বন্ধ করুন

আমাদের স্বেচ্ছাসেবক সম্প্রদায় কাজ করে যাচ্ছে বিশ্বের কোনা থেকে না বলা গল্পগুলো আপনাদের কাছে তুলে ধরতে। তবে আপনাদের সাহায্য ছাড়া আমরা তা পারব না। আমাদের সম্পাদনা, প্রযুক্তি এবং প্রচারণা দলগুলোকে সুষ্ঠুভাবে চলতে সহায়তার জন্যে আপনারা আপনাদের দানের অংশ থেকে কিছু গ্লোবাল ভয়েসেসকে দিতে পারেন।

সাহায্য করুন

উপরের ভাষাগুলো দেখছেন? আমরা গ্লোবাল ভয়েসেস এর গল্পগুলো অনুবাদ করেছি অনেক ভাষায় যাতে বিশ্বজুড়ে মানুষ এগুলো সহজে পড়তে পারে।

আরও জানুন লিঙ্গুয়া অনুবাদ  »

সারাইয়াকুতে কমিউনিটি সিনেমার মাধ্যমে “লিভিং ফরেস্ট” প্রদর্শন করা

রাইজিং ভয়েসেস-এর আমাজোনিয়া অনুদানের তাজা সংবাদ

Compañerismo intercultural. Foto usada con autorización.

আন্তসংস্কৃতি সাহচার্য। ছবি প্রকল্প থেকে গ্রহণ করা হয়েছে এবং অনুমতিক্রমে ব্যবহার করা হয়েছে

সারাইয়াকুর কিচোয়া আদিবাসী সম্প্রদায়ের মাঝে ১৩-১৫ নভেম্বর ২০১৪ তারিখে কমিউনিটি সিনেমা নামক কর্মশালার আয়োজন করা হয়। সারাইয়াকুর যোগাযোগকারী দলের সাথে মিলে এল চুরো কালেকটিভ-এই কর্মশালার আয়োজন করে, যে সংগঠন কুইটো শহরে অবস্থিত।

এক যোগাযোগ প্রক্রিয়া তৈরীর জন্য এই কর্মশালা, ছাত্র,নেতা, সম্প্রদায়ের বাসিন্দা এবং অন্য সম্প্রদায়ের অতিথি, যাদের শেকড় ওই সকল সম্প্রদায়ের তাদের উদ্বেগ,এবং চ্যালেঞ্জকে উদ্দেশ্য করে তৈরী করা হয়েছে।

Raúl y Andrea en el rodaje. Foto usada con autorización.

চলচ্চিত্র ধারণ করার সময় রাউল এবং আন্দ্রেয়া। ছবি প্রকল্প থেকে নেওয়া হয়েছে এবং অনুমতিক্রমে ব্যবহার করা হয়েছে।

এই কর্মশালার আয়োজকেরা (ফ্যাসিলেটর) ছিলেন ডিয়ানা কোরিয়াট (যুক্তরাষ্ট্র) আন্দ্রেয়া কোনট্রেরাস (মেক্সিকো) এবং রবার্টো শ্যাভেজ (ইকুয়েডোর)। সারাইয়াকু উচ্চ মাধ্যমকি শিক্ষা বিভাগের চূড়ান্ত বর্ষের ছাত্র, তাইজাসুরাতা, ডোমিঙ্গো, ভেরোনিকা, বিভিন্ন সম্প্রদায়ের নেতা, এবং “ক্যামেরা সুয়ার” প্রকল্পের রাউল আনুকুয়াশ ও মোরোনা সান্তিয়াগো প্রদেশের যোগাযোগ ভিত্তিক এলাকা থেকে সূয়ার আদিবাসী সম্প্রদায়, আর যথারীতি যৌথ ভাবে লা রেসিসটেনসিয়া ইকুয়েডোর-এর যে সমস্ত এলাকা যোগাযোগ ভিত্তিক কাজে যুক্ত সে সকল এলাকার প্রতিনিধি এতে যোগ দেয়।

Diana Coryat, facilitadora. Foto usada con autorización.

