বন্ধ করুন

আমাদের স্বেচ্ছাসেবক সম্প্রদায় কাজ করে যাচ্ছে বিশ্বের কোনা থেকে না বলা গল্পগুলো আপনাদের কাছে তুলে ধরতে। তবে আপনাদের সাহায্য ছাড়া আমরা তা পারব না। আমাদের সম্পাদনা, প্রযুক্তি এবং প্রচারণা দলগুলোকে সুষ্ঠুভাবে চলতে সহায়তার জন্যে আপনারা আপনাদের দানের অংশ থেকে কিছু গ্লোবাল ভয়েসেসকে দিতে পারেন।

সাহায্য করুন

উপরের ভাষাগুলো দেখছেন? আমরা গ্লোবাল ভয়েসেস এর গল্পগুলো অনুবাদ করেছি অনেক ভাষায় যাতে বিশ্বজুড়ে মানুষ এগুলো সহজে পড়তে পারে।

আরও জানুন লিঙ্গুয়া অনুবাদ  »

হন্ডুরাস সুন্দরী ও তার বোনের হত্যা হন্ডুরাসকে পুরুষত্বের দ্বারা নির্যাতন-এর আতঙ্কজনক বিষয়টি স্মরণ করিয়ে দিচ্ছে

Imagen ampliamente difundida en Twitter.

ছবি ব্যাপকভাবে টুইটারে প্রদর্শিত হয়েছে।

যেদিন মিস ওয়ার্ল্ড ২০১৪ বিশ্ব সুন্দরী প্রতিযোগিতায় হন্ডুরাসের হয়ে অংশগ্রহণের জন্য মারিয়া হোসে আলভারাদো মুনেজ-এর লন্ডন যাওয়ার কথা, সেদিন সে আর তার বোন সোফিয়া ত্রিনিদাদ–এর মৃতদেহ পাওয়া গেল দেশটির দক্ষিণে আগুয়াগুয়া নদীর নিকটবর্তী কবলোটালেস-এর কাছে।

এই ঘটনার ছয়দিন আগে বৃহস্পতিবার, ১৩ নভেম্বর তারিখ থেকে তাদের আর খোঁজ পাওয়া যাচ্ছিল না, সেদিন সোফিয়া ত্রিনিদাদের ছেলেবন্ধু প্লুটাকো আন্টোনিও রুইজ-এর জন্মদিন উদযাপনের পর থেকে তারা নিখোঁজ ছিল। উক্ত রুইজকে এই দুই খুনের অপরাধে অভিযুক্ত করা হয়েছে।

টেগুসিগালপা ভিত্তিক রেডিও আমেরিকাকে অপরাধ তদন্ত বিভাগের প্রধান লিওনার্দো ওসারিয় জানান “আমরা এই বিষয়টি নিশ্চিত যে মৃতদেহ দুটি ওই দুই বোনের যেগুলো সান্তা বারবারা এলাকার কাছে কাবলোটালেস শহরের নিকটবর্তী এক এলাকায় পুতে রাখা হয়েছিল”। তিনি এর সাথে আরো যোগ করেন, কয়েকদিন ধরে পুতে রাখার ফলে মৃতদেহ দুটিতে পচন ধরেছিল।

রুইজ ছাড়াও, পুলিস আরিস ভ্যালেন্টিনো মালদোনাদো মাজিয়া নামের এক ব্যক্তিকে আটক করেছে। তবে কর্মকর্তারা মনে করেন যে এই ঘটনায় আরো অনেকে যুক্ত রয়েছে। স্থানীয় মিডিয়া সংবাদ প্রদান করেছে যে রুইজ এবং সোফিয়া ত্রিনিদাদের মাঝে এক ঝগড়া এই খুনের ঘটনায় রূপ নেয়।

ওসারিও বলছে মৃতদেহ দুটি যেখানে পাওয়া গেছে পুলিশকে রুইজই সেখানে নিয়ে গিয়েছিল। তিনি আরো জানান খুনের এই ঘটনায় ব্যবহৃত অস্ত্রটি জব্দ করা হয়েছে এবং দেহ দুটিকে এখানে নিয়ে আসার জন্য সম্ভাব্য যে বাহনটি ব্যবহার করা হয়েছিল তাও বাজেয়াপ্ত করা হয়েছে।

মিস ওয়ার্ল্ড সংগঠনের পক্ষ থেকে এর সভানেত্রী জলিয়া মোরলেই এই সংবাদের প্রতিক্রিয়া একটি বিবৃতি জারি করেছেন:

