বন্ধ করুন

আমাদের স্বেচ্ছাসেবক সম্প্রদায় কাজ করে যাচ্ছে বিশ্বের কোনা থেকে না বলা গল্পগুলো আপনাদের কাছে তুলে ধরতে। তবে আপনাদের সাহায্য ছাড়া আমরা তা পারব না। আমাদের সম্পাদনা, প্রযুক্তি এবং প্রচারণা দলগুলোকে সুষ্ঠুভাবে চলতে সহায়তার জন্যে আপনারা আপনাদের দানের অংশ থেকে কিছু গ্লোবাল ভয়েসেসকে দিতে পারেন।

সাহায্য করুন

উপরের ভাষাগুলো দেখছেন? আমরা গ্লোবাল ভয়েসেস এর গল্পগুলো অনুবাদ করেছি অনেক ভাষায় যাতে বিশ্বজুড়ে মানুষ এগুলো সহজে পড়তে পারে।

আরও জানুন লিঙ্গুয়া অনুবাদ  »

আইডিয়া বক্সঃ পড়ুন, লিখুন, নতুন কিছু তৈরি করুন এবং যোগাযোগ বাড়ান

মানবিক সংকটে পরা শরণার্থীদের অবিলম্বে গুরুত্বপূর্ণ সাহায্যের প্রয়োজন। যেমন, খাদ্য ও বিশুদ্ধ পানির সরবরাহ, বাসস্থান এবং চিকিৎসা সুবিধা। সেই চাহিদা একবার পর্যাপ্তরূপে সুরাহা হলে, অন্যান্য চাহিদাও শীঘ্রই মাথা চারা দিয়ে ওঠে। যেমন, তথ্য ব্যবহারের সুযোগ এবং নিজেদের সৃজনশীলভাবে প্রকাশ করার প্রয়োজনীয়তা।

শরণার্থীদের “পড়তে, লিখতে, নতুন কিছু তৈরি করতে, এবং যোগাযোগ বাড়াতে” ‘আইডিয়া বক্স’ নামের একটি নতুন প্রকল্পের কাজ শুরু করা হয়েছে। এই প্রকল্পের মাধ্যমে তাঁদের প্রয়োজনীয় সরঞ্জাম, কন্টেন্ট এবং সম্ভার প্রদান করা হবে। উদ্বাস্তুদের জন্য জাতিসংঘের হাই কমিশনার (ইউএনএইচসিআর) এর সহযোগিতায় লাইব্রেরিস উইদাউট বর্ডারস (এলডাবলইউবি) প্রতিষ্ঠানের চালু করা এই প্রকল্প অনুযায়ী ‘আইডিয়া বক্স’ একটি স্বয়ংসম্পূর্ণ সিস্টেম, যার মাধ্যমে ১৫ টি ট্যাবলেট, উপগ্রহ সংযোগের মাধ্যমে ইন্টারনেট প্রবেশযোগ্য ৪ টি ল্যাপটপ কম্পিউটার, ৫০ টি ই-রিডারস, পর্দা সহ একটি সিনেমা প্রজেক্টরের পাশাপাশি টেবিল এবং চেয়ার ২০-মিনিটেরও কম সময়ের মধ্যে সম্প্রদায়ে সরবরাহ করা হবে। এছাড়াও ফ্রি কন্টেন্ট হিসেবে ৫,০০০ ই-বই এবং ১০০ টি সিনেমা আইডিয়া বক্স এর ব্যবহারকারীদের জন্য অন্তর্ভুক্ত করা হয়েছে। এছাড়াও অফলাইন বিষয়বস্তুগুলো উইকিপিডিয়া, খান একাডেমি এবং অন্যান্য ই-লার্নিং সরঞ্জাম, যেগুলো কোডিং এবং কম্পিউটার প্রোগ্রামিং এর উপর কোর্স প্রদান করে তা সরবরাহ করবে।

