বন্ধ করুন

আমাদের স্বেচ্ছাসেবক সম্প্রদায় কাজ করে যাচ্ছে বিশ্বের কোনা থেকে না বলা গল্পগুলো আপনাদের কাছে তুলে ধরতে। তবে আপনাদের সাহায্য ছাড়া আমরা তা পারব না। আমাদের সম্পাদনা, প্রযুক্তি এবং প্রচারণা দলগুলোকে সুষ্ঠুভাবে চলতে সহায়তার জন্যে আপনারা আপনাদের দানের অংশ থেকে কিছু গ্লোবাল ভয়েসেসকে দিতে পারেন।

সাহায্য করুন

উপরের ভাষাগুলো দেখছেন? আমরা গ্লোবাল ভয়েসেস এর গল্পগুলো অনুবাদ করেছি অনেক ভাষায় যাতে বিশ্বজুড়ে মানুষ এগুলো সহজে পড়তে পারে।

আরও জানুন লিঙ্গুয়া অনুবাদ  »

মিশর: ওয়ায়েল ঘোনিমকে ছেড়ে দেওয়া হয়েছে?

এই পোস্টটি ২০১১ সালে মিশরের প্রতিবাদ বিপ্লব সম্পর্কে আমাদের বিশেষ কাভারেজের অংশ

Update: এই ঘটনার ক্ষেত্রে আমরা বেশ কিছু পরস্পর বিপরীত সংবাদ পেয়েছি এবং আমরা আরো প্রমাণের অপেক্ষা করছি, যাতে নিশ্চিত হয় যে ঘোনিমকে আসলেই ছেড়ে দেওয়া হয়েছে।

ইতোমধ্যে, ওয়াল স্ট্রিট জার্নাল যুক্তরাষ্ট্রের স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের এক সূত্রের উদ্ধৃতি প্রদান করেছে, যারা জানাচ্ছে, ঘোনিমকে যে মুক্তি প্রদান করা হয়েছে তার নিশ্চিত সংবাদ তাদের কাছে রয়েছে।

যখন মিশরীয় নাগরিকরা ক্রমাগত মুবারক সরকারের অপসারণ দাবি করে আসছে, সে সময়ের প্রেক্ষাপটে মিশরীয় সাইবার একটিভিস্ট এবং গুগলের কর্মী ওয়ায়েল ঘোনিমকে আজ ছেড়ে দেওয়া হয়েছে।

ছড়িয়ে পড়া ক্রমাগত এই বিক্ষোভের ১৪ তম দিনেও সারা মিশর জুড়ে মুবারক সরকারের পতনের দাবিতে বিক্ষোভ অনুষ্ঠিত হয়। ২৮ জানুয়ারি থেকে ঘোনিমের আর কোন খোঁজ পাওয়া যাচ্ছিল না। সে সময় তাহরির স্কোয়ারের বিক্ষোভকারীরা তাদের মুখপাত্র হিসেবে তার নাম উল্লেখ করে। ঘোনিমের মুক্তির দাবিতে বিক্ষোভকারীরা সরকারকে চাপ প্রয়োগ করে। তারা ফেসবুকে, একটি গ্রুপে, যার এডমিনিষ্ট্রেটর ঘোনিম, এবং অন্য সামাজিক প্রচার মাধ্যমে দেশটিতে পরিবর্তনের আহ্বান জানিয়েছিল।

মিশরীয় টিভি চ্যানেল গতকাল ঘোষণা দেয় যে, ঘোনিমকে আগামীকাল কায়রোর স্থানীয় সময় বিকেল ৪টায় মুক্তি প্রদান করা হবে। কিন্তু তার মুক্তির আনুষ্ঠানিক ঘোষণার বিষয়ে নিশ্চিত হবার জন্য সমর্থকদের এক ঘন্টার বেশি সময় অপেক্ষা করতে হয়।

যদিও সংবাদ মাধ্যম, টুইটার ব্যবহারকারী, এবং তার সাথে যাদের যোগাযোগ ছিল, তারা নিশ্চিত করেছিল যে তাকে ছেড়ে দেওয়া হচ্ছে, তারপরেও সারা বিশ্বের নেট নাগরিকরা আরো স্পষ্ট প্রমাণ চাইছিল।

