বন্ধ করুন

আমাদের স্বেচ্ছাসেবক সম্প্রদায় কাজ করে যাচ্ছে বিশ্বের কোনা থেকে না বলা গল্পগুলো আপনাদের কাছে তুলে ধরতে। তবে আপনাদের সাহায্য ছাড়া আমরা তা পারব না। আমাদের সম্পাদনা, প্রযুক্তি এবং প্রচারণা দলগুলোকে সুষ্ঠুভাবে চলতে সহায়তার জন্যে আপনারা আপনাদের দানের অংশ থেকে কিছু গ্লোবাল ভয়েসেসকে দিতে পারেন।

সাহায্য করুন

উপরের ভাষাগুলো দেখছেন? আমরা গ্লোবাল ভয়েসেস এর গল্পগুলো অনুবাদ করেছি অনেক ভাষায় যাতে বিশ্বজুড়ে মানুষ এগুলো সহজে পড়তে পারে।

আরও জানুন লিঙ্গুয়া অনুবাদ  »

হাইতি: বিখ্যাত অনেক হাইতিবাসীকে মৃত ঘোষণা করা হয়েছে

যদিও দেশের অভ্যন্তরে এবং বিদেশের সাথে যোগাযোগ ব্যবস্থা চালু রাখা হাইতির জন্য এই মুহূর্তে এক বিশাল সমস্যা এবং বেশীরভাগ লোক কোন নির্ভরযোগ্য সূত্র থেকে সংবাদ পাচ্ছে না- যদি তারা সংবাদ সংগ্রহের কোন সুযোগ পায়- সে ক্ষেত্রে তারা আত্মীয় এবং বন্ধুদের খোঁজ নিচ্ছে। এখন সেখানে কিছুকিছু সংবাদ পাওয়া যাচ্ছে, তবে কৌতূহলজনক বিষয় হল, বেশীরভাগ সংবাদ আসছে হাইতির বাইরে অবস্থান করা ব্লগারদের কাছ থেকে। এই সব সংবাদের মধ্যে রয়েছে বিখ্যাত ব্যক্তিদের সম্বন্ধে সংবাদ, যাদের অনেক নিখোঁজ রয়েছে অথবা ইতোমধ্যে তাদের অনেককে মৃত ঘোষণা করা হয়েছে।

দি ব্লগার অফ এসপাস এইসিয়েন [ফরাসী ভাষায়] রেডিও কিসকেয়ার উদ্ধৃতি দিয়ে ১৩ জানুয়ারি, বুধবারে একটি লেখা পোস্ট করেছে। এটি হাইতির সাংবাদিক এবং ফটোগ্রাফার লিলিয়ান পিয়ের পল [এখানে ভদ্রমহিলার তোলা একগাদা ছবি রয়েছে, যা ফ্লিকারে প্রকাশিত হয়েছে] -এর উদ্ধৃতি দিয়ে বিখ্যাত কিছু লোকের তালিকা তৈরি করেছে। ভূমিকম্পের পরে এদের মরদেহ পাওয়া যায়। এই বিষয়ে ভদ্রমহিলা বলছেন [ফরাসী ভাষায়]:

ce nombre impensable de personnalités disparues laissait le pays dans un état de quasi-vacance décisionnelle.

দেশটিতে অকল্পনীয় সংখ্যক বিখ্যাত ব্যক্তি মারা যাওয়ায়, এ দেশের গুরুত্বপূর্ণ সিদ্ধান্ত নেবার ক্ষমতা প্রায় নষ্ট হয়ে গেছে।

তিনি যে সমস্ত ব্যক্তির কথা উল্লেখ করেছেন, এখানে তাদের তালিকা দেওয়া হল:

Hédi Anabi / Patron de la MINUSTAH
-.Luis Dacosta / No 2 de la MINUSTAH
-.Monseigneur Serge Miot / Archevêque de Port-au-Prince (Décédé au cours de l’effondrement de la Cathédrale de Port-au-Prince)
-.Le Juge Roc Cadet / Doyen du tribunal civil (Décédé au cours de l’effondrement du Palais de Justice)
-.2 sénateurs décédés au cours de l’effondrement du Parlement
-.2 ministres du gouvernement en deuil : – Ronald Beaudin – Ministre de l’Économie et des Finances qui a perdu son fils lors de la catastrophe. – Patrick Delatour qui a perdu ses parents (Son père et sa mère)
-.3 directeurs généraux qui sont morts dans leurs ministères respectifs.
-.Mirna Narcisse Théodore, directrice générale du ministère de la Condition Féminine et des Droits de la Femme.
-.Le géographe et écrivain Georges et Mireille Anglade