আজ সকলে হন্ডুরাস থেকে পাওয়া যে সংবাদে বিশ্বের যে সমস্ত নাগরিকদের সবাই আপ্লুত হয়েছেন তাদের সবাইকে।
এই দুই তরুণীর আকাল মৃত্যুতে আমরা সবাই শোকার্ত, যারা ছিল প্রাণ চঞ্চল। শোকের এই সময় মারিয়া হোজে আলভারাদো এবং সোফিয়া ত্রিনিদাদের পরিবার এবং বন্ধুদের প্রতি রইল আমাদের সমবেদনা এবং প্রার্থনা।
সারা বিশ্বের মিস ওয়ার্ল্ড পরিবার থেকে আমারা সান্ত্বনা এবং সমর্থনের বার্তা লাভ করেছি, যারা এমন এক বেদনাদায়ক ঘটনায় আমাদের শোক প্রদর্শন করেছে।
রোববারে অনুষ্ঠিত হতে যাওয়া মিস ওয়ার্ল্ড প্রতিযোগিতায় আমরা এক বিশেষ অনুষ্ঠানের আয়োজন করব, যেখানে মারিয়া হোজে আলভারাদো এবং সোফিয়া ত্রিনিদাদের প্রতি শ্রদ্ধা প্রদর্শন এবং তাদের ও তাদের পরিবারের জন প্রার্থনা করব।

- ভালবাসার সাথে জুলিয়া মোরলে, চেয়ারম্যান, মিস ওয়ার্ল্ড সুন্দরী প্রতিযোগিতা।

মুভইমইয়েন্তো দে পাজ ভিজিতাকসিওন পাদিলা নামক মানবাধিকার সংগঠনের সমন্বয়ক মেরলি এগুইগুরে মন্তব্য করেছেন যে অনেক সময় নারীটি যদি আরো উন্নতির শিখরে এগিয়ে যায় তাহলে পুরুষটি মনে করে সে তার ছায়ায় ঢাকা পড়ে যাচ্ছে এবং তিনি দাবি করেন যে হন্ডুরাসে খুন হওয়া ৯০ শতাংশ নারীর খুনিরা কোন শাস্তি পায় না।

টুইটারে, ব্যবহারকারীরা এই অপরাধের ঘটনায় তাদের শোক প্রকাশ করেছে এবং ছবি ও তথ্য পোস্ট করেছে :

মারিয়া হোসে আলভারাদো (১৯৯৫- ২০১৪)
এখন থেকে হন্ডুরাস আপনার চোখ দুটিকে আর দেখতে পাবে না।.

শান্তিতে বিশ্রাম নিন মারিয়া হোজে আলভারদো, মিস হন্ডুরাস ২০১৪। ঈশ্বর হন্ডুরাসকে রক্ষা করুন এবং সকল ধরনের শয়তানের হাত থেকে আমাদের উদ্ধার করুন!

মারিয়া হোজে এবং সোফিয়া আলভারাদো-এর ক্ষেত্রে যে বিয়োগান্তক ঘটনা ঘটেছে তার প্রতি আমাদের অবশ্যই প্রতিক্রিয়া প্রদর্শন করা উচিত। নির্যাতনের যে চেহারা তার সম্মুখে আর নীরব থাকা নয়। শান্তিতে হাঁ বলি।

একজন ব্যবহারকারী সকল ধরনের সৌন্দর্য্য প্রতিযোগিতার ইতি টানতে চেয়ে টুইট করেছে :

মিস হন্ডুরাসের মৃত্যুতে যে অপূরণীয় ক্ষতি হয়ে গেল হন্ডুরাস তার জন্য শোকার্ত
এখন বিষয়টিতে আসা যাক, সুন্দরী প্রতিযোগিতাকে চিরদিনের মত বন্ধ করে দেওয়া উচিত। বিশ্ব জুড়ে এটা একটা লজ্জাকর বিষয়।

হন্ডুরাসের স্বায়ত্ত্বশাসিত জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের নির্যাতন পর্যবেক্ষণ কেন্দ্রে ডাটা অনুসারে ২০১৩ সালে প্রতি ১০০,০০০ বাসিন্দার মধ্যে ১৪.৬ জন নারী খুন হয়েছে। নির্মমভাবে নারী খুনের ঘটনায় হন্ডুরাস বিশ্বে শীর্ষস্থানীয়।

আলোচনা শুরু করুন

লেখকেরা, অনুগ্রহ করে লগ ইন »

নীতিমালা

  • অনুগ্রহ করে অপরের মন্তব্যকে শ্রদ্ধা করুন. যেসব মন্তব্যে গালাগালি, ঘৃণা, অবিবেচনা প্রসূত ব্যক্তিগত আক্রমণ থাকবে সেগুলো প্রকাশের অনুমতি দেয়া হবে না .