বন্ধ করুন

আমাদের স্বেচ্ছাসেবক সম্প্রদায় কাজ করে যাচ্ছে বিশ্বের কোনা থেকে না বলা গল্পগুলো আপনাদের কাছে তুলে ধরতে। তবে আপনাদের সাহায্য ছাড়া আমরা তা পারব না। আমাদের সম্পাদনা, প্রযুক্তি এবং প্রচারণা দলগুলোকে সুষ্ঠুভাবে চলতে সহায়তার জন্যে আপনারা আপনাদের দানের অংশ থেকে কিছু গ্লোবাল ভয়েসেসকে দিতে পারেন।

সাহায্য করুন

উপরের ভাষাগুলো দেখছেন? আমরা গ্লোবাল ভয়েসেস এর গল্পগুলো অনুবাদ করেছি অনেক ভাষায় যাতে বিশ্বজুড়ে মানুষ এগুলো সহজে পড়তে পারে।

আরও জানুন লিঙ্গুয়া অনুবাদ  »

আইকার খেলনা নেকড়ে লুফসিগ, হংকং-এর প্রতিবাদের প্রতীকে পরিণত হয়েছে

[এই প্রবন্ধের লেখক নাগরিক প্রচার মাধ্যম ইনমিডিয়াএইচকে.নেট-এর একজন প্রদায়ক, যা এই পোস্টে উদ্ধৃত করা হয়েছে। ]

The banner of Facebook page.

ফেসবুকের ব্যানার আইকার খেলনা নেকড়ে লুফসিগ।

হংকং-এ, ৭ ডিসেম্বর-এ, সম্প্রদায়গত আলোচনা সভায় ভাষণ দেওয়ার সময় শহরের প্রধান নির্বাহী সিওয়াই লুইয়ুং-এর দিকে এক বিক্ষোভকারী অন্যতম বৃহৎ আসবাব এবং গৃহ সরঞ্জাম নির্মাতা আইকার লুফসিগ নামক মোটাসোটা খেলনা নেকড়ে ছুড়ে মারে, তার নেতার বিরুদ্ধে অভিযোগ, তিনি নগরের গণতান্ত্রিক সংস্কারে প্রতিশ্রুতি প্রদানে গড়িমসি করছেন।

কেবল ঘটনাক্রমে লুফসিগ নামের খেলনাটি বাছাই করা হয়নি। প্রধান নির্বাহী পদে নির্বাচনীর সময় সিওয়াই লিইয়ুং-এ এর ডাকনাম “নেকড়ে” রাখা হয়। এছাড়াও, লুফসিগ–এর মূল চীনা ভাষায় রূপান্তর শব্দটির ক্যান্টনিজ উচ্চারণ হচ্ছে মো সাই (路姆西), যা এক বিদ্রূপাত্মক বাক্য “মায়ের নেওটা” এবং “থ্রো (ছুড়ে মারা) ”-এর ক্যান্টনিজ উচ্চারণে “গোল্লায় যাও”-এর সমর্থক, যার ফলে প্রধান নির্বাহীর দিকে লুফসিগকে ছুঁড়ে মারা সামগ্রিক ভাবে নতুন ধরনের আক্রমণ এবং যার অর্থ বেশ অশ্লীল।

যখন কোন প্রতীকধর্মী কাজে অশ্লীলতা যুক্ত হয়ে পড়ে, তখন মূলধারার চ্যানেলগুলোর জন্য এই বার্তা তুলে ধরা কঠিন হয়ে পড়ে, দুই দিনের কম সময়ের মধ্যে এই কাহিনীটি দ্রুত অনলাইনে ছড়িয়ে পড়ে।

একই দিন সন্ধ্যায়,এই মোটাসোটা বিশেষ খেলনা নেকড়ের জন্য একটি ফেসবুক পাতা তৈরী করা হয় এই বিক্ষোভ উদযাপন এবং ব্যাঙ্গাত্মক ছবি সংগ্রহ করার জন্য।

A political cartoon by keyboard fighter via Lufsig's Facebook page.

