বন্ধ করুন

আমাদের স্বেচ্ছাসেবক সম্প্রদায় কাজ করে যাচ্ছে বিশ্বের কোনা থেকে না বলা গল্পগুলো আপনাদের কাছে তুলে ধরতে। তবে আপনাদের সাহায্য ছাড়া আমরা তা পারব না। আমাদের সম্পাদনা, প্রযুক্তি এবং প্রচারণা দলগুলোকে সুষ্ঠুভাবে চলতে সহায়তার জন্যে আপনারা আপনাদের দানের অংশ থেকে কিছু গ্লোবাল ভয়েসেসকে দিতে পারেন।

সাহায্য করুন

উপরের ভাষাগুলো দেখছেন? আমরা গ্লোবাল ভয়েসেস এর গল্পগুলো অনুবাদ করেছি অনেক ভাষায় যাতে বিশ্বজুড়ে মানুষ এগুলো সহজে পড়তে পারে।

আরও জানুন লিঙ্গুয়া অনুবাদ  »

মেক্সিকো: তিন রাজার কেক উৎসব

মেক্সিকোর নাগরিকদের মধ্যে এক সাধারণ প্রথা চালু রয়েছে, তা হচ্ছে ৬ জানুয়ারি তারিখে পরিবারের সবাই একসাথে হওয়া এবং এক বিশেষ কেক “রোসকা ডে রেইয়েস” (যার অর্থ “রাজার কেক”) খাওয়া। সেই কেকের মধ্যে যাদের অংশে প্লাস্টিকের পুতুল পাওয়া যাবে, তারা ২ ফেব্রুয়ারি তারিখে সকলের জন্য মেক্সিকোর খাবার কিনবে। বেশ কয়েকজন ব্লগার এই ঐতিহ্য ও এর অর্থ কি, এবং কি ভাবে তা উদযাপন করা হয়, সে সম্বন্ধে জানাচ্ছে।

ব্লগ ওয়ান লাকি লাইফ রাজার কেক-এর ব্যাপারে যে ঐতিহ্য চালু রয়েছে, সে সম্বন্ধে বর্ণনা করছে:

বিখ্যাত “রাজার কেক” নামক ঐতিহ্যপূর্ণ উৎসব পরিবারের সাথে পালন করা হয়। আমি যখন ছোট ছিলাম, তখন থেকে আমি এই উৎসবের কথা স্মরণ করতে পারি। আমার অংশে প্লাস্টিকের পুতুল পড়ে কি না, তার কথা ভেবে আমি সব সময় উদ্বিগ্ন থাকতাম। যারা এই ঐতিহ্যের সঙ্গে পরিচিত নয়, আমি তাদেরকে এই বিষয়ে বিস্তারিত ব্যাখ্যা প্রদান করব:

মেক্সিকোতে ৬ জানুয়ারি তারিখে পরিবারের সবাই একত্রিত হয় এবং বিখ্যাত “রোসকা ডে রেইয়েস: (যার মানে হচ্ছে কেকের রাজা) কাটে। এটা বিশাল অনেকটা গোলাকার এক কেক/ পাউরুটি, যা সুন্দর করে কাটা ফল এবং শক্ত চিনির টুকরো দিয়ে সাজানো থাকে। এই কেকের টুকরোর ভেতর আপনি ছোট ছোট প্লাস্টিকের পুতুল পাবেন এবং যদি আপনার অংশে পুতুল পাওয়া যায়, তাহলে আপনাকে ২ ফ্রেব্রুয়ারির তারিখে পরিবারের সবাইকে টামালেস খাবার দাওয়াত দিতে হবে!

ব্লগ নিউ সান্তা আনায় মাইক গনজালেজ পাঠকদের জানাচ্ছেন, কেন কেকের ভেতরে প্লাস্টিকের পুতুল থাকে, যেগুলো যিশুখ্রিষ্টের প্রতিনিধিত্ব করে।

কেকের ভেতরে ট্রিংকেট (শিশু যিশুর প্রতিমূর্তি) রাখার প্রথা অনেক পুরোনো। শিশু যিশুকে রুটির ভেতরে লুকিয়ে রাখার বিষয়টি যিশুর এলাকা ত্যাগের ঘটনাটির প্রতিনিধিত্ব করে। যিশু যখন শিশু, তখন রাজা হেরাদের পরিকল্পনা করেছিল, সে এলাকার সকল শিশুকে মেরে ফেলা হবে, কারণ সে জানতে পরেছিল যে, সেখানে এমন এক শিশুর জন্ম হয়েছে, যে ভবিষ্যৎ-এ হবে ঈশ্বরের প্রেরিত পুরুষ। এই কেকের মধ্যে শিশুর যিশুর প্রতিমূর্তি পুতুলটি যে পাবে, সেই আর্শীবাদ প্রাপ্ত হবে এবং অবশ্যই এই পুতুলকে ক্যান্ডেলমাস ডে নামে পরিচিত ২ ফ্রেব্রুয়ারি তারিখে নিকটস্থ গির্জায় দিয়ে আসতে হবে। মেক্সিকোর সংস্কৃতিতে পুতুল প্রাপ্ত এই ব্যক্তিকে অবশ্যই একটা ভোজের আয়োজন (পার্টি) করতে হবে, এই ভোজে অতিথিদের টামালেস এবং এ্যাটোল (বিশেষ পানীয়) খাওয়াতে হবে।

