বন্ধ করুন

আমাদের স্বেচ্ছাসেবক সম্প্রদায় কাজ করে যাচ্ছে বিশ্বের কোনা থেকে না বলা গল্পগুলো আপনাদের কাছে তুলে ধরতে। তবে আপনাদের সাহায্য ছাড়া আমরা তা পারব না। আমাদের সম্পাদনা, প্রযুক্তি এবং প্রচারণা দলগুলোকে সুষ্ঠুভাবে চলতে সহায়তার জন্যে আপনারা আপনাদের দানের অংশ থেকে কিছু গ্লোবাল ভয়েসেসকে দিতে পারেন।

সাহায্য করুন

উপরের ভাষাগুলো দেখছেন? আমরা গ্লোবাল ভয়েসেস এর গল্পগুলো অনুবাদ করেছি অনেক ভাষায় যাতে বিশ্বজুড়ে মানুষ এগুলো সহজে পড়তে পারে।

আরও জানুন লিঙ্গুয়া অনুবাদ  »

মিশর: ছবিতে ২৫ জানুয়ারির বিক্ষোভ

এই পোস্টটি মিশরের প্রতিবাদ বিক্ষোভ-২০১১ এর উপর করা আমাদের বিশেষ প্রতিবেদন-এর অংশ।

একটি ছবি হাজার টুইটের চেয়ে বেশি কথা বলে, বিশেষ করে যখন মিশরে আজকের চলমান বিক্ষোভের প্রদর্শনের তথ্য যাতে প্রকাশ না হয় তার জন্য টুইটার বন্ধ করে রাখা হয় । আজ মিশরে সেই বিক্ষোভ অনুষ্ঠিত হচ্ছে।

মিশরীয় ব্লগার জেইনোবিয়া নামক ভদ্রমহিলা সিদ্ধান্ত নিয়েছিলেন যে, এই দিনে তিনি তার ক্যামেরা নিয়ে বের হয়ে পড়বেন এবং রাস্তায় গিয়ে কিছু ছবি তুলবেন এবং সেগুলো তার ফ্লিকার একাউন্টে উঠিয়ে দেবেন:

Jan25: Thousands of Security Forces
আজ সকাল বেলা রাজধানী কায়রোতে নিরাপত্তা বাহিনীর দশ হাজার সদস্যকে দেখা যাচ্ছে তাদের বিখ্যাত কালো পোশাক পড়ে অবস্থান নিয়েছে।

এই ছবিটি তুলেছে জেইনোবিয়া, ক্রিয়েটিভ কমন্স লাইসেন্স এর অধীনে তা ব্যবহার করা হয়েছে।

আজ মিশরের জাতীয় ছুটির দিন। রাস্তাঘাট ফাঁকা। তারপরেও নিরাপত্তা পুলিশ বিক্ষোভকারীদের স্রোত নিয়ন্ত্রণে নিজস্ব পরিকল্পনা গ্রহণ করেছে। বিশেষ করে তারা বিক্ষোভকারীদের স্বাভাবিক প্রবাহ নিয়ন্ত্রণ করার সুবিধা লাভ করে, যখন কায়রোর নিত্য দিনের চেনা ট্র্যাফিক জ্যামের দৃশ্য এদিন দেখা যায়নি ।

Jan25: Galaa Square
নিরাপত্তা বাহিনী কায়রোর কিছু প্রধান এলাকার রাস্তা এবং প্রবেশ পথ বন্ধ করে দেয়। যখন সম্ভব হচ্ছিল, তখন গাড়ীগুলো সেতু বা সুড়ঙ্গপথে প্রবেশ করার চেষ্টা করছিল। আদতে, এই সব সুড়ঙ্গ পথে প্রবেশ সবসময় বেশ কঠিন এক ব্যাপার, তাই নয় কি? কয়েকজন টুইটার ব্যবহারকারী সংবাদ প্রদান করেছে যে, বিক্ষোভকারীদের স্রোতকে নিয়ন্ত্রণ করার জন্য পাতাল রেল যোগাযোগ ব্যবস্থা বন্ধ করে রাখা হয়।

এই ছবিটি জেইনোবিয়ার তোলা, ক্রিয়েটিভ কমন্স লাইসেন্স এর অধীনে তা ব্যবহার করা হয়েছে।

রাশাদ নিউ নেটওয়ার্ক কায়রোর কেন্দ্র স্থলের তাহরির স্কোয়ারের বিক্ষোভকারীদের এক বিস্ময়কর ছবি তাদের ফেসবুকের পাতায় প্রকাশ করেছে। (বিশেষ সংবাদ: এই ছবিটি দৃশ্যত গেটি ইমেজ নামে কপিরাইট করা, বিষয়টি দেখার জন্য ওয়াশিংটন পোস্ট-এ প্রবেশ করুন)

সন্ধ্যায়, এল-তাহরির স্কোয়ারের সামনে বিক্ষোভকারীদের সংখ্যা সত্যিকার অর্থে বিশাল এক জনতায় পরিণত হয়। বর্তমানে মাইদান এল-তাহরির বা তাহরির চত্বর অজস্র প্রতিবাদ এবং বিক্ষোভ সমাবেশের কেন্দ্রস্থলে পরিণত হয়েছে। এর মধ্যে অন্যতম মার্চ ২০০৩ সালের প্রতিবাদের, যখন জনতা ইরাক যুদ্ধের প্রতিবাদে রাস্তায় বিক্ষোভ প্রদর্শনের জন্য নেমে আসে।

