বন্ধ করুন

আমাদের স্বেচ্ছাসেবক সম্প্রদায় কাজ করে যাচ্ছে বিশ্বের কোনা থেকে না বলা গল্পগুলো আপনাদের কাছে তুলে ধরতে। তবে আপনাদের সাহায্য ছাড়া আমরা তা পারব না। আমাদের সম্পাদনা, প্রযুক্তি এবং প্রচারণা দলগুলোকে সুষ্ঠুভাবে চলতে সহায়তার জন্যে আপনারা আপনাদের দানের অংশ থেকে কিছু গ্লোবাল ভয়েসেসকে দিতে পারেন।

সাহায্য করুন

উপরের ভাষাগুলো দেখছেন? আমরা গ্লোবাল ভয়েসেস এর গল্পগুলো অনুবাদ করেছি অনেক ভাষায় যাতে বিশ্বজুড়ে মানুষ এগুলো সহজে পড়তে পারে।

আরও জানুন লিঙ্গুয়া অনুবাদ  »

সিঙ্গাপুর: নেটনাগরিকরা ‘অশোভন’ সরকারি বিজ্ঞাপনের সমালোচনা করেছেন

সম্প্রদায়ের উন্নয়ন, যুব ও ক্রীড়া মন্ত্রণালয় (এমসিওয়াইএস) একটি বিজ্ঞাপনী প্রচারণা চালিয়েছে। সাবেক অপরাধী, নির্যাতনের শিকার, নিম্ন আয়ের স্তরের জনগণ এবং প্রতিবন্ধী ব্যক্তিদের প্রতি কুসংস্কার এবং বৈষম্য প্রচারের জন্যে এগুলো তীব্র সমালোচনার সম্মুখীন হয়েছে।

সম্প্রদায়ের উন্নয়ন, যুব ও ক্রীড়া মন্ত্রণালয় (এমসিওয়াইএস) একটি বিজ্ঞাপনী প্রচারণা চালিয়েছে। সাবেক অপরাধী, নির্যাতনের শিকার, নিম্ন আয়ের স্তরের জনগণ এবং প্রতিবন্ধী ব্যক্তিদের প্রতি কুসংস্কার এবং বৈষম্য প্রচারের জন্যে এগুলো তীব্র সমালোচনার সম্মুখীন হয়েছে।

সিঙ্গাপুরের নাগরিকদের মধ্যে যারা এই বিজ্ঞাপনগুলোকে আপত্তিকর মনে করেছেন তারা এগুলোর ব্যাপক সমালোচনা করেছেন।

@ফ্লুবার্জ: “এমসিওয়াইএস আপনাদের এবং স্টারলাইট অ্যাডভার্টাইজিং এর প্রতি ডব্লিউটিএফ ভুল করেছে? এই ধরনের প্রচারাভিযানটি ঠিক কার মাথা থেকে বের হয়েছে?”

জনপ্রিয় স্থানীয় ব্লগার এমব্রাউন সামাজিক কর্মীদের সমর্থন করলেও বিজ্ঞাপনগুলি প্রতিবন্ধী ব্যক্তিদের সম্পর্কে ভুল বার্তা পাঠায় বলে উল্লেখ করেছেন:

আমি সামাজিক কর্মীদের এবং তারা যা করে তা ভালবাসি। কিন্তু এমসিওয়াইএস শুনুন, প্রতিবন্ধী ব্যক্তিরা আশাহীন নন।

এই ধরনের বার্তা প্রতিবন্ধীদের ভিন্নভাবে দক্ষ আমাদের সমাজের মূল্যবান অংশের পরিবর্তে (কেবল) উদ্ধার এবং সহানুভূতির যোগ্য বোঝা প্রতিপন্ন করে।

একটি বিশেষ চাহিদাসম্পন্ন সন্তানের বাবা হিসাবে আমি এই ধরনের বার্তায় করছি গভীরভাবে অপমানিত বোধ করছি।

অনলাইন সিটিজেনের জন্য একটি নিবন্ধে, ঘুই লক্ষ্য করেছেন যে এসব পোস্টার যাদের সাহায্য দরকার তাদের সমাজের বাকি অংশ থেকে দূরে ঠেলে দিতে পারে:

এটি এমসিওয়াইএসের উদ্দেশ্য না হলেও এই পোস্টারগুলো অক্ষম অথবা ফাটলে পতিতাদের প্রতি সামাজিক কুসংস্কারে ঘৃতাহুতি দিবে। ইতিবাচক প্রণোদনার পরিবর্তে এটা – অক্ষম বা দুর্বলদের কিছু একটা অভাব রয়েছে এবং তাদের করুণা প্রয়োজন – এই ধারণাটিকেই শক্তিশালী করবে। আমি মোটেই এটা বলছি না যে এসব ব্যক্তির সাহায্যের প্রয়োজন নেই। আমাদের এই সহযোগিতা “করুণার পাত্র”কে সহায়তার প্রয়োজনে নয় বরং পারস্পরিক সহযোগিতার গোষ্ঠী বাসনা থেকে উৎসারিত হওয়া উচিত।

শারীরিক প্রতিবন্ধীদের সমিতি বিশেষভাবে এই বিজ্ঞাপনটির ব্যাপারে কোন মন্তব্য না করলেও, “পেশাটির প্রতি মানুষকে আকর্ষণ করতে” এমসিওয়াইএস এই প্রচারণা চালাচ্ছে বলে সন্তোষ প্রকাশ করে:

কেউ কেউ এই বিজ্ঞাপনগুলিকে অক্ষমতার প্রতি এই অঞ্চল এবং সিঙ্গাপুর সরকার উভয়ের মনোভাবের প্রতিনিধি হিসেবেই দেখেন:

@সনিলেবাইদাবে: “”অক্ষম ও মানসিকভাবে অসুস্থদের সামলাতে বা নিয়ে কাজ করতে এশিয়াকে এখনো অনেক দূর যেতে হবে। আরটি@ @kixes http://mrbrwn.co/yDkF53

@অ্যাম্ব্রাভেলিয়া:“এমসিওয়াইএসের “আশাহীন” বিজ্ঞাপনটি “সাহায্যে”র জন্যে সরকারের প্রতি জনগণের কৃতজ্ঞ থাকা উচিৎ- এ কথাটির ইঙ্গিতবাহী গতানুগতিক সরকারি হামবড়া ভাবকেই নির্দেশ করে।”

জবাবে এমসিওয়াইএসের মুখপাত্র ব্যাখ্যা করেন যে পোস্টারের “আশাহীন” শব্দটি প্রতিবন্ধী ব্যক্তিদের নয়, বরং তাদের অবস্থার কারণে তারা যে আশাহীন বেদনা বোধ করে, তাকে নির্দেশ করেছে। মন্ত্রণালয়টি বলেছে যে এই প্রচারাভিযানটি আরো বেশি লোককে সমাজকর্মকে পেশা হিসেবে নিতে উদ্বুদ্ধ করার চেষ্টা করছে মাত্র।

আলোচনা শুরু করুন

লেখকেরা, অনুগ্রহ করে লগ ইন »

নীতিমালা

  • অনুগ্রহ করে অপরের মন্তব্যকে শ্রদ্ধা করুন. যেসব মন্তব্যে গালাগালি, ঘৃণা, অবিবেচনা প্রসূত ব্যক্তিগত আক্রমণ থাকবে সেগুলো প্রকাশের অনুমতি দেয়া হবে না .