বন্ধ করুন

আমাদের স্বেচ্ছাসেবক সম্প্রদায় কাজ করে যাচ্ছে বিশ্বের কোনা থেকে না বলা গল্পগুলো আপনাদের কাছে তুলে ধরতে। তবে আপনাদের সাহায্য ছাড়া আমরা তা পারব না। আমাদের সম্পাদনা, প্রযুক্তি এবং প্রচারণা দলগুলোকে সুষ্ঠুভাবে চলতে সহায়তার জন্যে আপনারা আপনাদের দানের অংশ থেকে কিছু গ্লোবাল ভয়েসেসকে দিতে পারেন।

সাহায্য করুন

উপরের ভাষাগুলো দেখছেন? আমরা গ্লোবাল ভয়েসেস এর গল্পগুলো অনুবাদ করেছি অনেক ভাষায় যাতে বিশ্বজুড়ে মানুষ এগুলো সহজে পড়তে পারে।

আরও জানুন লিঙ্গুয়া অনুবাদ  »

ব্লগ কার্নিভাল: নিকারাগুয়া – অভিবাসন


স্প্যানিশ গ্লোবাল ভয়েসেস দল ব্লগিং এবং ব্লগারদের নেটওয়ার্ক উন্নয়নে আগ্রহী এবং এ লক্ষ্যে ‘ব্লগারদের উৎসব‘ (ব্লগ কার্নিভাল) পালন করছে। এই উৎসবটিতে অংশগ্রহণের মাধ্যমে গ্লোবাল ভয়েসেসের (জিভি) ব্লগাররা বিভিন্ন বিষয়ের উপর প্রতিফলন ও বিশ্লেষণ করে প্রকৃত বিষয়টি উপস্থাপন করে উপকৃত হচ্ছে। নতুন এই কার্নিভাল উৎসব সম্পর্কে বিস্তারিত জানা যাক:

স্থান: নিকারাগুয়া

ব্লগ কার্নিভাল ২০১১ এর ভৌগলিক স্থান হিসেবে জিভি একটি অপরিচিত মধ্য আমেরিকান দেশ নিকারাগুয়াকে নির্বাচিত করেছে। নিকারাগুয়াতে আমাদের উল্লেখযোগ্য সংখ্যক সহযোগী ও ব্লগার বন্ধু আছে যারা এই সময় এত বড় উৎসবের পুরো দায়িত্ব নিয়েছে।

যদিও সবচেয়ে ভাল ও প্রখ্যাত ব্লগাররা রাজধানী মানাগুয়াতে থাকে, আমরা অন্য শহর থেকেও ব্লগারদের অংশগ্রহণ আশা করছি। এছাড়াও কার্নিভালের বিষয়ের (অভিবাসন) কারণে প্রবাসী নিকারাগুয়ান ব্লগারদের অংশগ্রহণও আশা করছি।

আমরা ব্যাখ্যা করে বলছি যে, নিকারাগুয়ান ব্লগারদের মধ্যে এই অংশগ্রহণ কোন নিয়মের অধীন নয়, নিকারাগুয়ায় বসবাসরত যে কোন ব্লগারই অংশ নিতে পারে।

বিষয়: অভিবাসন

বহু ল্যাটিন আমেরিকান দেশের মত নিকারাগুয়ার ইতিহাসেও অভিবাসন শুরু থেকে এখন পর্যন্ত বিদ্যমান, ঠিক যখন থেকে প্রথম দেশীয়রা দেশত্যাগ করেছিল, আফ্রিকান দাসরা নিকারাগুয়ান ক্যারিবিয়ান উপকূলে এসেছিল, স্প্যানিশরা শহর বানিয়েছিল এবং চীনা, ওলন্দাজ ও ইংরেজ জলদস্যুরা লুকানোর জন্য দখলে নিয়েছিল।

যুদ্ধ ও সামরিক সংঘাতের কারণে অস্তিত্ব রক্ষা এবং রাজনৈতিক কারণ, অবিরত ভূমিকম্প, ঘূর্ণিঝড় ও অগ্ন্যুৎপাতের কারণে অভিবাসন এই দেশে একটি গুরুত্বপূর্ণ ঘটনা হয়ে দাঁড়িয়েছে। এমনকি অর্থনৈতিক কারণও ব্যক্তিগতভাবে অভিবাসনের বিষয়টিকে প্রভাবিত করেছে।

