বন্ধ করুন

আমাদের স্বেচ্ছাসেবক সম্প্রদায় কাজ করে যাচ্ছে বিশ্বের কোনা থেকে না বলা গল্পগুলো আপনাদের কাছে তুলে ধরতে। তবে আপনাদের সাহায্য ছাড়া আমরা তা পারব না। আমাদের সম্পাদনা, প্রযুক্তি এবং প্রচারণা দলগুলোকে সুষ্ঠুভাবে চলতে সহায়তার জন্যে আপনারা আপনাদের দানের অংশ থেকে কিছু গ্লোবাল ভয়েসেসকে দিতে পারেন।

সাহায্য করুন

উপরের ভাষাগুলো দেখছেন? আমরা গ্লোবাল ভয়েসেস এর গল্পগুলো অনুবাদ করেছি অনেক ভাষায় যাতে বিশ্বজুড়ে মানুষ এগুলো সহজে পড়তে পারে।

আরও জানুন লিঙ্গুয়া অনুবাদ  »

ব্রেকিং বর্ডার্স পুরস্কার বিজয়ীদের নাম ঘোষণা

ইন্টারনেটে মুক্ত মত প্রকাশের জন্য যারা কাজ করছেন তাদের সম্মান জানানোর জন্য, গুগল আর গ্লোবাল ভয়েসেস ঘোষণা করেছে ব্রেকিং বর্ডার্স পুরস্কারের প্রথম বিজয়ীদের নাম।

থমসন রয়টার্স দ্বারা সমর্থিত এই পুরষ্কার ব্যক্তি বা দলগত প্রচেষ্টার সেই সব ওয়েব প্রকল্পকে সমর্থন করে যারা ইন্টারনেট ব্যবহারের মাধ্যমে প্রকাশের স্বাধীনতা তুলে ধরার ক্ষেত্রে সাহস, শক্তি আর সম্পদের ব্যবহার দেখায়।

এই পুরস্কার, যার প্রত্যেকটির মূল্য ১০,০০০ মার্কিন ডলার, তিনটি বিভাগের কাজের সম্মান করে: অ্যাডভোকেসি, প্রযুক্তি আর নীতি।

ফিলিপাইন্সের মালু মাঙ্গাহাস, উগান্ডার আর্চবিশপ জন ব্যাপ্টিস্ট ওডামা আর জিম্বাবুয়ের ব্রেন্ডা বারেল ব্রেকিং বর্ডারস পুরস্কার গ্রহণ করেন তাদের সংস্থার পক্ষ থেকে।

গুগল, গ্লোবাল ভয়েসেস, থমসন রয়টার্স আর আমাদের পুরস্কারের জুরির পক্ষ থেকে আমরা বিজয়ীদের শুভেচ্ছা জানাতে চাই নাগরিকদের সুবিধার্থে তাদের চেষ্টা, ও সৃষ্টিশীলতার স্বীকৃতি জানানো এই পুরস্কারের জন্য।

বিজয়ীরা হলেন:

প্রযুক্তি বিভাগে:

বস্কো-উগান্ডা:

২০০৭ সালের এপ্রিলে বস্কো শুরু হয় সৌর শক্তি চালিত, দীর্ঘ রেঞ্জের ওয়ারলেস কম্পিউটার নেটওয়ার্ক হিসাবে। এটি উত্তর উগান্ডার গুলু আর আমুরু জেলায় ভূতপূর্ব অভ্যন্তরীণ স্থানচ্যুত ব্যক্তিদের ক্যাম্পকে কাভার করে। স্কুল, স্বাস্থ্যকেন্দ্র, আর ধর্মযাজকের অফিসে স্বল্প মূল্যের পিসি আর ভিওআইপি স্থাপন করা হয়, ইন্টারনেট, ফোন আর ইন্ট্রানেট যোগাযোগ গহীন এলাকায় আনা সম্ভব করে। বস্কোর দীর্ঘমেয়াদী লক্ষ্য হচ্ছে সৃজনশীল তথ্য প্রদান আর যোগাযোগ প্রযুক্তির সমাধান দেয়া এবং সামাজিক আর অর্থনৈতিক উন্নয়ন ও উগান্ডার গ্রাম্য এলাকায় শান্তি রক্ষায় ভূমিকা রাখার জন্য একটা সম্মিলিত ওয়েব নির্ভর কার্যক্রমের মাধ্যমে। বর্তমানে বস্কো জোর দিচ্ছে ওয়েব ২.০ প্রশিক্ষন, অনলাইন ডিজিটাল এথনোগ্রাফি আর সম্মিলিত অনলাইন যোগাযোগের মাধ্যম ইন্টারনেট সাইটের মধ্যে উন্নয়ন ও সাহায্যের উপরে। বস্কো বর্তমানে ইনভিনিও, হরিজন্ট ৩০০০, ওয়ার চাইল্ড হল্যান্ড, দ্যা গুলু আর্কডিওসিজ আর ইউনিসেফের সাথে কাজ করছে।