হেদি আনাবি/ মিনুসথার প্রধান (হাইতিতে অবস্থিত জাতি সংঘ শান্তি মিশনের নাম)
লুইস ডাকোস্টা/ মিনুসথার দ্বিতীয় প্রধান গুরুত্বপূর্ণ ব্যক্তি
ল জজে রোক কাঁদেত/ দেশটির সিভিল কোর্ট বা সাধারণ আদলতের প্রধান (আদালত ভবন ভেঙ্গে তার উপর পড়ায় তিনি মরা যান)
– দেশটির কিছু সংসদ সদস্য নিহত হয়েছেন, কারণ সংসদ ভবন ধ্বসে তাদের উপর পড়ে।
– কয়েকজন গুরুত্বপূর্ণ সরকারি কর্তাব্যক্তিও শোকাহত:- রোনাল্ড বোয়াদিন- অর্থনীতি ও অর্থ মন্ত্রণালয়ের একজন কর্মকর্তা- এই ভূমিকম্পে তিনি তার দু’টি সন্তানকে হারিয়েছেন- প্যাট্রিক ডেলাটুর তার বাবামা দুজনকেই হারিয়েছেন (তিনি তার পিতা ও মাতা দুজনকে হারিয়েছেন)
– সরকারি কিছু বিভাগের প্রধান বা ম্যানেজিং ডিরেক্টর ভবন ধ্বসে নিহত হয়েছে।
-মিরনা নার্সিসে থিওডোরে, যিনি হাইতির নারী পরিস্থিতি ও নারী অধিকার বিভাগের প্রধান ছিলেন, তিনি নিহত হয়েছেন।
-ভূগোলবিদ ও লেখক জর্জেস আনগ্লাডে এবং তার স্ত্রী মিরেলিয়ে এই ভূমিকম্পে মারা গেছে।

জর্জেস আনগ্লাডের ক্ষেত্রে মেট্রোপোল হাইতি একটি লেখা পোস্ট করেছেন। সেখানে ব্লগার এই লেখক এবং তার স্ত্রীর মৃত্যুর কথা ঘোষণা করেন [ফরাসী ভাষায়]:

La scène littéraire haïtienne vient de perdre un grand homme, Georges Anglade et son épouse ont trouvé la mort lors du séisme qui a ébranlé l'île le mardi 12 janvier. L'auteur haïtien se trouvait à Port-au-Prince à l'occasion du festival Étonnants Voyageurs qui devait se dérouler du 14 au 17 janvier.

হাইতির সাহিত্য জগৎ এক মহান মানুষকে হারালো: ১২ জানুয়ারি, মঙ্গলবারে, আঘাত হানা ভূমিকম্পে জর্জেস আনগ্লাডে এবং তার স্ত্রী নিহত হন। এই ভূমিকম্প দ্বীপটিকে এক প্রচণ্ড ধাক্কা দেয়। হাইতির এই লেখক পোট-অ-প্রিন্সে এসেছিলেন “এটোনানটেস ভয়েজারস” নামক উৎসবে যোগ দিতে, যা জানুয়ারির ১৪ থেকে ১৭ তারিখের মধ্যে অনুষ্ঠিত হবার কথা ছিল।

সাইবারপ্রেস.কা নামক ব্লগটি প্রশ্নবিদ্ধ (অথবা নিশ্চিত করা!) এক লেখা পোস্ট করে, যেখানে হাইতির সঙ্গীত অঙ্গনের শিল্পীদের মৃত্যুর খবর প্রকাশ করা হয় [ফরাসী ভাষায়]:

L'épouvantable séisme qui a frappé Haïti mardi a aussi décimé sa communauté de musiciens, chanteurs, rappeurs et professionnels de la musique résidant à Port-au-Prince, sans compter les autres artistes haïtiens de la diaspora de passage.

এক ভয়াবহ ভূমিকম্প, যা মঙ্গলবার হাইতিতে আঘাত হানে, তা দেশটির বাদক, গায়ক, র‌্যাপ সঙ্গীত গায়ক এবং সঙ্গীতের অন্য সব পেশার লোকেদের উপর আঘাত হেনেছে, যারা হাইতিতে বাস করত তাদের উপর এই আঘাত নেমে আসে। সেই সাথে প্রবাসী সঙ্গীত শিল্পদের উপর তা আঘাত হানে, যারা দেশটিতে বেড়াতে এসেছিল।

একই পোস্টে, এসপাস এইসিয়েন টুলুজ পাঠকদের স্মরণ করিয়ে দেন, এইসব বিখ্যাত ব্যক্তি ছাড়াও, রাস্তায় অনেক অজানা ব্যক্তির মৃতদেহ পড়ে ছিল [ফরাসী ভাষায়]:

[…] Et une masse de “Tijosèf” c'est-à-dire des anonymes et des sans nom.

[…] এবং “টিজোসেফ” (সাহিত্যিক ভাষায় জোসেফ)-এ হাইতি ভরে আছে, যার মানে হল নামহীন এবং পরিচয় হীন সব মৃতদেহে এলাকা ভরে আছে।

হাইতির ভূমিকম্পের উপর প্রকাশিত আরো বিশেষ সংবাদ জানুন বিশেষ সংবাদের পাতায়

আলোচনা শুরু করুন

লেখকেরা, অনুগ্রহ করে লগ ইন »

নীতিমালা

  • অনুগ্রহ করে অপরের মন্তব্যকে শ্রদ্ধা করুন. যেসব মন্তব্যে গালাগালি, ঘৃণা, অবিবেচনা প্রসূত ব্যক্তিগত আক্রমণ থাকবে সেগুলো প্রকাশের অনুমতি দেয়া হবে না .