যারা দেশত্যাগ করে, তাদের পিছনের ঘটনা কি? বাবা-মায়ের দেশত্যাগের ফলে পরিবারে এই অভিজ্ঞতা বৃদ্ধি পেয়েছে। শিশু-কিশোররা কোন যত্ন ছাড়াই বেড়ে উঠছে, এবং কিছু শিশুও পরিবারের সাহায্যের জন্য দেশত্যাগ করছে।

নিকারাগুয়ানদের এই ক্রমাগত অভিবাসন দেশটির সামাজিক ক্ষেত্রে কি প্রভাব ফেলছে? প্রতি ১০ জনে ৭ জন নিকারাগুয়ান বলেছে যে, তারা দেশত্যাগ করতে চায়; ২৬.৯% নিকারাগুয়ান পেশাজীবী বিদেশে থাকে এবং কাজ করে অর্থনৈতিক উন্নয়ন না হওয়ার কারণে তারা অভিবাসন প্রক্রিয়া চালিয়ে যাবে। নিকারাগুয়ান ব্লগগুলোতে এ বিষয়ে কী আলোচনা হচ্ছে?

অংশগ্রহণ:

এ বছর এই কার্নিভালটি আগ্রহী নিকারাগুয়ান ব্লগারদের একটি দল দ্বারা পরিচালিত হচ্ছে, যারা সেপ্টেম্বর ১-১0, ২০১১ পর্যন্ত প্রস্তাবিত বিষয়ের ব্যাপারে ব্লগের জন্য দৃষ্টি দিয়েছেন। যা হোক, আগের কার্নিভালগুলোর মত যে কোন নিকারাগুয়ান ব্লগার অভিবাসনের বিষয়ে তার ব্লগে লিখে এতে অংশ নিতে পারেন। এই লেখাটি মৌলিক হওয়া চাই, অন্য ভাষায়, কোন জায়গা থেকে অনুকরণ করা যাবে না। লেখাটির গঠন, বিন্যাস ও বিস্তৃতি ব্লগারের দক্ষতার উপর নির্ভর করে।

স্বেচ্ছাসেবীদের এই দলটি এই উৎসবের জন্য ব্লগ লিখেছেন এবং সক্রিয়ভাবে ফেসবুক এবং টুইটার ব্যবহার করছেন, যেখানে আপনি ‘#ব্লগসনি’ এবং ‘#মাইগ্রেশন’ হ্যাশটাগ অনুসরণের মাধ্যমে কার্নিভাল সম্পর্কে জানতে পারবেন।

কার্নিভালে অংশগ্রহণের সময় শেষ হবার পর লেখাগুলো বিবেচনা করে গ্লোবাল ভয়েসেস তার সারাংশ সংকলনের ব্যবস্থা করবে। আমরা লেখাগুলো থেকে পর্যাপ্ত পরিমাণে উদ্ধৃত করতে পারব কিনা তা নির্ভর করছে অংশগ্রহণের ব্যাপ্তির উপর কারণ স্থানাভাব রয়েছে। এখানে যে কোন প্রশ্ন করা যেতে পারে। কলম্বিয়া, ইকুয়েডর, ভেনেজুয়েলা, পেরু, এবং মেক্সিকোতে আমাদের আগের ব্লগ কার্নিভাল সম্পর্কে আপনি জেনে নিতে পারেন।

বি.দ্র.: এটি কোন প্রতিযোগিতা নয়, এখানে কোন জয়ী বা পরাজিত নেই। এটির উদ্দেশ্য অংশগ্রহণ, সহযোগিতা, এবং প্রস্তাবিত বিষয়ে গল্প সংগ্রহ যাতে আলোচ্য বিষয়ের উপর বিভিন্ন দৃষ্টিভঙ্গি এবং সাম্প্রতিক একটি চিত্র পাওয়া যায়।

আমরা আপনার সমর্থন, সহযোগিতা ও অংশগ্রহণ আশা করছি।

আলোচনা শুরু করুন

লেখকেরা, অনুগ্রহ করে লগ ইন »

নীতিমালা

  • অনুগ্রহ করে অপরের মন্তব্যকে শ্রদ্ধা করুন. যেসব মন্তব্যে গালাগালি, ঘৃণা, অবিবেচনা প্রসূত ব্যক্তিগত আক্রমণ থাকবে সেগুলো প্রকাশের অনুমতি দেয়া হবে না .