লুফসিগের ফেসবুক পাতার মাধ্যমে পাওয়া কিবোর্ড ফাইটারের একটি রাজনৈতিক কার্টুন।

বিক্ষোভ প্রদর্শনের পরদিন থেকে, গ্রাস মাড হর্সের মত লুফসিগও একই রকম ইন্টারনেট স্টাইলে পরিণত হয়, যে গ্রাস মার্ড হর্স চীনের ব্যাপক সেন্সরশিপের বিরুদ্ধে এক প্রতীক হিসেবে বিবেচিত হয়। লুফসিগ-এর ভক্তরা আইকা এবং অনলাইন শপিং সাইট থেকে এই খেলনাটা পেতে বেশ ঝক্কি পোহাতে হয়। দ্রুত একটা গুজব ছড়িয়ে পড়ে যে আইকা তার দোকান থেকে লুফসিগকে সরিয়ে নেবে। এর প্রতিক্রিয়ায় ৯ ডিসেম্বরে আইকার কাছে আরো লুফসিগ দাবী নামক এক ফেসবুক কার্যক্রম পাতা তৈরী করা হয়।

যারা লুফসিগ-এর খোঁজ করছিল, তাদের মধ্যে অন্যতম একজন রুবি লাই নামক ভদ্রমহিলা। ৯ ডিসেম্বরে লুফসিগের জন্য সে শাটিন থেকে কাউলুন পর্যন্ত অনুসন্ধান চালায় এবং সে এ কারণে সৌভাগ্যবান যে সে চারটা খেলনা সংগ্রহ করতে সমর্থ হয়। ভদ্রমহিলা ইনমিডিয়াএইচকে.নেট নামক সিটিজেন জার্নালিজম প্লাটফর্ম-এ এই উন্মাদনার বিষয়টি বর্ণনা করেন:

約三時終於到達九龍灣Ikea,走了三四樓兩層,連路姆西條尾都見不著,心裏不禁暗暗吃驚,然後好容易的找到了毛公仔部,但整個路姆西貨架都空了!!是四層架都空了!真心崩潰,那感覺就像掏心吮血追求了很久的女生突然告訴我明天要嫁人一樣。在崩潰的時候,幾位年輕男生也來到貨架前,一臉落寞失望,然後我們眼光相接,竟就心領神會:
我:「妖無晒貨!我係沙田趕黎架大佬!」
男生A阿南:「我係上水呀!」
男生B阿北:「我係黃大仙姐…不過佢話遲D有貨喎。」
我等不及,見到一位Ikea派來的店員,衝前就問:
我:「你係唔係專登黎搞個公仔架?」
男店員:「係呀,四點番貨,你地可以係42號貨架等。」

আমি বেলা ৩টার সময় কাউলুন বে শাখায় এসে হাজির হই এবং দ্রুত ৩-৪ তলায় গিয়ে হাজির হই, সেখানে আমি একটি লুফসিগের টিকিও দেখতে পেলাম না। ঘটনাক্রমে আমি খেলনা পরিপূর্ণ এলাকায় গিয়ে যা দেখতে পেলাম সেটা হচ্ছে খলি সব তাক! তার জন্য বরাদ্দ চারটে তাকের সবকটা খালি! আমি প্রায় ভেঙ্গে পড়লাম, যেন হঠাৎ আমার বান্ধবী আমাকে বলল যে আগামীকাল সে আরেকজনকে বিয়ে করতে যাচ্ছে। আমি দেখতে পেলাম আরো কয়েকজন তরুণ ঝুড়ি নিয়ে একই রকম হতাশ চেহারায় তাকাচ্ছিল। আমরা দৃষ্টি বিনিময় করলাম এবং কথা বলা শুরু করলাম:
আমি: “গোল্লায় যাক, সবগুলো বিক্রি হয়ে গেছে। আমি সাটিন থেকে ঝড়ের বেগে এখানে এসেছি!”
আহ নান: “আমি এসেছি শেয়ুং শুই থেকে!”
আহ বাক: ” আমি অং তা সিন থেকে এসেছি… কিন্তু বিক্রয় কর্মী বলছে যে শীঘ্রই তারা নতুন খেলনা নিয়ে আসবে।”
আমি আর অপেক্ষা করতে রাজী ছিলাম না এবং আমি আইকার বিক্রয় কর্মীর দিকে এগিয়ে গেলাম, যারা আমাদের দিকে এগিয়ে আসছিল।
আমি: “খেলনার দায়িত্বে কি আপনি আছেন?”
পুরুষ বিক্রয় কর্মী: “হ্যাঁ, খেলনার স্টক বেলা চারটায় এসে পৌঁছবে”।