এই সংক্ষিপ্ত ভিডিওতে, এলডাবলিউবি কর্মীরা আইডিয়া বক্সের ব্যপারে বিস্তারিত বলেছেন:

এইচডি ক্যামেরা এবং হাতে ব্যবহৃত জিপিএস ইউনিটের মতো সরঞ্জাম ব্যবহার করে নতুন কিছু সৃষ্টির উপর গুরুত্ব দেওয়া হয়েছে। এগুলো সম্প্রদায়কে তাদের নিজস্ব ছায়াছবি, ফটোগ্রাফ এবং অংশগ্রহণমূলক মানচিত্র তৈরি করতে উৎসাহিত করবে।

নতুন আইডিয়া বক্স প্রকল্পটি প্রথমে ২০১৪ সালের ফেব্রুয়ারি মাসে বুরুন্ডির উদ্বাস্তু শিবিরে অনুষ্ঠিত হয়েছে। জর্ডান ও লেবাননের সিরিয় শরণার্থী ক্যাম্পেও এটি স্থাপনের পরিকল্পনা রয়েছে। এই ভিডিওটি বুরুন্ডি স্থাপনার উপর দৃষ্টি নিবদ্ধ করেছে:

আইডিয়া বক্স ব্লগে এই স্থাপনার উপর প্রারম্ভিক প্রতিবেদন নথিভুক্ত করা হয়েছে। সেখানে সাইট সমন্বয়কারীরা স্থানীয় সম্প্রদায়ের সাথে তাদের কাজের অভিজ্ঞতা শেয়ার করেছেন। বেঞ্জামিন বলেছেন, বুরুন্ডিতে ১০০০ জন ব্যবহারকারীরা প্রথম মাসে এই সম্পদের সদ্ব্যবহার করেছেন। তিনি বুরুন্ডি শিবিরের সাধারণ ব্যবহারকারীদের সংক্ষিপ্ত বিবরণ তুলে ধরেছেন:

​১০ বছর বয়সী ৩০ জন শিশু “কিরিকু” কার্টুন দেখে ব্যগ্র হয়ে হাসাহাসি করছে; ৫০ বছর বয়সী ২ জন ট্যাবলেট খুঁজে পেয়েছেন, প্রতিদিন মানুষ আসে কঙ্গোর ইতিহাস পড়তে; প্রতিদিন ২ ঘণ্টার জন্য শিক্ষার্থীরা এখানে আসে নোট লিখতে এবং ক্লাসের জন্য প্রস্তুতি নিতে; যুবতীরা বই পড়ে এবং ভিডিও দেখে তাঁদের দিন কাটিয়ে দেয়; চতুর্থ শ্রেণির ছাত্ররা স্কুল শেষে দল বেঁধে আসে এবং গভীর মনোযোগ দিয়ে ব্যকরণ অথবা আফ্রিকার ভূগোল পড়ে…… এবং আরও শত শত শরণার্থীরা এখানে আসে এবং গভীর কৌতূহল নিয়ে সব কিছু দেখে…… শরণার্থীদের আইডিয়া বক্স নিয়ে কাজ করাতে কোন অসুবিধা নেই।

1 টি মন্তব্য

  • ভালো ও খারাপ মানুষের মধ্যে পার্থ্ক্য সামান্যই- খারাপ মানুষ খারাপ কাজটি করে ফেলে আর ইচ্ছে থাকা সত্ত্বেও খারাপ কাজ থেকে বিরত থাকা মানুষটিই ভালো মানুষ।

আলোচনায় যোগ দিন

লেখকেরা, অনুগ্রহ করে লগ ইন »

নীতিমালা

  • অনুগ্রহ করে অপরের মন্তব্যকে শ্রদ্ধা করুন. যেসব মন্তব্যে গালাগালি, ঘৃণা, অবিবেচনা প্রসূত ব্যক্তিগত আক্রমণ থাকবে সেগুলো প্রকাশের অনুমতি দেয়া হবে না .