বন্ধ করুন

আমাদের স্বেচ্ছাসেবক সম্প্রদায় কাজ করে যাচ্ছে বিশ্বের কোনা থেকে না বলা গল্পগুলো আপনাদের কাছে তুলে ধরতে। তবে আপনাদের সাহায্য ছাড়া আমরা তা পারব না। আমাদের সম্পাদনা, প্রযুক্তি এবং প্রচারণা দলগুলোকে সুষ্ঠুভাবে চলতে সহায়তার জন্যে আপনারা আপনাদের দানের অংশ থেকে কিছু গ্লোবাল ভয়েসেসকে দিতে পারেন।

সাহায্য করুন

উপরের ভাষাগুলো দেখছেন? আমরা গ্লোবাল ভয়েসেস এর গল্পগুলো অনুবাদ করেছি অনেক ভাষায় যাতে বিশ্বজুড়ে মানুষ এগুলো সহজে পড়তে পারে।

আরও জানুন লিঙ্গুয়া অনুবাদ  »

প্যালেস্টাইন: প্রতিদিনের জীবনযাপন ছবিতে বন্দী

আপনি কি জানেন যে ১৯৬৭ সাল থেকে ফিলিস্তিনে ৮ লক্ষ জলপাই গাছ শিকড় সহ উপড়ে ফেলা হয়েছে ? এটি প্রায় ৩৩ টি কেন্দ্রীয় উদ্যান ধ্বংস করে দেয়ার সমান।

আপনি কি জানেন, পশ্চিম তীরে একজন ফিলিস্তিনির জন্য প্রতিদিন মাত্র ৭০ লিটার পানি বরাদ্দ দেয়া হয় ? যদিও জাতিসংঘ একজন মানুষের জন্য প্রতিদিন কমপক্ষে ১০০ লিটার পানি বরাদ্দ রাখার পরামর্শ দিয়ে থাকে। যুক্তরাজ্যের জনগণ প্রতিদিন ১৫০ লিটার পানি পেয়ে থাকে।  

আপনি কি আরও জানেন যে শরনার্থী ছাড়াও ফিলিস্তিনি জনগণের আরও ৫ ধরনের পরিচয় পত্র আছে? এগুলোর মাঝে ৪ টি পরিচয় পত্রই ইসরায়েলী সরকার ইস্যু করে থাকে। জনগণ কোথায় বাস করতে পারবে, তারা কোন কোন সেবা পাবে এবং রাজনৈতিক ব্যবস্থাতে তারা কীভাবে অংশ গ্রহণ করবে এসব কিছুরই একটি নির্দিষ্ট সীমানা তৈরি করে দেয়া হয়েছে।  

ফিলিস্তিনিদের দৈনন্দিন বাস্তব জীবন খুব জটিল – যা একজন বাইরের লোকের পক্ষে বুঝতে পারা আরও কঠিন। “ফিলিস্তিন/ইসরাইলের একটি বাস্তব তথ্য পূর্ণ সত্য-ভিত্তিক গল্প বর্ননা করতে সৃজনশীল ভিজুয়াল” তৈরি করে ফিলিস্তিনিদের এই কথাগুলো ছড়িয়ে দেওয়াকে চ্যালেঞ্জ হিসেবে নিয়েছে ভিজুয়ালাইজিং প্যালেস্টাইন। কাজটি ‘ডয়েচ ভেলে সেরা ব্লগ লেখা প্রতিযোগিতা’য় সামাজিক কাজের জন্য তাদের পুরস্কার এনে দিয়েছে।

আবেদনময় একটি ইনফোগ্রাফিক্সে রুপান্তরিত করতে দুষ্পাচ্য তথ্য এবং জটিল বর্ণনাকে অনলাইন অথবা অফলাইন যেকোন প্রচারাভিযানে ব্যবহার করতে আরও সহজবোধ্য করে তোলা হচ্ছে। কাঙ্ক্ষিত জনগোষ্ঠীর কাছে যেন আরও সহজে পৌঁছানো যায় সে লক্ষে তাদের বার্তাগুলোকে আরও শক্তিশালী করা এই প্রকল্পটির অন্যতম একটি লক্ষ্য। এর ফলে এই তথ্যের প্রভাব আরও বিস্তৃত হবে। অনেকগুলো পথে এবং একটি ক্রিয়েটিভ কমন্স কপিরাইটের সাহায্যে এই ভিজুয়ালগুলোতে প্রবেশ করা যাবে। ভিজুয়ালগুলো বেশ কয়েকটি ভাষায় অনুবাদ করা হয়েছে। 

২০১২ সালের ফেব্রুয়ারি মাসে দলটির প্রথম প্রচার কাজ প্রকাশিত হওয়ার পর থেকে এটি সবার মনোযোগ কেড়ে নেয়। হাফিংটন পোস্ট, ফাস্ট কোম্পানি, আল-জাজিরা ইংরেজী এবং ওপেন ডেমোক্রেসি সহ অন্যান্য অনেক আন্তর্জাতিক প্রকাশনায় দলটির কাজ তুলে ধরা হয়েছে। 

সর্বশেষ ছবিটি পাওয়া জন্য তাদের এই প্রক্রিয়াটি সব শেষে ৮টি ধাপে বর্ননা করা হতে পারেঃ 

১. চিহ্নিত করণঃ নতুন দিক নির্দেশনা এবং ধারণা চিহ্নিত করা

২. গবেষণা: অশোধিত তথ্য সংগ্রহ করা এবং তথ্য সূত্রগুলো যাচাই করে দেখা।

. গল্পঃ একটি আকর্ষণীয় গল্পে রুপান্তরিত করা 

৪. সংক্ষিপ্তঃ সংক্ষেপে অনুবাদ করা

৫. নকশাঃ ভিজুয়াল উপায়ে প্রকাশ করতে ডিজাইনারদের নিয়োগ করা 

৬. মান নিশ্চিত করতে কাজের পরীক্ষা নিরীক্ষা করা

৭. অনলাইনে কাজটিকে প্রকাশ করা

. পরিমাপ করাঃ এটির প্রভাব এবং দ্রুত ছড়িয়ে পড়া পথ অনুসরন করা  

ভিজুয়ালাইজিং ফিলিস্তিন ওয়েবসাইটে ব্যবহৃত সকল সূত্রের নথি তৈরি করে রাখা হয়েছে – বিশেষকরে, নির্ভরযোগ্য সূত্রের মতো গুরুত্বপূর্ণ ওয়েবসাইটগুলো প্রদর্শিত তথ্য ভুল প্রমাণ করার কাজটিকে তা আরও কঠিন করে তুলেছে। 

ভিজুয়ালাইজিং ফিলিস্তিন হচ্ছে ভিজুয়ালাইজিং ইম্প্যাক্ট এর একটি প্রকল্প। প্রচারাভিযান পরিচালনাকারী এবং সক্রিয় কর্মীদের জন্য ডাটা ভিজুয়ালাইজেশন এবং ডাটা এনিমেশন তৈরি করতে প্রকল্পটি কাজ করছে।   

আলোচনা শুরু করুন

লেখকেরা, অনুগ্রহ করে লগ ইন »

নীতিমালা

  • অনুগ্রহ করে অপরের মন্তব্যকে শ্রদ্ধা করুন. যেসব মন্তব্যে গালাগালি, ঘৃণা, অবিবেচনা প্রসূত ব্যক্তিগত আক্রমণ থাকবে সেগুলো প্রকাশের অনুমতি দেয়া হবে না .