বন্ধ করুন

আমাদের স্বেচ্ছাসেবক সম্প্রদায় কাজ করে যাচ্ছে বিশ্বের কোনা থেকে না বলা গল্পগুলো আপনাদের কাছে তুলে ধরতে। তবে আপনাদের সাহায্য ছাড়া আমরা তা পারব না। আমাদের সম্পাদনা, প্রযুক্তি এবং প্রচারণা দলগুলোকে সুষ্ঠুভাবে চলতে সহায়তার জন্যে আপনারা আপনাদের দানের অংশ থেকে কিছু গ্লোবাল ভয়েসেসকে দিতে পারেন।

সাহায্য করুন

উপরের ভাষাগুলো দেখছেন? আমরা গ্লোবাল ভয়েসেস এর গল্পগুলো অনুবাদ করেছি অনেক ভাষায় যাতে বিশ্বজুড়ে মানুষ এগুলো সহজে পড়তে পারে।

আরও জানুন লিঙ্গুয়া অনুবাদ  »

ম্যান্ডেলার স্মৃতিস্তম্ভে করমর্দন করলেন বারাক ওবামা ও রাউল ক্যাস্ট্রো

Captura de pantalla de la transmisión de Telesur

ক্যাস্ট্রো ও ওবামার সাক্ষাতের এই স্ক্রিনশটটি পেন লাতিন আমেরিকান টেলিভিশন নেটওয়ার্ক তেলেসুরে দেখানো হয়েছে।  

*অন্যকোনভাবে বর্ণিত না হলে, সবগুলো লিংক স্প্যানিশ ভাষার ওয়েব পেজে যাবে।

কিউবার প্রেসিডেন্ট রাউল ক্যাস্ট্রো এবং তাঁর আমেরিকান প্রতিমূর্তি বারাক ওবামা, নেলসন মেন্ডেলার স্মৃতিরক্ষা অনুষ্ঠানে করমর্দনরত অবস্থায় অলোকচিত্রীর ক্যামেরায় ধরা পড়েছেন। ছবিটি তাৎক্ষণিকভাবে দ্রুত বেগে ছড়িয়ে পড়েছে।  

বিবিসি মুনদোর খবর অনুযায়ী, “এই প্রথম এই দুই দেশের নেতাদের মাঝে এ ধরণের একটি সদিচ্ছাজ্ঞাপক ভঙ্গি জনসম্মুখে ঘটেছে। এ দু’দেশের মাঝে প্রায় ৫০ বছরের বেশী সময় ধরে তিক্ততার সম্পর্ক বিরাজ করছে।” এ সম্পর্কে বিবিসি ইংরেজীর দেয়া আরেকটি খবর এখানে পাওয়া যাচ্ছে।

বিবিসি মুনদো ব্যাখ্যা করেছে, জোহানেসবার্গের এফএনবি স্টেডিয়ামে এই বর্ণবাদ-বিরোধী নেতার স্মৃতিরক্ষা অনুষ্ঠানটিতে কীভাবে “ওবামা হাস্যোজ্জ্বল ক্যাস্ট্রোর সাথে হাত মেলালেন। তিনি মাদিবার সম্মানে বক্তব্য প্রদান করতে মঞ্চের দিকে হেঁটে যাওয়ার সময় ক্যাস্ট্রোর সাথে হাত মেলান।”

সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে এই করমর্দন সম্পর্কে প্রতিক্রিয়া আসতে খুব বেশী সময় লাগেনি। সাংবাদিক এবং ব্লগার জর্জ লেগানোয়া ফেসবুকে করমর্দনের একটি ছবি শেয়ার করে বলেছেনঃ

En Twitter revienta esta foto. Nuestro presidente Raúl Castro y Barack Obama se saludan en el ‪#‎MandelaMemorial.‬ La pregunta del millón: ¿qué se habrán dicho? ¿solo un saludo, o algo más?

টুইটারে এই ছবিটি খুব দ্রুত ছড়িয়ে পড়েছে। #মেন্ডেলাস্মৃতিস্তম্ভে বারাক ওবামা এবং আমাদের প্রেসিডেন্ট রাউল ক্যাস্ট্রো একে অন্যের সাথে শুভেচ্ছা বিনিময় করেছেন। লক্ষ ডলারের প্রশ্ন হচ্ছেঃ তারা একে অপরকে কি বলছিলেন ? শুধুই শুভেচ্ছা বিনিময়…নাকি আরো অন্য কিছু?

কারাকাস ভিত্তিক প্যান-লাতিন আমেরিকার টেলিভিশন নেটওয়ার্ক টেলিসুরের ফেসবুক পাতায় ব্যবহারকারীরা তাদের মতামতও জানিয়েছেনঃ

Un saludo no me sorprende, lo que realmente me sorprendería es que Obama decidiera suprimir el bloqueo a Cuba, consideró Maai Ortiz.

 “এ ধরণের একটি সদিচ্ছাজ্ঞাপক ভঙ্গিতে আমি মোটেই অবাক হয়নি। আমাকে যে ব্যাপারটি আসলেই বিস্মিত করতে পারতো, যদি ওবামা কিউবার বিরুদ্ধে আরোপিত বাণিজ্যিক নিষেধাজ্ঞা তুলে নিত।” এটি মাই ওরতিজের মতামত ছিল।

Aún después de muerto Mandela sigue marcando caminos de entendimiento y paz…, dijo Laura Isabel Alemán.

লরা ইসাবেল আলেমান বলেছেন, “এমনকি ম্যান্ডেলা তাঁর মৃত্যুর মাধ্যমেও শান্তি এবং সমঝোতার পথ দেখিয়ে চলেছেন…” 

Sin duda es histórico! Y para honrar a Mandela, Obama debería levantar el bloqueo, cree Alejandra Dixon.

আলাজান্দ্রা ডিক্সন আরো বলেছেন, “এটি একটি ঐতিহাসিক মুহূর্ত, এতে কোন সন্দেহ নেই! ওবামার উচিৎ ম্যান্ডেলাকে সম্মান জানিয়ে বাণিজ্যিক নিষেধাজ্ঞা তুলে নেয়া।”

দ্যা হাফিংটন পোস্ট (ইংরেজী), এপি, টেলিসুর এবং স্প্যানিশ পত্রিকা এল মুনদো সহ অন্যান্য বিভিন্ন আন্তর্জাতিক বার্তা প্রচার মাধ্যম এই ঘটনাটি সম্পর্কে রিপোর্ট করেছে।

মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের পররাষ্ট্রমন্ত্রী জন কেরি নভেম্বরে বিবৃতি দিয়েছেন যে তাঁর দেশ এবং কিউবার মাঝে কিছু সাধারণ স্বার্থ সংশ্লিষ্ট বিষয় রয়েছে। ভবিষ্যতে এসব বিষয় দু’টি জাতিকে পরস্পরের সহযোগী হওয়ার পেছনে নেতৃত্ব দিতে পারে।

আলোচনা শুরু করুন

লেখকেরা, অনুগ্রহ করে লগ ইন »

নীতিমালা

  • অনুগ্রহ করে অপরের মন্তব্যকে শ্রদ্ধা করুন. যেসব মন্তব্যে গালাগালি, ঘৃণা, অবিবেচনা প্রসূত ব্যক্তিগত আক্রমণ থাকবে সেগুলো প্রকাশের অনুমতি দেয়া হবে না .