বিকেল বেলা মিশর থেকে টুইটারে সংবাদ প্রদান বন্ধ করে দেওয়া হয়। তবে এর আগে, কয়েকজন ব্যক্তি টুইটপিক ব্যবহার করে টুইটারে কিছু ছবি উঠিয়ে দিতে সক্ষম হয়।@ মা_না৭এজ নীচের ছবিটি তার টুইটপিক একাউন্টে উঠিয়ে দিতে সক্ষম হয়। এই ছবিতে দেখা যাচ্ছে এল মাহাল্লা শহরে বিক্ষোভকারীদের সংখ্যা নিরাপত্তা বাহিনীকে ছাড়িয়ে গেছে।

Jan25: El-Mahalla El-Kubra
এল মাহাল্লায় প্রতিবাদকারীরা নিরাপত্তা রক্ষীদের ঘিরে রয়েছে। এখানে উল্লেখ করা প্রয়োজন যে এল-মাহাল্লায় বেশ কয়েক বছর ধরে বিভিন্ন সময় শ্রমিক ধর্মঘট দেখা যাচ্ছে। .

ছবিটি তুলেছে @এম_না৭এজ।

এছাড়াও মিশরের বাইরে, লোকজন তাদের ক্যামেরা দিয়ে বিক্ষোভের ছবি ধারণ করেছে। @মাফাআলসুওইয়াদান নীচের বিক্ষোভের ছবিটি আমাদের প্রদর্শন করছে, যা কানাডার টরেন্টোতে অনুষ্ঠিত হয়েছে।

Jan25: Toronto - Canada
টরেন্টোর কেন্দ্রস্থলে মিশরীয় বিক্ষোভকারীরা স্লোগান দিচ্ছে। বিজয় অর্জিত না হওয়া পর্যন্ত বিপ্লব জারী থাকবে।

ছবি তুলেছেন @মাফাজ

অন্যসব ছবির মত গুরুত্বপূর্ণ সর্বশেষ ছবি, @দিঅনলিওয়্যারম্যান-এর তুলে দেওয়া এই ছবিতে দেখা যাচ্ছে মাডি নামক অঞ্চলের শান্ত রাস্তায় সেনা ভর্তি ট্রাক। কায়রোর রাস্তায় কিছু ট্রাক ভর্তি সেনাকে টহল দিতে দেখা গেছে, ঘটনা হচ্ছে তারা ততটা উদ্বিগ্ন নয় এমন এক স্থানীয় প্রশাসনকে সাহায্য করার প্রস্তাব প্রদান করে।এবং @আলাসমারি রাস্তার এক বিলবোর্ডে মিশরীয় রাষ্ট্রপতির ছেঁড়া এক ছবির দৃশ্য আমাদের সামনে তুলে ধরছেন

এদিকে লায়লা আল খাতিব এবং মিরেলে রাদ এক নতুন ফটো এগ্রিগেটর (ফটো ফিড বা উক্ত বিষয়ে বিভিন্ন সংবাদ এখানে এসে জমা হবে) তৈরি করেছে। যাতে একই জায়গায় নেট নাগরিকদের ছবি গুলো সংগ্রহ এবং প্রদর্শন করা যায়।

এই প্রকল্প শেষ হবার পর লায়লা টুইট করেছে:

@মিঘেইলির সাথে #২৫জানুয়ারির ঘটনাবলি নিয়ে কাজ করার অভিজ্ঞতা ছিল দারুন। টুইটারের মাধ্যমে যে সমস্ত ছবি প্রকাশ করা হয়েছে, সেগুলো এখানে রয়েছে>http://abaadblogs.com/imagefeed/

এবং মিরেইলি এর সাথে যোগ করেছে:

আসুন বিশ্বকে দেখাই, এখন পর্যন্ত #জানুয়ারি২৫-এর মাধ্যমে ৪২৩ টি ছবি পাওয়া গেছে। যেগুলো http://goo.gl/diwO8 নামক ওয়েব সাইটে প্রদর্শিত হচ্ছে। ঘটনাস্থলে উপস্থিত জনতার তোলা সরাসরি ছবি যা টুইটারে প্রদান করা হয়েছে, দয়া করে তা অন্যদের প্রদর্শন করুন।

এই পোস্টটি মিশরের প্রতিবাদ বিক্ষোভ-২০১১ এর উপর করা আমাদের বিশেষ প্রতিবেদন-এর অংশ।

আলোচনা শুরু করুন

লেখকেরা, অনুগ্রহ করে লগ ইন »

নীতিমালা

  • অনুগ্রহ করে অপরের মন্তব্যকে শ্রদ্ধা করুন. যেসব মন্তব্যে গালাগালি, ঘৃণা, অবিবেচনা প্রসূত ব্যক্তিগত আক্রমণ থাকবে সেগুলো প্রকাশের অনুমতি দেয়া হবে না .