখানে ৬ জন নিহত, ২৫ জন আহত হয়েছেন এবং ৪৩ জন এখনও নিখোঁজ রয়েছেন।

ইএএএফ তাদের তদন্তের ফলাফল ঘোষণা করতে একটি সংবাদ সম্মেলনে জোর দিয়ে বলেছেনঃ

Cabe señalar que sobre la totalidad de restos recuperados en este sitio, 28 de ellos fueron recuperados inicialmente por la PGJ (Fiscalía General) de Guerrero de cinco fosas y los dos restantes por la PGR (Procuraduría General de la República) de una sexta fosa

এখানে উল্লেখ করা অত্যন্ত জরুরি যে সর্বমোট খুঁজে পাওয়া মৃতদেহের সংখ্যার মধ্যে প্রাথমিকভাবে ২৮ টি মৃতদেহ গুয়েরেরোর পিজিজে (জেলা এটর্নির দপ্তর) দপ্তরের খুঁজে বের করা পাঁচটি কবর থেকে এবং বাকি দুইটি মৃতদেহ পিজিআর দপ্তরের (এটর্নি জেনারেলের দপ্তর) খুঁজে বের করা ষষ্ঠ কবর থেকে পাওয়া গেছে।

মেক্সিকোর এটর্নি জেনারেল জেসাস মুরিলো কারামের মতে, শিক্ষার্থীদের হত্যা করা হয়েছে। তাদের মৃতদেহগুলো পুড়িয়ে ফেলা হয়েছে। আর পুড়িয়ে ফেলার পর ছাইগুলো কোকুলা শহরের আবর্জনার স্তূপের খুব কাছে সান জুয়ান নদীতে ফেলে দেয়া হয়েছে।

নিখোঁজ হওয়ার দিনে আয়তজিনাপার শিক্ষার্থীরা তাদের বিভিন্ন কার্যক্রমের জন্য তহবিল গঠন করতে অর্থ সংগ্রহ করতে যাচ্ছিল। স্প্যানিশ জার্নাল এল পাইসের মতে, তহবিলের জন্য অর্থ সংগ্রহ করতে কেন্দ্রীয় মহাসড়কগুলোতে, কিছু কিছু দোকানে ঢুকে, এমনকি একটি প্রধান সড়কের কোনাকুনি পথ ধরে হেঁটে তারা অর্থ সাহায্য চেয়েছে। গত বছরের জুন মাসে গ্রামীণ নেতা আরতুরো কারদোনাকে অত্যাচার এবং হত্যার জন্য শিক্ষার্থীরা ইগুয়ালার মেয়র জোসে লুইস আবারকা ভেলাজকুয়েজকে দোষী সাব্যস্ত করে এবং তারা নগর কাউন্সিল বিল্ডিং আক্রমণ করে।

শিক্ষার্থীদের বিরুদ্ধে সহিংস আচরনের আদেশ দেয়ার অপরাধে কর্তৃপক্ষ আবারকা এবং তাঁর স্ত্রী মারিয়া ডি লো এঞ্জেলেস পিনেদাকে চিহ্নিত করে এবং ৪ নভেম্বর তারিখে তাদের গ্রেপ্তার করা হয়।

এত কিছুর পরেও শিক্ষার্থীরা নিখোঁজ রয়েছে। টেটোস্কি তেমনটাই টুইট করেছেনঃ 

আর্জেন্টাইন ফরেনসিক বিশেষজ্ঞ বলছেন, আবর্জনার স্তূপে খুঁজে পাওয়া দেহাবশেষগুলো #আয়তজিনাপা শিক্ষার্থীদের নয়… তবে সেই #৪৩ জন কোথায় আছেন?

তবে এতে নতুন করে বেশ কিছু প্রশ্ন উঠেছে। মেক্সিকো সিটি থেকে টেপিটো আরটে আকা নামক একটি থিয়েটার কোম্পানি টুইটারে প্রশ্ন করেছেঃ

ফরেনসিক দলটি উল্লেখ করেছে, গন কবরে খুঁজে পাওয়া দেহাবশেষগুলো শিক্ষার্থীদের নয়… তবে মৃতদেহগুলো কাদের?

গন কবরগুলো খুঁজে পাওয়ায় মেক্সিকান জনগণের মনের ব্যথা কেবল বেড়েছেইঃ 

একটি ফরেনসিক কাজের জন্য আমার গুয়েরেরোর মাটি খনন করা হচ্ছে। এই পরিস্থিতি অত্যন্ত বেদনাদায়ক। আয়তজিনাপা বিশ্ববিদ্যালয়টি যেখানে অবস্থিত, সেই টিক্সটলাতে আমি বসবাস করি। 

ইএএএফ তাদের বিবৃতিতে ব্যাখ্যা করেছে, মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের বোড টেকনোলজি গ্রুপ এই দেহাবশেষগুলোর জীনগত পরীক্ষা সম্পন্ন করেছে। মেক্সিকান জেনারেল এটর্নির দপ্তর থেকে গভীর সরু উপত্যকা এবং কোকুলা নদীতে আবিষ্কৃত একটি গন কবর থেকে খুঁজে পাওয়া মৃতদেহের ভিন্ন আরেকটি সেট অস্ট্রিয়ার ইনসব্রাক বিশ্ববিদ্যালয়ে সনাক্তকরণের জন্য পাঠানো হবে। 

মেক্সিকোর হারিয়ে #আয়তজিনাপা শিক্ষার্থীদের ফিরিয়ে আনুনঃ হ্যাশট্যাগটিতে আমাদের বিস্তারিত কভারেজ দেখুন। 

আলোচনা শুরু করুন

লেখকেরা, অনুগ্রহ করে লগ ইন »

নীতিমালা

  • অনুগ্রহ করে অপরের মন্তব্যকে শ্রদ্ধা করুন. যেসব মন্তব্যে গালাগালি, ঘৃণা, অবিবেচনা প্রসূত ব্যক্তিগত আক্রমণ থাকবে সেগুলো প্রকাশের অনুমতি দেয়া হবে না .