নীতি বিভাগে:

তদন্তমূলক সাংবাদিকতার ক্ষেত্রে

পিসিআইজে একটি স্বাধীন, অলাভজনক মিডিয়া এজেন্সি যা নয়জন ফিলিপিনো সাংবাদিক দ্বারা ১৯৮৯ সালে স্থাপিত হয়। তাদের ছিল ভাগে নেয়া অফিসের স্থান, পুরানো ডস নির্ভর কম্পিউটার, পুরানো বৈদ্যুতিক টাইপরাইটার, আর মিতব্যয়ী দোকান থেকে কেনা আসবাব – এবং ইত্যাদি দিয়ে তারা সুশাসন, বাক প্রকাশের স্বাধীনতা আর মানুষের জানার অধিকারের প্রতিষ্ঠা ও তদন্তমূলক রিপোর্টিং এর প্রসারের চেষ্টা করে যাচ্ছে। গত ২০ বছরে পিসিআইজে প্রকাশ করেছে ৫০০টি তদন্তমূলক রিপোর্ট, সাংবাদিকতা আর শাসনের উপরে ২ ডজন বই, পাঁচটি পূর্ণদৈর্ঘ্য চলচ্চিত্র আর কয়েক ডজন ভিডিও তথ্যচিত্র। এটা সাংবাদিকদের জন্য ফিলিপাইন্স আর অন্যত্র একশ প্রশিক্ষন সেমিনার করেছে আর ১২০টির বেশী জাতীয় ও আন্তর্জাতিক পুরষ্কার জিতেছে। পিসিআইজের একটা মাল্টিমিডিয়া ওয়েবসাইট আছে www.pcij.org নামে, একটি প্রাতিষ্ঠানিক ব্লগ www.pcij.org/blog নামে, i-site.ph (আই-সাইট.পিএইচ) নামে রাজনীতি আর শাসনের উপরে একটি ডাটাবেজ সাইট আর টুইটার আর ইউটিউবে প্রাতিষ্ঠানিক অ্যাকাউন্ট।

এডভোকেসি বিভাগে:

কুবাতানা.নেট

জিম্বাবুয়ের কর্মীদের জন্য অনলাইন কমিউনিটি কুবাতানা ইন্টারনেট, ইমেইল, এসএমএস, ব্লগ আর ছাপানো মিডিয়া ব্যবহার করে সাধারণ মানুষের কাছে তথ্য পৌঁছোবার জন্য। তাদের আছে অনলাইন গ্রন্থাগার যেখানে ১৬০০০ এর বেশী মানবাধিকার আর সিভিক রিপোর্ট রয়েছে এছাড়া আছে একটা ডাইরেক্টরি যেখানে ২৪০টিরও বেশী এনজিওর নাম আছে যা কুবাতানাকে জিম্বাবুয়ের উপরে তথ্যের মূল্যবান সুত্রে পরিণত করে। আর এটাই সব না! কুবাতানা স্বাধীনতা ফোন তৈরি করেছে। এটি নতুন ধরনের একটি টেলিফোন সফটওয়ার, যা মোবাইল ফোন দিয়ে এটার সাথে অডিও ভয়েস মেনুর আর এসএমএস এর মিশ্রণ ঘটায়, নাগরিকদের সুবিধার জন্য।

গুগল আর গ্লোবাল ভয়েসেস বিজয়ীদের নাম ঘোষণা করে মে মাসের ৬-৭ তারিখে চিলির সান্তিয়াগোতে অনুষ্ঠিত গ্লোবাল ভয়েসেস শীর্ষ সম্মেলনের সময়ে।

এই শীর্ষ সম্মেলন সম্পর্কে তথ্য পাওয়া যাবে https://summit2010.globalvoicesonline.org/ এই সাইটে এবং ব্রেকিং বর্ডার পুরষ্কার সম্পর্কে আরও তথ্য পাওয়া যাবে http://breakingborders.net/ সাইটে।

এই অনুষ্ঠান আর সম্মিলনের লাইভস্ট্রিম বা উস্ট্রিম পাওয়া যাবে https://summit2010.globalvoicesonline.org/program/video/ এই সাইটে।

আমরা অনুষ্ঠানের লাইভ ব্লগ করবো https://summit2010.globalvoicesonline.org/program/liveblog/ সাইটে।

আপনারা সম্মেলনের টুইট ফিড দেখতে পারেন @ জিভিসামিট২০১০, হ্যাশট্যাগ #জিভি২০১০ এ।

আলোচনা শুরু করুন

লেখকেরা, অনুগ্রহ করে লগ ইন »

নীতিমালা

  • অনুগ্রহ করে অপরের মন্তব্যকে শ্রদ্ধা করুন. যেসব মন্তব্যে গালাগালি, ঘৃণা, অবিবেচনা প্রসূত ব্যক্তিগত আক্রমণ থাকবে সেগুলো প্রকাশের অনুমতি দেয়া হবে না .