বন্ধ করুন

আমাদের স্বেচ্ছাসেবক সম্প্রদায় কাজ করে যাচ্ছে বিশ্বের কোনা থেকে না বলা গল্পগুলো আপনাদের কাছে তুলে ধরতে। তবে আপনাদের সাহায্য ছাড়া আমরা তা পারব না। আমাদের সম্পাদনা, প্রযুক্তি এবং প্রচারণা দলগুলোকে সুষ্ঠুভাবে চলতে সহায়তার জন্যে আপনারা আপনাদের দানের অংশ থেকে কিছু গ্লোবাল ভয়েসেসকে দিতে পারেন।

সাহায্য করুন

উপরের ভাষাগুলো দেখছেন? আমরা গ্লোবাল ভয়েসেস এর গল্পগুলো অনুবাদ করেছি অনেক ভাষায় যাতে বিশ্বজুড়ে মানুষ এগুলো সহজে পড়তে পারে।

আরও জানুন লিঙ্গুয়া অনুবাদ  »

মিশরীয় প্রেসিডেন্ট নির্বাচনে বিজয়ী সিসি; একমাত্র বিরোধীদলীয় নেতা সাবাহি তৃতীয়

কয়েক বছরের মধ্যে হওয়া তৃতীয় প্রেসিডেন্ট নির্বাচনে মিশর একজন নতুন প্রেসিডেন্ট পেল। জেনারেল আব্দেল ফাত্তাহ আল সিসি নির্বাচনে বিপুল ভোটে জয়ী হয়েছেন। তাঁর একমাত্র প্রতিদ্বন্দ্বী হামদিন সাবাহিকে হারিয়ে তিনি শীর্ষস্থান দখল করেছেন। বিরোধীদলীয় নেতা সাবাহি হয়েছেন তৃতীয়। তিন দিন ধরে ভোট গ্রহণ শেষে নির্বাচনের প্রাথমিক ফলাফল প্রকাশ করা হয়েছে। রিপোর্ট অনুযায়ী, সিসি শতকরা ৯৩.৩ শতাংশ ভোট পেয়ে জিতেছেন। হামদিন পেয়েছেন শতকরা ৩ শতাংশ ভোট এবং শতকরা ৩.৭ শতাংশ ভোট বাতিল বলে ঘোষণা করা হয়েছে।

নেটিজেনরা এই খবরের প্রতিক্রিয়ায় টুইটারে তিক্ত মন্তব্য করেছেন।

মিশরের আইদা এলকাশেফ [আরবি] বলেছেনঃ 

প্রেসিডেন্ট নির্বাচনের যে ব্যাপারটিতে আপনি একই সাথে হাসবেন এবং কাঁদবেন তা হচ্ছে এখানে মাত্র দুইজন প্রার্থী ছিলেন। বাতিল হয়ে যাওয়া ভোটগুলোর সংখ্যা ঘোষণা করার পরে হামদিন তৃতীয় স্থান লাভ করেছেন। 

শেরিফ গাবের জিজ্ঞাসা করেছেনঃ 

২০১১ সালের বিপ্লব যদি গণজাগরণ হয়ে থাকে, তবে কি আমরা সিসি’র প্রতি এমন অতি উৎসাহী প্রতিক্রিয়াকে গণ অধঃপতন বলতে পারি ?  

এদিকে মিশরীয় হোসাম আল সোক্কারি উল্লেখ [আরবি] করেছেনঃ 

মনুষ্য জাতি হচ্ছে একটি ভোট দেয়ার প্রাণী (এটা ছাড়া তাঁর আর কোন মূল্য নেই)  

অতঃপর, নাবিল অবাক হয়েছেন যে কেন জনগণ মানসিকভাবে বিপর্যস্ত হয়ে পড়েছে। কারন, সাবাহি তো প্রতিযোগীতার যোগ্যই ছিলেন না। তিনি জিজ্ঞাসা করেছেনঃ 

আমরা হামদিনকে কেন দোষ দিচ্ছি ? কারন, তিনি খুব সামান্য ভোট পেয়েছেন ? এমন মূহুর্তের কথা কে চিন্তা করতে পেরেছে যে তিনি কখনও জিততে পারেন ? 

সিসি বিপুল সংখ্যক ভোট পেয়ে বিজয়ী হওয়া সত্ত্বেও আমরো আলি তাকে একটি চ্যালেঞ্জ ছুঁড়ে দিয়েছেনঃ   

সিসি কখনোই নাসেরের মতো হতে পারবেন না। ১৯৫৬ সালের প্রেসিডেন্ট নির্বাচনে নাসেরের মতো শতকরা ৯৯.৯ শতাংশ ভোট না পাওয়া পর্যন্ত তিনি নাসেরের মতো হতে পারবেন না। 

লেবাননের ব্যঙ্গ – রচয়িতা কার্ল শ্যারো আরও বলেছেনঃ 

আপনারা শুধু বলেন, সিসি সম্ভবত কখনোই শতকরা ১০০ ভাগের বেশি ভোট পেতে পারবেন না। আপনারা এমন কথা বলেন নিজেদেরকে সব সময় সঠিক মনে করা আধিপত্যবাদী গণনার কারনে। 

বাহরাইনের আবু ওমর আল শাফি মনে করেন, বাহরাইনও একই পরিস্থিতির শিকার। তিনি টুইট করেছেনঃ 

মিশরের প্রেসিডেন্ট নির্বাচনের সফলতার মতো বাহরাইনেও নিশ্চিতভাবে সংসদ নির্বাচন সফল হতে যাচ্ছে। যারা নির্বাচন বর্জন করবেন তাদের জন্য কোন সান্ত্বনা পুরষ্কার থাকবে না।

আর পরিশেষে মিশরীয় সক্রিয় কর্মী আলা আব্দেল ফাত্তাহ টুইট করেছেনঃ 

সিসি, আপনি শেষ পর্যন্ত একজন গাধা বলে প্রমাণিত হলেন। 

আলোচনা শুরু করুন

লেখকেরা, অনুগ্রহ করে লগ ইন »

নীতিমালা

  • অনুগ্রহ করে অপরের মন্তব্যকে শ্রদ্ধা করুন. যেসব মন্তব্যে গালাগালি, ঘৃণা, অবিবেচনা প্রসূত ব্যক্তিগত আক্রমণ থাকবে সেগুলো প্রকাশের অনুমতি দেয়া হবে না .