বন্ধ করুন

আমাদের স্বেচ্ছাসেবক সম্প্রদায় কাজ করে যাচ্ছে বিশ্বের কোনা থেকে না বলা গল্পগুলো আপনাদের কাছে তুলে ধরতে। তবে আপনাদের সাহায্য ছাড়া আমরা তা পারব না। আমাদের সম্পাদনা, প্রযুক্তি এবং প্রচারণা দলগুলোকে সুষ্ঠুভাবে চলতে সহায়তার জন্যে আপনারা আপনাদের দানের অংশ থেকে কিছু গ্লোবাল ভয়েসেসকে দিতে পারেন।

সাহায্য করুন

উপরের ভাষাগুলো দেখছেন? আমরা গ্লোবাল ভয়েসেস এর গল্পগুলো অনুবাদ করেছি অনেক ভাষায় যাতে বিশ্বজুড়ে মানুষ এগুলো সহজে পড়তে পারে।

আরও জানুন লিঙ্গুয়া অনুবাদ  »

ইরান: টেলিভিশনে দেওয়া স্বীকারোক্তি ভিডিও সাইবার অ্যাক্টিভিজমের জন্ম দিয়েছে

ইরানের টেলিভিশনে স্বীকারোক্তি প্রদান দেখানোর ঘটনাকে অনেকে ভ্রূকুটি করছেন। এতে ধারাবাহিকভাবে এমন একদল সংস্কারপন্থীকে ক্যামেরার সামনে নিয়ে আসা হয় যারা অনেক পরিচিত এবং তাদের কাছ থেকে এক স্বীকারোক্তি আদায় করা হয় যে তারা কমবেশি একই অপরাধের সাথে যুক্ত এবং প্রায় একই ভাষায় এই স্বীকারোক্তি আদায় করা হয়েছে। গুজব রয়েছে, চাপের মুখে এই স্বীকারোক্তি আদায় করা হয় এবং তা ছিল সাজানো, এর বেশ কিছু সমালোচনা এসেছে এবং এক ওয়েব সাইট তৈরি করা হয়েছে, যার নাম “আমাকে স্বীকারোক্তি প্রদান করতে দেখ” এবং ওয়েবসাইটে যে কেউ বা সবাইকে তাদের নিজস্ব ভিডিও টেপে স্বীকারোক্তি প্রদান করার জন্য বলা হচ্ছে।

অবশিষ্ট আমরাও স্বীকারোক্তি প্রদান করছি, এবং তা দেখার জন্য আমরা তাদের আহ্বান জানিয়েছি। আপনি আপনার ওয়েব ক্যামেরার পিছনে বসে কয়েক মিনিট সময় নিন, এই কয়েক মিনিটে যে কোন বিষয়ে আপনার স্বীকারোক্তি প্রদান করুন। বিকল্প পদ্ধতি, আপনার স্বীকারোক্তি লিখে ফেলুন। আপনি কোন বিচিত্র মানুষ হতে পারেন এবং বিচিত্র স্বীকারোক্তি প্রদান করতে পারেন, যে ভাবে ইরান সরকার লোকজনকে জোর করে অত্যাচারের মাধ্যমে স্বীকারোক্তি নিচ্ছে (যেমন আপনি সিআইএর লোক এবং আপনাকে বৃটিশ সরকার টাকা দিয়েছে, যাতে আপনি ইরানে নি:শব্দে বিপ্লব সৃষ্টি করতে পারেন বিবিসি ও সিএনএন নামের সংবাদপত্র চ্যানেল ও টুইটার, ফেসবুক এবং গুগল ট্রান্সলেশন ইত্যাদির মাধ্যমে) অথবা আপনি বিষয়টি গুরুত্বের সাথে নিতে পারেন এবং বলতে পারেন আসলেই আপনি কি ভাবছেন।

ট্রু/স্লান্ট-এর বিদেশী প্রতিনিধি মার্ক হেরমান মনে হচ্ছে তার এক প্রিয় স্বীকারোক্তি তুলে দিয়েছেন:

এটা বলা মুশকিল এই স্বীকারোক্তি আসলে কি বোঝাতে চায়, ক্যামেরার তোলা ছবির উত্তেজনা, বিশুদ্ধ ইংরেজী উচ্চারণ, এ সব কিছুর বাস্তবতা হল, তার বাস ইজরায়েলে এবং তার এই স্বীকারোক্তি হল সামান্য অভিনয় নয়, যা ধারণা দেয় তার রাজনৈতিক উদ্দীপনা এবং রিয়ালিটি টিভি স্টার হবার ইচ্ছেকে। এই জোর করে আদায় করা ভিডিওর মেরিল স্ট্রিপ এবং তার দক্ষতা ধারণা দেয় পাগল হয়ে যাবার মতো এক কাজ।

অন্য আরেক স্বীকারোক্তিতে এক অদ্ভুত চরিত্রের মুখ ব্যাখ্যা করছে কি ভাবে বন্দীরা সহজেই তাদের ওজন হারাতে পারে। এর জন্য নিবেদিত প্রাণ ধর্মীয় ও ভিআইপি সেবাকে ধন্যবাদ, সত্য বলার বিনিময়েই এই সেবা পাওয়া যাবে।

পরবর্তী স্বীকারোক্তি একজন আত্ম স্বীকৃত বিপ্লবীর, যার মাথা থেকে সকল বিপ্লবের চিন্তা এসেছে। তার ধূর্ত মন্তব্য শুনে মনে হয় এই স্বীকারোক্তির মধ্য কিছু ধোঁয়াটে ব্যাপার রয়েছে:

এবং এখানে এক স্বীকারোক্তি রয়েছে যা শুরু হয়েছ ইরানী কৌতুক অভিনেতা এব্রাহিম নবাবির পোস্ট করা ভিডিও দিয়ে, যেখানে তিনি নিজে প্রাক্তন উপরাষ্ট্রপতি মোহাম্মদ আলি আবতাহির ভূমিকায় অভিনয় করেছেন, আবতাহি যাকে কিনা আরো ১০০ জন ব্যক্তির সাথে জেলে ঢুকানো হয়, জোর করে তাকে দিয়ে স্বীকারোক্তি প্রদান করানো হয়। এই ভিডিওটি ফার্সী ভাষায় তৈরি করা হয়েছে এবং এর ইংরেজি অনুবাদ এখানে পাওয়া যাবে

এর আগের সব প্রবন্ধে বর্তমানে চলতে থাকে এই ঘটনা সম্বন্ধে আপনি আরো পড়তে পারেন:

অন্যতম সংস্কার বাদী আবতাহি বিচারের কাঠগড়ায় এবং টুইটার ও ফেসবুকও বিচারের সম্মুখীন। এই পোস্টে ইরানের পতাকার যে ছবি ব্যবহার করা হয়েছে তা এস্কান্দারের কাছ থেকে নেওয়া হয়েছে

আলোচনা শুরু করুন

লেখকেরা, অনুগ্রহ করে লগ ইন »

নীতিমালা

  • অনুগ্রহ করে অপরের মন্তব্যকে শ্রদ্ধা করুন. যেসব মন্তব্যে গালাগালি, ঘৃণা, অবিবেচনা প্রসূত ব্যক্তিগত আক্রমণ থাকবে সেগুলো প্রকাশের অনুমতি দেয়া হবে না .