বন্ধ করুন

আমাদের স্বেচ্ছাসেবক সম্প্রদায় কাজ করে যাচ্ছে বিশ্বের কোনা থেকে না বলা গল্পগুলো আপনাদের কাছে তুলে ধরতে। তবে আপনাদের সাহায্য ছাড়া আমরা তা পারব না। আমাদের সম্পাদনা, প্রযুক্তি এবং প্রচারণা দলগুলোকে সুষ্ঠুভাবে চলতে সহায়তার জন্যে আপনারা আপনাদের দানের অংশ থেকে কিছু গ্লোবাল ভয়েসেসকে দিতে পারেন।

সাহায্য করুন

উপরের ভাষাগুলো দেখছেন? আমরা গ্লোবাল ভয়েসেস এর গল্পগুলো অনুবাদ করেছি অনেক ভাষায় যাতে বিশ্বজুড়ে মানুষ এগুলো সহজে পড়তে পারে।

আরও জানুন লিঙ্গুয়া অনুবাদ  »

ম্যাসেডোনিয়া: পুলিশের নির্মমতার প্রতিবাদের উপর বিদেশী নাগরিকদের দৃষ্টিভঙ্গি

এই প্রবন্ধটি ম্যাসেডোনিয়া বিক্ষোভ সংক্রান্ত আমাদের বিশেষ কাভারেজের অংশ

ম্যাসেডোনিয়া পুলিশের নির্মমতার বিরুদ্ধে সাধারণ মানুষের প্রতিক্রিয়া নির্দেশ করছে প্রচলিত প্রচার মাধ্যমের আঁকড়ে ধরার ক্ষমতাকে, যারা এ ধরনের ‘অজনপ্রিয়’ সংবাদ প্রচার করতে খুব একটা আগ্রহী নয় এবং একবার যদি তথ্য চলে আসে তাহলে একাত্মতা তৈরির যে সুযোগ ঘটে এই ঘটনা তার গুরুত্বকে তুলে ধরছে।

জার্মানীতে বসবাসরত এক ম্যাসেডোনিয়ান নারী জাভানা তোজিজা এই ঘটনার উপর তার বন্ধুদের প্রতিক্রিয়া তুলে ধরেছে [ম্যাসেডোনিয়ান ভাষায়, ইংরেজী ভাষায়]

আমার অনেক বন্ধু আমাকে প্রশ্ন করেছে, ম্যাসেডোনিয়ায় কি ঘটেছে। তারা যখন দেখছে যে ফেসবুকে আমি অজানা অক্ষরের লিঙ্ক এবং সাইটে ভরে ফেলছি এবং যখন তারা দেখছে আমি আমার প্রোফাইলের ছবি পাল্টে ফেলেছি, তখন তাদের মনে এই প্রশ্নের উদয় হয়। আমি মার্টিন নেশকোভেস্কি হত্যার ঘটনা সম্বন্ধে তাদের বিস্তারিত জানালাম। এরপর তাদের যে প্রতিক্রিয়া এবং এই সংবাদ শোনার সাথে সাথে তাদের প্রাথমিক প্রতিক্রিয়ার বিষয়ে আমার বিশ্লেষণ এখানে তুলে ধরা হল।

এক রুশ মহিলা: তাতে কি হল? পুলিশ এক ব্যক্তিকে হত্যা করেছে। এই নিয়ে তোমরা এত হল্লা করছ কেন? এই ঘটনার ক্ষেত্রে তোমরা কিছু করতে পারবে না।

নিসন্দেহে, এই দেশে বাক স্বাধীনতার বিষয়ে সবাই ততটা সচেতনতা নয়। আমি ঠিক নিশ্চিত নই এর কারণ আসলে কি, তারা কি ভীত নাকি সেখানে বাক স্বাধীনতার বিষয়টি ততটা শক্তিশালী নয়। কিন্তু আমি জানি সেখানে সকল ক্ষমতা একদল গোষ্ঠীর হাতে এবং আক্ষরিক অর্থে সেখানে কারো কিছু করার নেই।

এক ইরানী নাগরিক: মাত্র একজন ব্যক্তি মারা গেছে?

এটা ছিল তার তৎক্ষণাৎ প্রতিক্রিয়া। এটা আসলে তার জন্য সহজ ছিল না। সে এর চেয়ে অনেক খারাপ কিছু দেখেছে। গত বছর ইরানে সবুজ বিপ্লব আন্দোলনের সময় সরকার তরুণদের হত্যা করেছে, শুধুমাত্র [আহমাদিনেজাদ] নির্বাচনে সংঘটিত ভোট জালিয়াতির স্বীকৃতি না দিতে চাওয়ার কারণে। সে সময় এই ভোট জালিয়াতি নিয়ে একদল তরুণ আন্দোলন করেছিল এবং তারা ব্যর্থ হয়েছিল। তাদের অনেকে এই বিক্ষোভে নিহত হয়েছে, আর আহমাদিনেজাদ এখনো ক্ষমতায় রয়েছে।

এক জার্মান নারী: কি ভাবে এটা সম্ভব যে দুইদিন ধরে নিহত ছেলেটির পরিচয় জানা সম্ভব হয়নি এবং এই বিষয়ে কোন মামলা দায়ের করা হয়নি?

