বন্ধ করুন

আমাদের স্বেচ্ছাসেবক সম্প্রদায় কাজ করে যাচ্ছে বিশ্বের কোনা থেকে না বলা গল্পগুলো আপনাদের কাছে তুলে ধরতে। তবে আপনাদের সাহায্য ছাড়া আমরা তা পারব না। আমাদের সম্পাদনা, প্রযুক্তি এবং প্রচারণা দলগুলোকে সুষ্ঠুভাবে চলতে সহায়তার জন্যে আপনারা আপনাদের দানের অংশ থেকে কিছু গ্লোবাল ভয়েসেসকে দিতে পারেন।

সাহায্য করুন

উপরের ভাষাগুলো দেখছেন? আমরা গ্লোবাল ভয়েসেস এর গল্পগুলো অনুবাদ করেছি অনেক ভাষায় যাতে বিশ্বজুড়ে মানুষ এগুলো সহজে পড়তে পারে।

আরও জানুন লিঙ্গুয়া অনুবাদ  »

জাম্বিয়াঃ জাম্বিয়ার নির্বাচনকে সামনে রেখে নেট নাগরিকরা ভ্লগ চালু করেছে

জাম্বিয়ার এক রাজনীতিবীদ এক নতুন চিন্তা নিয়ে তাঁর রাজনৈতিক এবং আর্থ সামাজিক বার্তা পৌঁছে দেবার জন্য ভিডিও ব্লগের মাধ্যমে। সাধারণ ভাবে যাকে ভ্লগ হিসেবে অভিহিত করা হয়। মূলত আগামী ২০ সেপ্টেম্বরে অনুষ্ঠিত হতে যাওয়া নির্বাচনকে সামনে রেখে তিনি এই উদ্যোগ নিয়েছেন, তিনি ইউটিউবে তাঁর ভিডিও প্রদর্শন করে থাকেন।

Gongs Jhala, Zambian video blogger. Photo source: Gongs Jhala Facebook page.

গংগস ঝালা জাম্বিয়ার এক ভিডিও ব্লগার। ছবিটি নেওয়া হয়েছে গংগস ঝালা-এর ফেসবুক থেকে।

গংগস ঝালা, দি গংস্টার নামে ভিডিও পোস্ট করে থাকে। তাঁর এই উদ্যোগের বিষয়ে লিখেন:

২০ সেপ্টেম্বর ২০১১ এর নির্বাচনের ক্ষেত্রে গুরুত্বপুর্ণ রাজনৈতিক এবং সামাজিক-অর্থনৈতিক বিষয়ে আলোচনার জন্য আমি এই সুন্দর চিন্তা নিয়ে হাজির হলাম। দয়া করে এখানে নীচে মন্তব্য বিভাগে এই বিষয়ে পরামর্শ প্রদান করুন অথবা ফেসবুক-এর, জাম্বিয়ান পিপলস প্যাক্ট-এ মন্তব্য করুন।

তাঁর প্রথম ভিডিও-র, শিরোনাম ছিল “গংগস এর রাজনৈতিক ভ্লগের এর সূচনা”, সেখানে তিনি জনতার কাছে আহ্বান জানিয়েছেন, যেন জনতা তার এই প্রচেষ্টার মুল্যায়ন করে এবং তাকে জানায় যে, এটা কি আসলে ভালো চিন্তা, নাকি তা নিছক সময়ের অপচয়।

http://www.youtube.com/watch?v=W44Kmku20YQ&feature=player_embedded

ঝালা যে এখন যুক্তরাজ্যে বাস করে, সে একই সাথে ফেসবুক ভিত্তিক রাজনৈতিক গ্রুপ, যার নাম জাম্বিয়ান পিপলস প্যাক্ট এর এক সক্রিয় কনট্রিবিউটর বা লেখক, যেখানে বিভিন্ন রাজনৈতিক দলগুলোর মধ্যে রাজনৈতিক মতাদর্শ বিনিময় হয়। এই সমস্ত দলগুলো আগামীতে অনুষ্ঠিত হতে যাওয়া রাষ্ট্রপতি, সংসদ এবং স্থানীয় সরকার, এই তিন ধরনের নির্বাচনে অংশ নিচ্ছে।

প্রথম ভ্লগের ব্যাপারে নীচ এই প্রতিক্রিয়াটি এসেছে:

আমি মনে করি এটা একটা দারুণ চিন্তা। কিন্তু আমরা যারা প্রবাসে বাস করি, তারা আমাদের মাতৃভূমি জাম্বিয়ার কর্মকাণ্ডের প্রতি এক ধরনের আগ্রহ বোধ করি, কিন্তু এই প্রান্ত থেকে সেখানকার নির্বাচনে ভোট দেবার কোন উপায় থাকে না। কাজে আশা করি এই সমস্ত ব্যক্তিরা (যেমন জেড রাজনীতিবীদ) আমাদের মত প্রবাসীদের জন্য কিছু কর্মকাণ্ড গ্রহণ করবে, যাতে আমরা সাধারণ নির্বাচন সহ সব ধরনের নির্বাচনে ভোট দিতে সক্ষম হই।

ঝালার দ্বিতীয় ভিডিও’ যে সমস্ত জাম্বিয়ার নাগরিক প্রবাসে বাস করে তাদের চুপ থাকতে বলা হয়েছে”। এটি জাম্বিয়া পিপলস প্যাক্টের একজনের প্রতিক্রিয়ায় লেখা হয়, যখন ঝালা তাঁর ভ্লগ সম্বন্ধে অন্যদের মন্তব্য খুঁজতে থাকেন।

এই ভিডিও-টি একজন কনট্রিবিউটর কাছ থেকে ভালো সাড়া পেয়েছে যে জাম্বিয়ার প্রতিবেশী দেশ বতসোয়ানায় এবং একই সাথে যুক্তরাজ্যে বাস করে।

বিষয়টিকে ভালো এক উদ্যোগ মনে হচ্ছে। দেখা যাচ্ছে আপনি ভালোই প্রস্তুতি নিয়েছেন। প্রবাসী জাম্বিয়ানদের প্রতি এই যে বৈষম্য, সেটিকে সামনে নিয়ে আসার এই প্রচেষ্টার জন্য আপনাকে ধন্যবাদ, আমি জাম্বিয়ায় তা দেখেছি, বতসোয়ানায় তা প্রত্যক্ষ করেছি, এখন যুক্তরাজ্যে তা দেখতে পাচ্ছি।

আরেকজন লেখক ঝালাস এর প্রচেষ্টার প্রশংসা করছে

ভালো বলেছেন গংগস। অন্য জাম্বিয়ার নাগরিকদের সম্বন্ধে কথা বলার জন্য এক জাম্বিয়ার নাগরিকের কোন কিছুর প্রয়োজন নেই। ভিন্ন মতকে অবশ্যই শ্রদ্ধা করতে হবে তা সে রাজনীতি, ধর্মীয় অথবা ভাষাগত কোন বিষয়ে বা সংযুক্তিতে। আমরা সকলে আমাদের মাতৃভূমি জাম্বিয়ার সবচেয়ে ভালো চাই, একে অপরের নিন্দা করা বন্ধ করি। এই ঘটনা আমাদেরকে মুল বিষয় থেকে অনেক দূরে সরিয়ে দেবে, যে বিষয়গুলোর উপর আমরা মনোযোগ প্রদান করা উচিত। জাম্বিয়ার সকল নাগরিকের জন্য ‘এক উত্তম জাম্বিয়া’ গড়া সহজ নয়, এমনকি প্রতিষ্ঠিত রাজনীতিবিদের জন্য তা সহজ নয়, বিশেষ করে যারা বিরোধী দলে আছে তারা জাম্বিয়ার রাষ্ট্র নিয়ন্ত্রিত টেলিভিশনে কথা বলার সুযোগ পায় না, যা কিনা জাতীর সবার কাছে সহজে পৌঁছে যায়, ভ্লগ ভবিষ্যতের এক মাধ্যম হতে পারে। বাকি যে দুটি বেসরকারি টিভি স্টেশন রয়েছে, সেগুলো সেভাবে জনতার কাছে পৌছাতে সমর্থ নয়।

যেমনটা থান্ডিএডমুন্ডো লিখেছে, ভ্লগ হয়ত ভবিষ্যতের একটা মাধ্যম হতে পারে।

আলোচনা শুরু করুন

লেখকেরা, অনুগ্রহ করে লগ ইন »

নীতিমালা

  • অনুগ্রহ করে অপরের মন্তব্যকে শ্রদ্ধা করুন. যেসব মন্তব্যে গালাগালি, ঘৃণা, অবিবেচনা প্রসূত ব্যক্তিগত আক্রমণ থাকবে সেগুলো প্রকাশের অনুমতি দেয়া হবে না .