বন্ধ করুন

আমাদের স্বেচ্ছাসেবক সম্প্রদায় কাজ করে যাচ্ছে বিশ্বের কোনা থেকে না বলা গল্পগুলো আপনাদের কাছে তুলে ধরতে। তবে আপনাদের সাহায্য ছাড়া আমরা তা পারব না। আমাদের সম্পাদনা, প্রযুক্তি এবং প্রচারণা দলগুলোকে সুষ্ঠুভাবে চলতে সহায়তার জন্যে আপনারা আপনাদের দানের অংশ থেকে কিছু গ্লোবাল ভয়েসেসকে দিতে পারেন।

সাহায্য করুন

উপরের ভাষাগুলো দেখছেন? আমরা গ্লোবাল ভয়েসেস এর গল্পগুলো অনুবাদ করেছি অনেক ভাষায় যাতে বিশ্বজুড়ে মানুষ এগুলো সহজে পড়তে পারে।

আরও জানুন লিঙ্গুয়া অনুবাদ  »

ইরান: রাষ্ট্রপতি নির্বাচনের বর্ষপূর্তি উপলক্ষে প্রতিবাদকারীরা নিরাপত্তা বাহিনীর সাথে সংঘর্ষে লিপ্ত হয়েছিল

তেহরানের প্রত্যক্ষদর্শীরা বলছে শনিবার ইরানের নিরাপত্তা বাহিনী ও প্রতিবাদকারীদের মধ্যে সংঘর্ষ ছড়িয়ে পড়ে যারা প্রতিদ্বন্দ্বিতাপূর্ণ রাষ্ট্রপতি নির্বাচনের বর্ষপূর্তি উপলক্ষে বেশ কয়েকটি গুরুত্বপূর্ণ এলাকায় জড়ো হয়েছিল। এটি দেখে মনে হচ্ছে ইরানের প্রধান বিরোধী নেতাদের প্রতিবাদ সমাবেশ বাতিল করার আহ্বান সত্ত্বেও বেশ কয়েকটি এলাকায় প্রতিবাদ হয়েছে, যার মধ্যে ইরানের বিশ্ববিদ্যালয়গুলো অন্যতম, যেখানে আরো একবার ইরান ইসলামী প্রজাতন্ত্রের নিন্দা জানানো হয়।

তেহরানের ফেরদৌসি স্কোয়ারে বিপুল সংখ্যক নিরাপত্তা বাহিনী উপস্থিতি ছিল:

ফ্রেন্ডফিডে বেহদাব্রা লিখেছে যে ভালি আসর রাস্তায় প্রতিবাদকারীরা নিরাপত্তা বাহিনীর সাথে সংঘর্ষে লিপ্ত হয়, এবং বাতিল হয়ে যাওয়া টিনের পাত্র আগুনে ফেলে আগুন উসকে দেয়। .

প্রতিবাদকারীর সংখ্যা নিয়ে বিতর্ক:

যখন ইরান গ্রীন ভয়েসে পোস্ট করে যে তেহরান বিশ্ববিদ্যালয়ে ১০০০ জন প্রতিবাদকারী ছাত্র নিরাপত্তা বাহিনীর সাথে সংঘর্ষে লিপ্ত হয়, তখন একজন পাঠক মন্তব্য করে: “কেন আমরা মিথ্যা বলছি। এক্ষেত্রে তো আমরা তাদের মত হয়ে গেলাম [ইরানের ইসলামী সরকারে মত]। প্রতিবাদের সময় আমি সেখানে ছিলাম এবং প্রতিবাদকারী ছাত্রের সংখ্যা ছিল বড়জোর ৫০ জনের মত”।

অন্যদিকে ইউনাইটে৪(ফর)ইরান, একটি অরাজনৈতিক প্রতিষ্ঠান, যারা বিশ্বজুড়ে ছড়িয়ে থাকা ইরানী ও ইরানী নয়, এমন ব্যক্তি এবং মানবাধিকার কর্মীদের যোগাযোগ ঘটিয়ে থাকে, তারা এই দিবস উপলক্ষে সারা বিশ্বের ৭০টির মত শহরে প্রতিবাদের আয়োজন করেছিল:

তেহরানের শরিফ বিশ্ববিদ্যালয় অনুষ্ঠিত প্রতিবাদ

প্রতিবাদকারীরা স্লোগান দেয় আল্লাহো আকবার (আল্লাহ মহান)।

আলোচনা শুরু করুন

লেখকেরা, অনুগ্রহ করে লগ ইন »

নীতিমালা

  • অনুগ্রহ করে অপরের মন্তব্যকে শ্রদ্ধা করুন. যেসব মন্তব্যে গালাগালি, ঘৃণা, অবিবেচনা প্রসূত ব্যক্তিগত আক্রমণ থাকবে সেগুলো প্রকাশের অনুমতি দেয়া হবে না .