ব্লগ নিবলেস এন্ড ফিয়েস্তাস -এ ব্লগার এরিকা ব্যাখ্যা করছে, কেন যে ব্যক্তি প্লাস্টিকের পুতুল পাবে, তাকে অবশ্যই ফ্রেব্রুয়ারির ২ তারিখে পরিবারের অন্যদের মেক্সিকোর খাবার দিয়ে ভোজন করাতে হবে:

ঐতিহ্য অনুসারে যে তার মিস্টি রুটির টুকরার মধ্যে এই প্লাস্টিকের পুতুল পাবে, সে ক্যান্ডেলমাস ডে বা ডিয়া ডে লা ক্যান্ডেলারিয়ার দিনে অতিথিদের টামালেস, গরম চকোলেট এবং এ্যাটোলে খাওয়াবে। ক্যান্ডেলমাস হচ্ছে সেই দিন যেদিন মেরি, তার শিশু সন্তান যিশুকে প্রার্থনা কেন্দ্রে নিয়ে গিয়েছিল এবং ঐতিহ্যগতভাবে সেদিন ক্যাথলিক চার্চে মোমবাতি প্রদান করা হয়।

Typical "Rosca de Reyes" from Mexico image by Flickr user A30_Tsitika  used under a Creative Commons Attribution-Share Alike license

মেক্সিকোর প্রথাগত এক ঐতিহ্য “রোসকা ডে রেইয়েস” নামক কেক। ছবি ফ্লিকার ব্যবহারকারী এ৩০_টিসিটিকার। ক্রিয়েটিভ কমন্স এট্রিবিউশন-শেয়ার এলাইক লাইসেন্স এর অধীনে তা ব্যবহার করা হয়েছে।

নিবলেস এন্ড ফিয়েস্তাস নামক ব্লগে রাজার কেকের রন্ধন প্রণালী পাওয়া যাবে

সবশেষে ২০০৮ সালে আমেরিকান ব্লগার জো এক বিদেশির দৃষ্টিতে রাজার কেক-এর ঐতিহ্য সম্বন্ধে লিখেছিল:

ঠিক আছে, কাজেই রোসকা ডে রেইয়েস নামক কেকটি আসলে তেমন বিচিত্র কিছু নয়, তবে আমার কাছে বিষয়টি নতুন। এই সপ্তাহটি মেক্সিকোতে এক উৎসবের সপ্তাহ (যারা দীর্ঘ দিন ধরে আমার ব্লগের পাঠক: আপনারা জেনে গেছেন যে এখানে সব সময় উৎসব লেগে থাকে, তাই নয় কি?) কারণ ৬ জানুয়ারি, যা রাজার দিন (ডিয়া ডে রেইয়েস) নামে পরিচিত, সেদিনকে একই সাথে এপিফানি (এই দিনে প্রাচ্যের তিনজন জ্ঞানী ব্যক্তি সদ্যজাত যিশুকে দেখতে আসেন, মূলত এই তিনজনের নাম থেকে থ্রি কিংস কেক বা তিন রাজার কেক নামটি এসেছে) হিসেবে জানা যায়। সাধারণত, ঐতিহ্যগত ভাবে এই দিনে মেক্সিকোর শিশুদের উপহার প্রদান করা হয়। বছরের এই সময়টা রোসকা ডে রেইয়েস নামক অনুষ্ঠান উৎসবের জন্য উৎসর্গকৃত। (দেশটির রাজধানী মেক্সিকো সিটিতে এক বিশাল রোসকা এবং এক শোভাযাত্রার আয়োজন করা হয়)

মারদি গ্রাস (মূলত এপিফানি এবং তার পরের কয়েকদিন ধরে চলা উৎসব) ঐতিহ্য অনুসারে যে রাজার কেক তৈরি করা হয়, সেই কেকের স্বাদও একই ধরনের-এমনকি সেই কেকের ভেতরে শিশু যিশুর মূর্তি পাওয়া যায়। (বিশেষ তথ্য: আমি এই প্রথম কেকের মধ্যে শিশু যিশুর মূর্তি খুঁজে পেয়েছি। তার মানে হচ্ছে এই মাসের শেষে ব্রেনডানকে আমার বাসায় দাওয়াত করতে হবে এবং তাকে টামালেস খাওয়াতে হবে। কিন্তু ঘটনা হচ্ছে একটি কেকের মধ্যে অসংখ্য শিশু যিশুর মূর্তি থাকে।)

আলোচনা শুরু করুন

লেখকেরা, অনুগ্রহ করে লগ ইন »

নীতিমালা

  • অনুগ্রহ করে অপরের মন্তব্যকে শ্রদ্ধা করুন. যেসব মন্তব্যে গালাগালি, ঘৃণা, অবিবেচনা প্রসূত ব্যক্তিগত আক্রমণ থাকবে সেগুলো প্রকাশের অনুমতি দেয়া হবে না .