এই দেশের জনতা জনতা এই ধরনের বাস্তবতার সাথে পরিচিত যে, জার্মানীতে কোন ঘটনা ঘটলে সে দেশের প্রতিষ্ঠান নিজে এগিয়ে সে তাদের করনীয় কাজ গুলো করে যায়। সে এখানে এই বিষয়ের প্রতি আগ্রহী নয় যে, কি ভাবে বিশেষ শাখার একদল পুলিশ এক তরুণকে হত্যা করল, তার কাছে আগ্রহের বিষয় কেন রাষ্ট্রীয় প্রতিষ্ঠান এই ঘটনাকে গ্রহণ করল না।

এক ক্রোয়েশীয় পুরষ: ওহ খোদা, পুলিশ আমাদেরকে আমাদের কবরস্থানে পাঠাতে চাচ্ছে।

এই ক্ষেত্রে আমার কোন মন্তব্য নেই এবং জানি না এ ব্যাপারে কি ভাবা উচিত। আমি ধারণা করছি সে সম্ভবত এসিএবি [ এসিএবি (আল কপস আর বাস্টার্ড বা সকল পুলিশ হারামী] তত্ত্বের দ্বারা প্রভাবিত।

বুলগেরিয়ার ব্লগার ইউরুকভ এই বিক্ষোভ শুরু হবার বেশ কিছুদিন পরে তার ব্লগে লিখেছে [বুলগেরীয় ভাষায়]:

কেন এক সপ্তাহ পরেও বুলগেরীয় প্রচার মাধ্যম এই বিক্ষোভের কোন সংবাদ প্রচার করল না? কেন আমরা শুধু টুইটারের মাধ্যমে এই ঘটনার সংবাদ জানতে পারলাম, এবং কেবলমাত্র ঘটনাক্রমে কয়েকজন ম্যাসিডোনীয় নাগরিককে অনুসরণ করার পর ? তারা কিসের জন্য অপেক্ষা করছিল? স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের কোন কর্মকর্তার কাছ থেকে বা হতে কোন আদেশের অপেক্ষায় ছিল[প্রধানমন্ত্রী বয়ইয়োকো বারিসভ]? এই সংবাদ কি ততটা দুর থেকে এসেছিল? আমরা কি ভীত ছিলাম যে, এই বিক্ষোভ বুলগেরিয়ায় ছড়িয়ে পড়লে দেশটিতে অস্থিরতা ছড়ানোর দায়ে প্রচার মাধ্যমকে অভিযুক্ত করা হবে? এমনকি যে সমস্ত সংবাদপত্রকে স্বাধীন বলে ধরা হয়, তারও কেন এই ক্ষেত্রে চুপ করে রইল? অথবা আমরা কি সংবাদটি জনপ্রিয় হওয়া পর্যন্ত অপেক্ষা করব, যাতে আমরা এই বিষয়টি নিয়ে কথা বলতে পারি?

ইয়রুকভ লিখেছে যে বিক্ষোভ শুরু হবার এক সপ্তাহ পরে বুলগেরিয়ার মাত্র দুটি ইন্টারনেট পোর্টাল এই সংবাদ প্রকাশ করে: ডির.বিজি এবং নিউজ.বিজি। ( আবার, এই দুই ব্যতিক্রমী প্রচার মাধ্যমও পরবর্তী সপ্তাহগুলোতে এই সংবাদের উপর আসা আর কোন নতুন সংবাদ প্রকাশ করেনি।)

স্লোভেনিয়ার এক মহিলাদের বাদক দল “কোম্বিনাট”-এর [স্লোভাক ভাষায়], এই বিক্ষোভ সমর্থন করার ঘটনা নিয়ে ওয়েবসাইটে পুলিশের বর্বরতা রোধ করুন শীর্ষক একটি প্রবন্ধ প্রকাশ করেছে [ম্যাসোডেনিয়া/স্লোভাক ভাষায়]:

আমরা এর সমর্থনে একটি ছবি পাঠিয়েছি, যা আমাদের কনসার্ট এর সময় তোলা হয়েছে [সেলজে], যা তোমাদের জন্য উৎসর্গকৃত, যারা ম্যাসেডোনিয়ার পুলিশের নির্মমতার বিরুদ্ধে প্রতিবাদ করেছে। ঠিক আছে, কনসার্টের একটি ছবিতে [ দরখাস্ত] স্বাক্ষর করে পাঠানো হল। স্লোভানিয়ার লোকজনের কোন ধারনা নেই ম্যাসিডোনিয়ায় কি ঘটছে, কারণ প্রচার মাধ্যম এই বিষয়ে কোন কিছু বলছে না অথবা লিখছে না,… আমরা আপনাদের প্রতি একাত্মতা ঘোষণা করছি এবং আমাদের সমর্থন গ্রহণ করুন, আমাদের চিন্তা এবং হৃদয় দিয়ে আমরা আপনাদের সাথে আছি…

নো পাসারান (শত্রুরা আমাদের পরাস্ত করতে পারবে না) !

স্লোভানিয়ার সেলজেতে কোম্বিনাট কনসার্ট, ছবি কোম্বিনাট-এর অনুমতিক্রমে ব্যবহৃত।

ম্যাসেডোনিয়ার প্রতিবাদকারীরা ম্যাসেডোনিয়ার বাইরের দেশের জনগণকে তাদের প্রতি সমর্থন প্রদানের জন্য আমন্ত্রণ জানাচ্ছে যাতে তারা বিক্ষোভাকারীদের সম্বন্ধে লেখে এবং তাদের উপর ভিডিও নির্মাণ করে তাদের প্রতি সমর্থন প্রদান করে।

এই প্রবন্ধটি ম্যাসেডোনিয়া বিক্ষোভ সংক্রান্ত আমাদের বিশেষ কাভারেজের অংশ

আলোচনা শুরু করুন

লেখকেরা, অনুগ্রহ করে লগ ইন »

নীতিমালা

  • অনুগ্রহ করে অপরের মন্তব্যকে শ্রদ্ধা করুন. যেসব মন্তব্যে গালাগালি, ঘৃণা, অবিবেচনা প্রসূত ব্যক্তিগত আক্রমণ থাকবে সেগুলো প্রকাশের অনুমতি দেয়া হবে না .