A design based on a Japanese Cartoon Attack on Titan. Image from Lufsig's Facebook page.

জাপানি কার্টুন এ্যাটাক অন টাইটান –এর বিষয়ে ভিত্তি করে তৈরী করা ডিজাইন। ছবি লুফসিগের ফেসবুকের পাতা থেকে নেওয়া।

তিনশো নতুন লুফসিগ এসে হাজির হয়, আর রুবি ও তার নতুন বন্ধুরা সৌভাগ্যবান তারা প্রত্যেক পাঁচটি লুফসিগ হাতে পায়। সে বিনয়ী হয়ে তার একটা লুফসিগ এক ব্যক্তির কাছে বিক্রি করে দেয়, ৩০ মিনিট ধরে অপেক্ষার পর যাকে খালি হাতে ফিরে যেতে হচ্ছিল :

百多人的一條隊,數十人買不到,因為原來很多人都買5隻或以上,許多人都向我們趨前問價,我們說,希望是賣給最少排隊超過三十分鐘的人…… 。後來我把我的路姆西賣給了由沙田趕來排隊超過三十分鐘的M先生,而阿南亦把他其中一隻以原價轉賣給另一位苦候的人。走出Ikea門口,還有一位看似是中學生的男生氣乎乎的衝過來問我能否轉賣給他說:「我岩岩由天水圍趕黎!」

সেখানে ১০০ জনের বেশী নাগরিক লাইন ধরেছিল, আর সেখানে দাঁড়ানো কয়েকজন কোন খেলনা কিনতে পারেনি কারণ লাইনে দাঁড়ানো কেউ কেউ পাঁচটার বেশী লুফসিগ কিনেছিল। অনেকে আমাদের দিকে এগিয়ে আসে এবং জিজ্ঞেস করে আমরা যদি আমাদের একটা লুফসিগ বিক্রি করি। আমরা বললাম যে আমরা তাদের কাছে লুফসিগ বিক্রি করব, যারা ৩০ মিনিটের বেশী সময় ধরে লাইনে দাঁড়িয়ে আছে। […] ঘটনাক্রমে, আমি মি:এম–এর কাছে গেলাম যে সাটিন থেকে ছুটে এখানে এসেছে এবং ৩০ মিনিট ধরে লাইনে দাঁড়িয়ে আছে, আর আহ নানও লাইনে দাঁড়ানো একজনের কাছে একটা খেলনা বিক্রি করে দেয়। যখন আমরা আইকার দোকান ছেড়ে আসছিলাম, তখন একজন বালককে দেখলাম, যাকে দেখে মনে হচ্ছিল হাইস্কুলের ছাত্র, সে দ্রুত সামনে আগাচ্ছিল এবং জিজ্ঞেস করল আমি কি আমার একটা খেলনা বিক্রি করব কিনা, সে বলল: আমি তিন শুই ওয়েই থেকে ছুটে এসেছি”![কাউলুন বে নামক এলাকা থেকে তিন শুই ওয়েই দেড় ঘন্টার পথ]।

ইউয়েন চেন, সাংবাদিকতার এক প্রভাষক, তিনি হাফিংটন পোস্ট নামক সংবাদপত্রের ওয়েব সাইট থেকে প্রাপ্ত তথ্যের ভিত্তিতে লুফসিগ উন্মাদনার প্রকৃতি তার ব্লগে ব্যাখ্যা করেছে:

লুফসিগ উন্মাদনার একটা সমালোচনা রয়েছে– যারা একে দেখছে একপাল লেমিং হিসেবে যারা অন্ধভাবে সাম্প্রতিক উন্মাদনায় ভেসে গেছে অথবা তারা গণহারে একটা খেলনা কেনাকে সম্মিলিত জনতার অসুস্থতার লক্ষণ হিসেবে দেখছে। আমি একে আরো বেশী হিসেবে দেখি, যাকে চীনের এক প্রবাদের মধ্যে দিয়ে তুলে ধরা যায় ” তিতার মাঝ থেকে মজা খুঁজে নেওয়া “

এমন কি আমি লুফসিগের স্থুল রসিকতার দিকটাও উপভোগ করলাম, কেন আমি তাকে অবাধ্যতা হিসেবে আবিস্কার করলাম, সে বিষয়টিও খুঁজে বের করার চেষ্টা করলাম। রুবির সাথে কথা বলার পর আমি আবিস্কার করলাম যে লুফসিগ বা লো মো সাই তার নাম যা ধারণ করে সেই বাক্যের নিন্দনীয় অংশটি এড়িয়ে যায়। দৃশ্যটি নামটি আর আক্রমণাত্মক, নারীবিদ্বেষীর অপমান-এর মত নয়, তার বদলে এটি একাত্মতা ও প্রতিবাদের প্রতীক হয়ে ওঠে। এই খেলনাটি পাওয়ার জন্য আমার আর তর সইছে না, যা দ্রুত আমাদের সমাজের এক প্রতীকে পরিণত হয়েছে।

আইকা সুইডেন –এর নিজস্ব ব্যাখ্যা অনুসারে, লুফসিগ নামটি এসেছে “লুফসা” শব্দটি থেকে, যা একটি ক্রিয়াপদ এবং এর মানে হচ্ছে “ভারী পায়ে চলা” বা “টেনে টেনে পা ফেলা” । এতে আইজি প্রত্যয় যোগ করার পর এর অর্থ দাঁড়ায় জবর জং, মলিন বেশ এবং অগোছালো। ইনমিডিয়াএইচকে.নেট-এর প্রতি প্রদান করা আইকার সাম্প্রতিক জবাবে চীনা ভাষায় অনুবাদের ক্ষেত্রে লুফসিগের দুর্ভাগ্যজনক ক্যান্টনিজ অর্থের জন্য প্রতিষ্ঠানটি দুঃখ প্রকাশ করেছে এবং তারা এর সঠিক অনুবাদ লু ফাক সাই-এ রূপান্তর করেছে। কিন্তু ফেসবুকে ইনমিডিয়াএইচকে-এর নিউজ থ্রেড বা সেখানে তৈরী হওয়া আলোচনার প্রতিক্রিয়ায় বোঝা যাচ্ছে , নেট নাগরিকরা এই নামে খুশী নয়।

এই উন্মাদনার প্রতি সাড়া দিয়ে ১১ ডিসেম্বরে সিওয়াই লিয়ুং, সরকারি ওয়াবসাইটে লুফসিগের সাথে নিজের একটা ছবি পোস্ট করেছে এবং বলছে যে তার মেয়ের বড়দিনের উপহার হিসেবে তিনিও একটি লুফসিগ খেলনা কিনেছেন:

Chief Executive CY Leung took photo with Lufsig as a response to the Lufsig Craze.

লুফসিগ উন্মাদনায় সাড়া দিয়ে হংকং-এর প্রধান নির্বাহী লুফসিগের সাথে একটা ছবি তুলেছে।

আলোচনা শুরু করুন

লেখকেরা, অনুগ্রহ করে লগ ইন »

নীতিমালা

  • অনুগ্রহ করে অপরের মন্তব্যকে শ্রদ্ধা করুন. যেসব মন্তব্যে গালাগালি, ঘৃণা, অবিবেচনা প্রসূত ব্যক্তিগত আক্রমণ থাকবে সেগুলো প্রকাশের অনুমতি দেয়া হবে না .