বন্ধ করুন

আমাদের স্বেচ্ছাসেবক সম্প্রদায় কাজ করে যাচ্ছে বিশ্বের কোনা থেকে না বলা গল্পগুলো আপনাদের কাছে তুলে ধরতে। তবে আপনাদের সাহায্য ছাড়া আমরা তা পারব না। আমাদের সম্পাদনা, প্রযুক্তি এবং প্রচারণা দলগুলোকে সুষ্ঠুভাবে চলতে সহায়তার জন্যে আপনারা আপনাদের দানের অংশ থেকে কিছু গ্লোবাল ভয়েসেসকে দিতে পারেন।

সাহায্য করুন

উপরের ভাষাগুলো দেখছেন? আমরা গ্লোবাল ভয়েসেস এর গল্পগুলো অনুবাদ করেছি অনেক ভাষায় যাতে বিশ্বজুড়ে মানুষ এগুলো সহজে পড়তে পারে।

আরও জানুন লিঙ্গুয়া অনুবাদ  »

তিউনিশিয়াঃ আলোড়ন সৃষ্টিকারী সামির ফেরিয়ানিকে মুক্তি প্রদান করা হয়েছে

২২ সেপ্টেম্বর-এ, তিউনিশিয়ার এক সামরিক আদালত আলোড়ন সৃষ্টিকারী সামির ফেরায়ানিকে সাময়িকভাবে মুক্তি প্রদান করেছে। তিউনিশিয়ার স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের সমালোচনার দায়ে ২৯ মে, ২০১১ থেকে সামির ফেরিয়ানিকে আটকে রাখা হয়েছিল।

তাঁর গ্রেফতারের কয়েকদিন আগে, স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের প্রাক্তন এক উর্ধ্বতন কর্মকর্তা, আল খাবর নামক ম্যাগাজিনে [আরবী ভাষায়] (বিশেষজ্ঞ)দুটি চিঠি প্রকাশ করেন। সেখানে তিনি দাবি করেন যে, স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালযের গুরুত্বপূর্ণ পদে অবস্থানকারীরা, তিউনিশিয়ার বিপ্লবে শান্তিপূর্ণ বিক্ষোভকারীদের খুন করার জন্য দায়ী। এছাড়াও তিনি দাবী করেন, যে বিশেষ নথিতে তিউনিশিয়ার বিতাড়িত রাষ্ট্রপতি জিনে এল আবেদিন বেন আলি-এর সাথে ইজরায়েল-এর গোয়েন্দা সংস্থা মোসাদের সহযোগিতার বিষয়টি জানা গেছে, স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয় ইচ্ছাকৃতভাবে সেগুলো ধ্বংস করে ফেলেছে।

Samir Ferian. Photo by Yassine Gaidi via Facebook Page "Tous Uni Avec Samir Feriani"

সামির ফেরিয়ানি, ছবি ইয়ায়সিন গাইদির,“ তু উনি আভেক সামির ফেরিয়ানি” নামক ফেসবুক পাতার মাধ্যমে পাওয়া।

জনতা, ফেরিয়ানির প্রতি সহানুভূতিশীল এবং প্রায়শই তাকে বিপ্লব পরবর্তী তিউনিশিয়ার “বিবেকের বন্দী” হিসেবে অভিহিত করে থাকে। তার গ্রেফতারের পর থেকে এর বিরুদ্ধে বিক্ষোভের আয়োজন করা হচ্ছিল এবং তার দ্রুত মুক্তির জন্য অনলাইন প্রচারণা সংগঠিত করা হয়েছিল।

ফেরিয়ানির মুক্তির সংবাদে জনতা ইতিবাচক প্রতিক্রিয়া প্রদর্শন করেছে। এখানে টুইটারে আসা কিছু প্রতিক্রিয়া তুলে ধরা হল।

@ইয়েজ্জিফক:আস্থা রাখুন: ফেরিয়ানি মুক্ত # ফেরিয়ানি # তিউনিশিয়া

@emnamejri:je suis très contente mm si une liberté provisoire mais c un bon signe #FreeFeriani

@ এমনামেজিরি: আমি খুব খুশি। এটি একটি ভাল দিক, যদিও তাকে সামযিকভাবে ভাবে মুক্তি দেওয়া হয়েছে

@omessaoud:La libération même provisoire de Samir #FERIANI est une excellente nouvelle #FreeFeriani

@ অমেসাউদ যদি সামির ফেরিয়ানিকে সাময়িকভাবে মুক্তি দেওয়া হয়েছে, তারপরেও এটি একটি ভালো সংবাদ।

ফেরিয়ানির বিরুদ্ধে, “রাষ্ট্রের অভ্যন্তরীণ নিরাপত্তার ক্ষতি সাধন”, “ জন শৃঙ্খলার জন্য ক্ষতিকর এমন তথ্য প্রকাশ এবং তা বিতরণ” এবং কোন ধরনের প্রমাণ ছাড়া অভিযুক্ত করা, এমন আইন ভঙ্গকারী সরকারি কর্মকর্তা” এমন অভিযোগ আনা হয়েছে। তার মামলাকে সামরিক আদালতে স্থানান্তর করা হয়। আগামী ২৯ সেপ্টেম্বরে তিউনিশিয়ার সামরিক আদালত তার এই মামলার বিষয়ে এক শুনানী গ্রহণ করবে।

লিলিওপাট্রা লিখেছে:

Moment extraordinaire, le juge a prononcé la libération de Samir Feriani …mais attention ce n'est qu'une liberté PROVISOIRE ;le procès a été reporté au jeudi prochain 29 septembre 2011. […] Après 117 jours de détention à la caserne militaire de l'Aouina, Samir retrouve enfin sa famille, ses enfants, sa femme, ses proches et surtout sa mère qui a fondu le coeur de tous les braves tunisiens…

একটি অসাধারণ মুহূর্ত, বিচারক সামির ফেরিয়ানিকে মুক্তি প্রদানের ঘোষণা করেছে… যদিও তা শুধুমাত্র সাময়িক। আগামী বৃহস্পতিবার, ২৯ সেপ্টেম্বর পর্যন্ত বিচার কার্য মূলতবি থাকবে। লাউইনার এক সামরিক ব্যারাকে ১১৭ দিন যাবত বন্দী থাকার পর, অবশেষে সামির তার পরিবারে কাছে ফিরে গেল, তার সন্তান, তার স্ত্রীর এবং তার মায়ের সাথে মিলিত হল, যার প্রতি সকল সাহসী তিউনিশীয় নাগরিক সহানুভূতিশীল ছিল……।

তবে এখনো বিষয়টি পরিষ্কার নয়, কেন ফেরিয়ানিকে তিন মাস আটক অবস্থায় থাকতে হল। সামেহ এই প্রশ্নটি উত্থাপন করেছে:

سمير علاش قعد في الحبس المدّة هذيكا الكلّ ياخي القانون اللي سمحلو يخرج اليوم ما كانس يسمح باش يخرجو البارح؟
কেন সামিরকে এতটা সময় কারাগার কাটাতে হল? তার মানে, আজ আইন তাকে মুক্ত করে দিল, গতকাল কি এই ঘটনা ঘটতে পারত না?

আলোচনা শুরু করুন

লেখকেরা, অনুগ্রহ করে লগ ইন »

নীতিমালা

  • অনুগ্রহ করে অপরের মন্তব্যকে শ্রদ্ধা করুন. যেসব মন্তব্যে গালাগালি, ঘৃণা, অবিবেচনা প্রসূত ব্যক্তিগত আক্রমণ থাকবে সেগুলো প্রকাশের অনুমতি দেয়া হবে না .