বন্ধ করুন

আমাদের স্বেচ্ছাসেবক সম্প্রদায় কাজ করে যাচ্ছে বিশ্বের কোনা থেকে না বলা গল্পগুলো আপনাদের কাছে তুলে ধরতে। তবে আপনাদের সাহায্য ছাড়া আমরা তা পারব না। আমাদের সম্পাদনা, প্রযুক্তি এবং প্রচারণা দলগুলোকে সুষ্ঠুভাবে চলতে সহায়তার জন্যে আপনারা আপনাদের দানের অংশ থেকে কিছু গ্লোবাল ভয়েসেসকে দিতে পারেন।

সাহায্য করুন

উপরের ভাষাগুলো দেখছেন? আমরা গ্লোবাল ভয়েসেস এর গল্পগুলো অনুবাদ করেছি অনেক ভাষায় যাতে বিশ্বজুড়ে মানুষ এগুলো সহজে পড়তে পারে।

আরও জানুন লিঙ্গুয়া অনুবাদ  »

ফ্রান্স-সেনেগাল: ওয়াদে বিরোধী বিক্ষোভকারীদের ফরাসী পুলিশ গ্রেফতার করেছে

সেনেগাল ২০১২ সালের ফ্রেব্রুয়ারি মাসে রাষ্ট্রপতি নির্বাচনের জন্য প্রস্তুতি নিচ্ছে। ভোটের কার্যক্রম শুরু হবার ঠিক আট মাস পরে এই নির্বাচন অনুষ্ঠিত হবে। সেনেগালের বর্তমান রাষ্ট্রপতির নাম আবদুল্লায়ে ওয়াদে। তিনি এক ক্ষমতাশালী ব্যক্তি। তার বয়স ৮৫ বছর। তবে ইতোমধ্যে তার বিভিন্ন কার্যক্রমে দেশটির নাগরিক সমাজ প্রতিবাদ জানিয়েছে।
এক আন্দোলন যার নাম “ যথেষ্ট হয়েছে আর না” (ইয়া আ মাখে) [ফরাসী ভাষায়], তা প্রথম ওয়েবে দৃশ্যমান হয় এবং তা দ্রুত তরুণদের মাঝে ছড়িয়ে পড়ে যারা ১৯ মার্চ, ২০১১-এ এক বিক্ষোভ প্রদর্শন করে। তারা বেকারত্ব, লোড শেডিং এবং সর্বোপরি ওয়াদে সরকারে নীতির বিরুদ্ধে বিক্ষোভ করে।

২৬ জুন-এ, দেশটির এক সংবিধান সংশোধনের ঘটনায় দেশটির রাজধানী ডাকারে ক্ষোভ এবং দাঙ্গা ছড়িয়ে পড়ে। এই সংশোধন অনুসারে ২৫ শতাংশ ভোটে রাষ্ট্রপতি (পুনরায়) নির্বাচিত হতে পারবে এবং এই সংশোধনীর মাধ্যমে রাষ্ট্রপতি তিনি তার নির্বাহী বিভাগের জন্য উপ-রাষ্ট্রপতির নতুন পদ সৃষ্টি করতে পারবেন।

ওই একই তারিখে ফ্রান্সে বাস করা প্রবাসী সেনেগালীরা এক বিক্ষোভের আয়োজন করে। তার সেখানে সেনেগালের দূতাবাস এবং কনস্যুলেট-এর সামনে জড়ো হয়। শীঘ্রই পুলিশ এই বিক্ষোভ ছত্রভঙ্গ করে, ঘটনা ক্রমে, প্যারিসে বাস করা মাদমাদো নামক এক টুইটার ব্যবহারকারী বিক্ষোভ সম্বন্ধে নীচের তাজা সংবাদ প্রদান করেছে:

পুলিশ #সেনেগাল দূতাবাসের সামনে বিক্ষোভ প্রদর্শন করতে থাকা বিক্ষোভকারীদের ধরতে থাকে [নোটঃ গ্রেফতার করতে থাকে] এবং সবকিছু খালি করে দেয়। শীঘ্রই আরো টুইট করব।#টিকেটওয়াদে

সেই একই টুইটার ব্যবহারকারী নীচের ছবিটি পোস্ট করেছে। এতে দেখা যাচ্ছে প্রবাসী সেনেগালীরা দূতাবাসের সামনে সমাবেত হয়েছে এবং ফরাসী পুলিশের টহলযান তাদের ঘিরে রেখেছে:

Demonstration at the Senegales embassy in France, June 23, 2011. @Madmadou on Twitter.

২৩ জুন, ২০১১-এ, ফ্রান্সে অবস্থিত সেনেগালের দূতাবাসের সামনে বিক্ষোভ প্রদর্শন। @মাদমাদো-এর টুইটার থেকে নেওয়া।

সেনেগালের সংবাদ ওয়েবসাইট, ওয়ালফ ফিদজিরি [ফরাসী ভাষায়], ব্যাখ্যা প্রদান করেছে যে দূতাবাসের সামনে থেকে প্রায় ২০০ জনের মত ব্যক্তিকে গ্রেফতার করা হয়েছে এবং কনস্যুলেট-এর সামনে থেকে অন্য ৩১ জনকে আটক করা হয়েছে।

নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক একজন বিক্ষোভকারীর বর্ণনা অনুসারে জনতা ঠিক বুঝে উঠতে পারেনি কেন জিজ্ঞাসাবাদের জন্য ফরাসী পুলিশ তাদের ধরে নিয়ে গিয়েছিল। সে এর সাথে যোগ করেছে:

Il parait que même les policiers ont été étonnés de recevoir un tel ordre.

এমনকি দেখে মনে হচ্ছিল যে এ রকম একটা আদেশে পুলিশ কর্মকর্তারাও বিস্মিত।

কনস্যুলেটের সামনের ঘটনা নিয়ে ডেইলিমোশনে-এ, একটি ভিডিও পোস্ট করা হয়েছে সোশালিস্ট পার্টি অফ সেনেগালের প্রোফাইলে। এতে দেখা যাবে যে প্রতিবাদকারীরা কনস্যুলেট ভবনের সামনে দাঁড়িয়ে আছে, তার ফরাসী পুলিশ কর্মকর্তারা গেটের সামনে দাঁড়িয়ে প্রতিবাদকারীদের গেটে প্রবেশে বাঁধা দিচ্ছে:


Occupation du Consulat du Sénégal à Paris contre… by socialisme-republique

প্যারিসে অবস্থিত সেনেগালের জেনারেল কনসাল (অন্যতম প্রধান দায়িত্বপ্রাপ্ত কর্মকর্তা) প্রতিবাদকারীদের বিরুদ্ধে আনুষ্ঠানিক ভাবে ভবন ক্ষতিগ্রস্ত [ফরাসী ভাষায়] করার অভিযোগ এনেছে ।

আলোচনা শুরু করুন

লেখকেরা, অনুগ্রহ করে লগ ইন »

নীতিমালা

  • অনুগ্রহ করে অপরের মন্তব্যকে শ্রদ্ধা করুন. যেসব মন্তব্যে গালাগালি, ঘৃণা, অবিবেচনা প্রসূত ব্যক্তিগত আক্রমণ থাকবে সেগুলো প্রকাশের অনুমতি দেয়া হবে না .