বন্ধ করুন

আমাদের স্বেচ্ছাসেবক সম্প্রদায় কাজ করে যাচ্ছে বিশ্বের কোনা থেকে না বলা গল্পগুলো আপনাদের কাছে তুলে ধরতে। তবে আপনাদের সাহায্য ছাড়া আমরা তা পারব না। আমাদের সম্পাদনা, প্রযুক্তি এবং প্রচারণা দলগুলোকে সুষ্ঠুভাবে চলতে সহায়তার জন্যে আপনারা আপনাদের দানের অংশ থেকে কিছু গ্লোবাল ভয়েসেসকে দিতে পারেন।

সাহায্য করুন

উপরের ভাষাগুলো দেখছেন? আমরা গ্লোবাল ভয়েসেস এর গল্পগুলো অনুবাদ করেছি অনেক ভাষায় যাতে বিশ্বজুড়ে মানুষ এগুলো সহজে পড়তে পারে।

আরও জানুন লিঙ্গুয়া অনুবাদ  »

ফ্রান্স: প্যারিসে তিউনিশিয়ার গর্বকে তুলে ধরা

এক সপ্তাহ ধরে চলা এক গণ-জাগরণ, এবং নাটকীয় ২৪ ঘন্টার পর, তখনই দ্রুত সাফল্য এসে ধরা দেয়, যখন প্রাক্তন রাষ্ট্রপতি বেন আলি তিউনিশিয়া থেকে পালিয়ে গিয়ে সৌদি আরবে রাজনৈতিক আশ্রয় প্রার্থনা করে। বেন আলির পালিয়ে যাবার পর তার প্রধানমন্ত্রী কিছু সময়ের জন্য ক্ষমতা গ্রহণ করে, কিন্তু কয়েক ঘন্টার মধ্যে তার জায়গায় দেশটির অস্থায়ী রাষ্ট্রপ্রধান হন, সংসদের প্রধান। এখন দুই মাসের মধ্যে নির্বাচন অনুষ্ঠানের পরিকল্পনা করা হয়েছে। ফ্রান্সে বাস করা প্রায় ৬০০,০০০ জন তিউনিশীয় নাগরিক ১৫ জানুয়ারি প্যারিসের রাস্তায় সমাবেত হয়েছিল। যদিও স্বদেশে চলতে থাকা সংঘর্ষ, আত্মীয় স্বজন এবং তাদের ভবিষ্যৎ নিয়ে প্রবাসীরা চিন্তিত, কিন্তু তারপরেও এদিন নিশ্চিন্ত মনে তারা আনন্দ, উৎসব পালন করেছে এবং সবাই মিলে একই আবেগে মেতে উঠেছে। এখানে বেন আলির ক্ষমতা ত্যাগের ‘পরবর্তী দিনের’ কিছু ছবি প্রকাশ করা হল, যা প্যারিসে তিউনিশিয়ার গর্বকে তুলে ধরছে।

“(মোহাম্মেদ) বোয়াজিজি, আপনাকে ধন্যবাদ!” সিদি বোউজিদের এই ফল বিক্রেতার প্রতি শ্রদ্ধা রইল, যে তার নিজের জীবন উৎসর্গ করেছে।

“আমি আমার জনগণকে ভালোবাসি”

পরিষ্কার এক তিউনিশিয়া- আরসিডির বিদায় (কনস্টিটিউশনাল ডেমোক্রেটিক রালি বা আরসিডি, প্রাক্তন রাষ্ট্রপতি বেন আলির দলের নাম),

প্রশ্ন: “পশ্চিম কি নিষ্পাপ”, “১৮৮১-১৯৫৬: উপনিবেশ স্থাপনকারী, ১৯৫৬-২০১১: স্বৈরশাসকের সমর্থক, ২০১১-…:?

বোয়াজিজি এবং তিউনিশিয়ার অন্য সব শহীদদের কথা ভুলে যাওয়া উচিত নয়।

মুক্ত তিউনিশিয়া দীর্ঘজীবী হোক।

১৫ জানুয়ারি,২০১১: একটি চির স্মরণীয় দিন।


শেষ মুর্হূতে স্থাপন করা একটি পোস্টার, যেখানে তিউনিশিয়ার এক প্রতিবাদকারী লিখেছে “জনতার শক্তি”

তিউনিশীয় এবং ফরাসী অনেক নাগরিক ফরাসী দৈনিক “লিবারেশন”-এর আজকের সংস্করণটি নিজের সংগ্রহ রাখবে, যা ফরাসী এবং আরবী ভাষায় একটি শব্দ লিখেছে, সেটি হচ্ছে, “স্বাধীনতা”

বিভিন্ন মন্তব্য আর টুইটে তিউনিশীয় নাগরিকদের জন্য অভিনন্দনের ফোয়ারা ছুটছে, ফ্রান্স ২৪ওয়েবসাইট-এ আড্রিয়েন৯৪ সকল তিউনিশীয় নাগরিকদের জন্য একটি বার্তা পাঠিয়েছেন:

Merci pour cette leçon, peuple tunisien
Vous nous avez monté ce qu'est le courage.
Vous nous avez montré qu'on peut se battre pour une idée même quand tout semble verrouillé par un groupe.
Et vous ne l'avez pas fait au nom d'un dieu ou d'un autre futur despote. vous l'avez fait parce que c'était JUSTE.

A l'heure où la coupe du monde devient le seul moyen de faire vibrer mon peuple, vous nous rappeler le vrai sens des choses.

Je vous souhaite d'éviter les périodes sombres qui suivent parfoir les révolutions.
Mais je crois en vous, car votre révolution est exemplaire!

Vive la Tunisie et vive la démocratie

এইভাবে শিক্ষা দেবার জন্য, তিউনিশিয়ার জনগণ, আপনাদের ধন্যবাদ।
আপনারা আমাদের দেখালেন সাহসের মানে আসলে কি। আপনারা আমাদের দেখালেন আমরা এক আদর্শের জন্য লড়াই করতে পারি, যখন একটি দল সবকিছু বন্ধ করে দিয়েছি। আপনারা স্রষ্টা বা আরেক স্বৈরশাসকের নামে এসব করেননি, কেবল ন্যায়বিচারের স্বার্থে তা করেছেন।
এখন এমন এক সময়, যখন কেবল ফুটবল বিশ্বকাপ আমাদের (ফ্রান্সের ) নাগরিকদের আন্দোলিত করে, সে সময় আপনারা আমাদের সত্যিকার আন্দোলনের অর্থ কি তা স্মরণ করিয়ে দিলেন।
আমি আশা করি বিপ্লব যে অন্ধকার সময়কে অনুসরণ করে, আপনারা তা এড়িয়ে যেতে সক্ষম হবেন এবং আমি আপনাদের উপর আস্থা রাখি, কারণ আপনাদের বিপ্লব একটা উদাহরণ সৃষ্টি করেছে।
তিউনিশিয়া দীর্ঘজীবী হোক এবং গণতন্ত্র দীর্ঘজীবী হোক।

* এখানকার সকল ছবি তুলেছেন এই পোস্টের লেখিকা স্বয়ং।

আলোচনা শুরু করুন

লেখকেরা, অনুগ্রহ করে লগ ইন »

নীতিমালা

  • অনুগ্রহ করে অপরের মন্তব্যকে শ্রদ্ধা করুন. যেসব মন্তব্যে গালাগালি, ঘৃণা, অবিবেচনা প্রসূত ব্যক্তিগত আক্রমণ থাকবে সেগুলো প্রকাশের অনুমতি দেয়া হবে না .