বন্ধ করুন

আমাদের স্বেচ্ছাসেবক সম্প্রদায় কাজ করে যাচ্ছে বিশ্বের কোনা থেকে না বলা গল্পগুলো আপনাদের কাছে তুলে ধরতে। তবে আপনাদের সাহায্য ছাড়া আমরা তা পারব না। আমাদের সম্পাদনা, প্রযুক্তি এবং প্রচারণা দলগুলোকে সুষ্ঠুভাবে চলতে সহায়তার জন্যে আপনারা আপনাদের দানের অংশ থেকে কিছু গ্লোবাল ভয়েসেসকে দিতে পারেন।

সাহায্য করুন

উপরের ভাষাগুলো দেখছেন? আমরা গ্লোবাল ভয়েসেস এর গল্পগুলো অনুবাদ করেছি অনেক ভাষায় যাতে বিশ্বজুড়ে মানুষ এগুলো সহজে পড়তে পারে।

আরও জানুন লিঙ্গুয়া অনুবাদ  »

লেবানন: মিশরের সমর্থনে বিক্ষোভ

এই পোস্টটি ২০১১ সালে মিশরের প্রতিবাদ বিপ্লব সম্পর্কে আমাদের বিশেষ কাভারেজের অংশ

লেবাননের রাজধানী বৈরুতে, মিশরীয় দূতাবাসের কাছেই মিশরের বিক্ষোভ প্রতিবাদের প্রতি সমর্থন জানিয়ে এক বিক্ষোভ প্রদর্শনের আয়োজন করা হয়। যখন মিশরীয় নাগরিকরা রাষ্ট্রপতি হোসনি মুবারকের ৩০ বছরের শাসনের বিরুদ্ধে ক্রমাগত বিক্ষোভ প্রদর্শন করে যাচ্ছে, তখন সারা বিশ্ব থেকে একই ধরনের বিক্ষোভ প্রদর্শনের খবর আসছে।

ছবি সহ, বেশ কিছু ধারাবাহিক টুইট বার্তায় টুইটার ব্যবহারকারী নাসসার নামক ভদ্রমহিলা তার পর্যবেক্ষণ ব্যক্ত করেছে। ১৫০ থেকে ২০০ জনের মত সমর্থক এই বিক্ষোভে উপস্থিত হয়। যাদেরকে লেবাননের নিরাপত্তা বাহিনী খুব কাছ থেকে পর্যবেক্ষন করছিল। প্রতিবাদকারীদের মিশর এবং তিউনিশিয়া, উভয় রাষ্ট্রের পতাকা উড়াতে দেখা যায়।

অ্যানজি টুইট করেছে:

এই মূহূর্তে লেবাননে অবস্থিত মিশরীয় দূতাবাসের সামনে এক শক্তিশালী বিক্ষোভ প্রদর্শিত হচ্ছে।http://yfrog.com/hs5v3nj

Lebanese protest in support of Egyptians

মিশরীয় বিক্ষোভকারীদের সমর্থনে বৈরুতের মিশরীয় দূতাবাসের কাছেই লেবাননের বিক্ষোভকারীরা বিক্ষোভ প্রদর্শন করে।

এই ঘটনার ফলাফল জানিয়ে পরবর্তী টুইটে সে উল্লেখ করেছে:

লেবাননের নিরাপত্তা বাহিনী তারকাঁটার পেছনে দাঁড়িয়ে প্রস্তুত হয়েছিল, লেবাননের এই মিশরীয় দূতাবাসের সামনে যেন জনতার কোন বিস্ফোরণ না ঘটে। http://yfrog.com/h8cy8lbj

Security forces stand in alert

নিরাপত্তা বাহিনী সতর্ক অবস্থায় দাঁড়িয়ে রয়েছে।

এবং তার যুক্তিকে প্রমাণ করার জন্য তিনি এর সাথে যোগ করেছেন:

মিশরীয় দূতাবাসের সমানে প্রতিবাদকারীদের দিকে জল কামান তাক করে রাখা হয়েছে#লেবানন, এ সব কিছু এখনই ঘটছে।http://yfrog.com/h4wo6rrj

Water cannons pointed at protesters

প্রতিবাদকারীদের দিকে জল কামান তাক করে রাখা হয়েছে

এনজি জানাচ্ছে, প্রতিবাদকারীরা মিশরের রাষ্ট্রপতি হোসনি মুবারাক এবং যুক্তরাষ্ট্র, উভয়ের বিরুদ্ধে স্লোগান দিচ্ছে:

লেবাননের প্রতিবাদকারীরা যুক্তরাষ্ট্রের হাতিয়ার হিসেবে ব্যবহার হবার কারণে #মুবারকের বিরুদ্ধে স্লোগান দেয়। তারা দূতাবাসের সামনে বিক্ষোভ প্রদর্শনের সময় এই আওয়াজ তোলে। http://yfrog.com/hs56448414j

Lebanese protesters should anti-Mubarak chants

লেবাননের বিক্ষোভকারীরা মুবারক বিরোধী স্লোগান প্রদান করছে।

তার সাম্প্রতিক টুইটে সে জানাচ্ছে যে, প্রতিবাদকারীরা সংখ্যায় বাড়ছে, এখন বিক্ষোভকারীদের সংখ্যা ৩০০ জনে এসে দাঁড়িয়েছে।

দেখা যাচ্ছে #লেবানন-এর #মিশরীয় দূতাবাসের সামনে বিক্ষোভকারীদের সংখ্যা ক্রমশ বাড়ছে। এর সংখ্যা প্রায় ৩০০ জনে এসে দাঁড়িয়েছে।

এই পোস্টটি ২০১১ সালে মিশরের প্রতিবাদ বিপ্লব সম্পর্কে আমাদের বিশেষ কাভারেজের অংশ

আলোচনা শুরু করুন

লেখকেরা, অনুগ্রহ করে লগ ইন »

নীতিমালা

  • অনুগ্রহ করে অপরের মন্তব্যকে শ্রদ্ধা করুন. যেসব মন্তব্যে গালাগালি, ঘৃণা, অবিবেচনা প্রসূত ব্যক্তিগত আক্রমণ থাকবে সেগুলো প্রকাশের অনুমতি দেয়া হবে না .