বন্ধ করুন

আমাদের স্বেচ্ছাসেবক সম্প্রদায় কাজ করে যাচ্ছে বিশ্বের কোনা থেকে না বলা গল্পগুলো আপনাদের কাছে তুলে ধরতে। তবে আপনাদের সাহায্য ছাড়া আমরা তা পারব না। আমাদের সম্পাদনা, প্রযুক্তি এবং প্রচারণা দলগুলোকে সুষ্ঠুভাবে চলতে সহায়তার জন্যে আপনারা আপনাদের দানের অংশ থেকে কিছু গ্লোবাল ভয়েসেসকে দিতে পারেন।

সাহায্য করুন

উপরের ভাষাগুলো দেখছেন? আমরা গ্লোবাল ভয়েসেস এর গল্পগুলো অনুবাদ করেছি অনেক ভাষায় যাতে বিশ্বজুড়ে মানুষ এগুলো সহজে পড়তে পারে।

আরও জানুন লিঙ্গুয়া অনুবাদ  »

অ্যামাজনের পরিবেশগত হুমকি মোকাবিলার জন্য এবার উড়বে ড্রোন

চিরহরিৎ বিমানবাহিনী: আদিবাসীরা তাদের জমি রক্ষা করতে ড্রোন উড়িয়েছেনভিমিওতে জর্জি তুশেভের কাছে থেকে পাওয়া।    

২০১৪ সালের আগস্ট মাসে তুশেভ অ্যরিয়েল গ্রুপ দ্বারা পরিচালিত একটি প্রশিক্ষণ কর্মসূচী অনুষ্ঠিত হয়। সেই প্রশিক্ষণে পেরুর লরেটো ও মাদ্রি ডি অঞ্চলের আদিবাসী নেতারা আবিষ্কার করেন, রেনফরেস্টে পরিবেশগত হুমকি পর্যবেক্ষণে ড্রোন বিশেষ ভূমিকা পালন করতে পারে। 

কর্মশালাটি মারানন নদীর তীরে অবস্থিত সারামুরো সম্প্রদায়ে অনুষ্ঠিত হয় এবং পানামার ইমবেরা-অউনান সম্প্রদায়ের সদস্য সহ বিভিন্ন অ্যামাজোনিয়ান সম্প্রদায়ের ১৫ জন অংশগ্রহণকারী তাতে অংশ নেন। অংশগ্রহণকারীরা ফ্লাইট সিমুলেটর ব্যবহার পদ্ধতি এবং স্বনির্দেশকারী বৈশিষ্ট্য ব্যবহার করে উড্ডয়ন করার পরিকল্পনার জন্য কিভাবে সফটওয়্যার ব্যবহার করতে হয় তা শিখেছেন। এছাড়াও তথ্য মূল্যায়নের প্রক্রিয়া এবং ড্রোন দ্বারা সংগৃহীত ছবি থেকে কিভাবে মানচিত্র তৈরি করতে হয় তাঁর উপরও ছিল বিশেষ সেশন।  

পেরুর জঙ্গল উন্নয়নে আন্ত: জাতিগত এসোসিয়েশন এই ভিডিওটি নির্মাণ করেছে, যেটি কর্মশালার অন্যতম একটি আয়োজকও ছিল। সম্প্রদায়ের সদস্যরা বলছেন, ড্রোনের মাধ্যমে বেআইনি কাঠ কাটা এবং খনির উত্তোলন ও সেইসাথে ডকুমেন্টেশন মাধ্যমে জমি অধিগ্রহণের মতো সম্ভাব্য হুমকি আরো দক্ষতা এবং দ্রুততার সাথে পর্যবেক্ষণ করা সম্ভব হবে।

প্রাথমিক কর্মশালা শেষ হলে, ২০১৫ সালের শুরুর দিকে পানামায় একটি ফলো আপ সেশনের পরিকল্পনা করা হয়েছে। এই সেশনে তাদের উড়ন্ত দক্ষতা বৃদ্ধিতে এবং সংগৃহীত তথ্য কিভাবে আরও ভালভাবে পর্যবেক্ষণ করা যায় সে বিষয়ে আরো সময় দেওয়া হবে।   

থাম্বনেল ছবিটি ভিডিও থেকে নেওয়া একটি স্ক্রিনশট।  

আলোচনা শুরু করুন

লেখকেরা, অনুগ্রহ করে লগ ইন »

নীতিমালা

  • অনুগ্রহ করে অপরের মন্তব্যকে শ্রদ্ধা করুন. যেসব মন্তব্যে গালাগালি, ঘৃণা, অবিবেচনা প্রসূত ব্যক্তিগত আক্রমণ থাকবে সেগুলো প্রকাশের অনুমতি দেয়া হবে না .