@বেনসিএনএন:ওয়ায়েল@ঘোনিমকে ছেড়ে দেওয়া হয়েছে#তাহরির#মিশর#জান২৫

@এজেলাইভ: ওয়ায়েল ঘোনিম, গুগলের একজন কর্মী এবং রাজনৈতিক একটিভিস্ট। মিশর সরকার ২৫ জানুয়ারি তারিখে তাকে গ্রেফতার করে। এখন তাকে ছেড়ে দেওয়া হয়েছে। #মিশর

@দিমা_খাতিব: বেশ কয়েকটি সূত্র থেকে নিশ্চিত হওয়া গেছে যে একটিভিস্ট ওয়ায়েল ঘোনিমকে ছেড়ে দেওয়া হয়েছে#জান২৫,#মিশর

@হিশাম_জি:ওহ-হো!আরটি@হালাগোরানি: আরটি@ইভানসিএনএন, হাজ্জাম ঘোনিমের সাথে ফোনে কথা বলেছি, হাজ্জাম বলছে যে, ওয়াএল ঘোনিমকে ছেড়ে দেওয়া হয়েছে কিনা, সে সম্পর্কে তার কোন ধারণা নেই।

সৌদি টুইটারকারী এসসাম আল জামিল লিখেছে (আরবী ভাষায়) (Ar):

ننتظر رؤية صورة جديدة لوائل غنيم في ميدان التحرير.. او تويتة من حسابه.. عشان نرتاح مية بالمية #jan25 #Ghonim @Ghonim
আমরা তাহরির স্কোয়ারে ঘোনিমের উপস্থিতির ছবি অথবা অন্তত তার টুইটার একাউন্ট থেকে একটা টুইটের অপেক্ষায় আছি। এর ফলে আমরা নিশ্চিত হব যে সে ছাড়া পেয়েছে।

@দিমা_খাতিব: আপনাদের অনেক বলছেন যে: যতক্ষণ না আমরা @ঘোনিমের কাছ থেকে আসা কোন টুইট পাঠ করছি না, ততক্ষণ আমরা বিশ্বাস করছি না যে সে মুক্ত হয়েছে। এই সরকারের প্রতি জনগণের কোন আস্থা নেই।#জান#মিশর।

@এম্বিশনিস্টা: @এজেঅ্যারাবিক, আমাদের সুস্পষ্ট প্রমাণ দরকার যে তাকে ছেড়ে করা হয়েছে। যে সকল সংবাদ আসছে তা অন্যের কাছ থেকে আসছে! #জান২৫, তার ছবি চাই।@ঘোনিম।

অন্যের ব্যাক্তিগত পর্যায়ে এই ঘটনার সত্যতা যাচাই করতে চায়:

@সালমা_টিসটালl: ট্যাব, কার কাছে ওয়ায়েল ঘোনিমের ফোন নাম্বার আছে? দয়া করা জানাবেন কি? জান২৫, #মিশর

@খালিফা@ঘোনিম, মুক্ত জীবনে আবার স্বাগতম। কিছুটা সময় বিশ্রাম নিন এবং তারপর সারা বিশ্বকে জানান আসলে কি ঘটেছিল।

ঘোনিম, @ঘোনিম-এ টুইট করে। যখন ঘোনিম অনলাইনে ফিরে আসবে এবং তার কাহিনী তুলে ধরবে, তখনকার তাজা সংবাদ শোনার জন্য আমাদের সাথে থাকুন।

এই পোস্টটি ২০১১ সালে মিশরের প্রতিবাদ বিপ্লব সম্পর্কে আমাদের বিশেষ কাভারেজের অংশ

আলোচনা শুরু করুন

লেখকেরা, অনুগ্রহ করে লগ ইন »

নীতিমালা

  • অনুগ্রহ করে অপরের মন্তব্যকে শ্রদ্ধা করুন. যেসব মন্তব্যে গালাগালি, ঘৃণা, অবিবেচনা প্রসূত ব্যক্তিগত আক্রমণ থাকবে সেগুলো প্রকাশের অনুমতি দেয়া হবে না .