ডিয়ানা কোরইয়াট, সঞ্চালক। ছবি প্রকল্প থেকে নেওয়া এবং অনুমতিক্রমে ব্যবহার করা হয়েছে।

সাংস্কৃতিক পরিচয়, প্রবাদ প্রতীম ব্যক্তিদের আবার সবার সামনে তুলে আনা, এব কাওসাক সাচা (জীবন্ত বন/লিভিং ফরেস্ট) এবং সুমাক আয়াপা (উর্বর পৃথিবী/ফার্টাইল ল্যান্ড)–এর মত শব্দের অনুবাদ কি ধরনের হবে সে বিষয়ে ধারণা প্রদান করার জন্য স্বল্পদৈর্ঘ্য চলচ্চিত্রের প্রি-প্রডাকশান এবং প্রডাকশান-এর প্রতি মনোযোগ প্রদান করেছিল।

আব্রাহাম গুয়ালিঙ্গা ( তাইজাসারুতার ভাইস প্রেসিডেন্ট) আমাদের বলেন:

[El taller] Es una importante capacitación con elementos jóvenes de la comunidad donde tenemos la oportunidad de difundir nuestra lucha y la defensa de los recursos naturales donde se desarrolla nuestra vida. También es importante difundir los derechos humanos de los pueblos originarios no solo a nivel latinoamericano, sino también a nivel mundial.

[এই কর্মশালা] সম্প্রদায়ের তরুণদের জন্য এক গুরুত্বপূর্ণ প্রশিক্ষণ, যেখানে আমরা আমাদের জীবন প্রকাশিত সেই প্রাকৃতিক সম্পদ নিয়ে আমাদের সংগ্রাম এবং তা রক্ষার কাহিনী তুলে ধরতে পারব। একই সাথে শুধু ল্যাটিন আমেরিকা নয়, সারা বিশ্বের আদিবাসী নাগরিকদের মানবাধিকার প্রচার করাও গুরুত্বপূর্ণ।

তিনি এর সাথে যোগ করেছেন:

El Kawsak Sacha es el espacio donde se desarrolla respetuosamente el equilibrio con la naturaleza, donde tenemos todo tipo de ecosistemas, sin contaminación, donde todo tiene vida y cada ser tiene su dueño. Defender los lugares sagrados es nuestra herencia para las futuras generaciones para que sean ellos quienes continúen valorando la existencia con una forma propia de vida, cultura y tradiciones.

কাওসাক সাচা হচ্ছে ভারসাম্যপূর্ণ ভাবে প্রকৃতিকে শ্রদ্ধার মাধ্যমে উন্নয়ন ঘটানোর স্থান, যেখানে সকল প্রকার প্রতিবেশ ব্যবস্থা বিদ্যমান, সাথে মানবগোষ্ঠীর বাস, যেখানে সকল কিছু জীবন্ত এবং প্রত্যেকে নিজ সত্তার মালিক। ভবিষ্যৎ প্রজন্মের জন্য এই পবিত্র ভূমি রক্ষা করা আমাদের উত্তর দায়িত্ব যার মধ্যে দিয়ে তারা হবে সেই একজন যারা সবসময় তাদের নিজেদের জীবন, সংস্কৃতি ও ঐতিহ্যে টিকিয়ে রাখার বিষয়কে মূল্যায়ন করবে।

Niños interesados en el taller. Foto usada con autorización.


সারাইয়াকুর শিশুরা এই কর্মশালার প্রতি আগ্রহী। ছবি প্রকল্প থেকে নেওয়া হয়েছে এবং অনুমতিক্রমে ব্যবহার করা হয়েছে।

যোগাযোগ আমাদের অধিকার এবং নাগরিকদের মাঝে আমাদের সংগ্রামের কাহিনী তুলে ধরা দরকার, যাতে আমরা সত্যিকার এক গঠনমূলক প্রেক্ষাপটে এবং বহুজাতিক এক রাষ্ট্রে এই সব কাহিনী তুলে ধরতে পারি।

আলোচনা শুরু করুন

লেখকেরা, অনুগ্রহ করে লগ ইন »

নীতিমালা

  • অনুগ্রহ করে অপরের মন্তব্যকে শ্রদ্ধা করুন. যেসব মন্তব্যে গালাগালি, ঘৃণা, অবিবেচনা প্রসূত ব্যক্তিগত আক্রমণ থাকবে সেগুলো প্রকাশের অনুমতি দেয়া হবে না .