বন্ধ করুন

আমাদের স্বেচ্ছাসেবক সম্প্রদায় কাজ করে যাচ্ছে বিশ্বের কোনা থেকে না বলা গল্পগুলো আপনাদের কাছে তুলে ধরতে। তবে আপনাদের সাহায্য ছাড়া আমরা তা পারব না। আমাদের সম্পাদনা, প্রযুক্তি এবং প্রচারণা দলগুলোকে সুষ্ঠুভাবে চলতে সহায়তার জন্যে আপনারা আপনাদের দানের অংশ থেকে কিছু গ্লোবাল ভয়েসেসকে দিতে পারেন।

সাহায্য করুন

উপরের ভাষাগুলো দেখছেন? আমরা গ্লোবাল ভয়েসেস এর গল্পগুলো অনুবাদ করেছি অনেক ভাষায় যাতে বিশ্বজুড়ে মানুষ এগুলো সহজে পড়তে পারে।

আরও জানুন লিঙ্গুয়া অনুবাদ  »

আরব বিশ্ব: নিশ্বাসের জন্য হাঁপানো!

সমগ্র আরব পেনিনসুলাকে বিশাল একটা ধুলিঝড় ঢেকে ফেলেছিল, যার ফলে বাহরাইন, কুয়েত, সৌদি আরব, ইয়েমেন, ইরাক আর সংযুক্ত আরব আমিরাতের মানুষ বাতাসের জন্য হাঁপাচ্ছিল।

Dust Storm

বছরের এই সময়ের জন্য স্বাভাবিক, কুয়েতে ঝড়ের দিনে স্কুল আর সরকারী অফিসগুলো তাড়াতাড়ি বন্ধ হয়ে যায়, যখন ধুলি ঝড় ৮৫ কিমি প্রতি ঘন্টার বেগ ধারণ করে, আর তেল সমৃদ্ধ আমিরাতের তেল রপ্তানী বন্ধ করে দেয়।

ইউটিউব ব্যবহারকারী কিউ৮লাইটিনিং এই ভিডিও পোস্ট করেছেন:

তিনি আরো ব্যাখ্যা করেছেন:

মঙ্গলবার রাত থেকে একটা ধুলি ঝড় ধুলি উড়িয়েছে আর পরের দিন তা আরও খারাপ আকার ধারন করে। কুয়েত এখন শীতের মধ্যিখানে আর ধুলিঝড় এরই মধ্যে হচ্ছে তার কারন এখন পর্যন্ত যথেষ্ট বৃষ্টি হয়নি।

ট্রাভেল অফ দ্যা কাফ এ যাত্রীদের জন্য একটা বার্তা বোর্ড আছে, মার্ক উলেন্সকি প্রতিবাদ করেছেন:

আমি গত রাতে কুয়েতে এসেছি দেখতে যে ধুলি ঝড় যেটা বাহরাইনে হচ্ছিল সেটা কুয়েতে আরো খারাপভাবে হচ্ছে। আমি প্লেনের জানালা দিয়ে বাইরে দেখলাম যে বাদামি রঙের একটা দেয়াল।

Dust Storm

আর কুয়েতে ফ্লিকার ব্যবহারকারী মিঙ্ক উপরের ছবিগুলো পোস্ট করেছেন, প্রথম ছবি সম্পর্কে নীচের ব্যাখ্যা দিয়ে:

কাঠের বেড়ার উপর থেকে দুটো কালো বিড়াল দেখছে। এটা ২০০৯ এর প্রথম বড় ঝড় আর এটা জোরে আঘাত করেছে। আকাশ কমলা আর বাতাস ধুলাতে ভারী হয়ে গিয়েছিল। পরের কয়েক দিনে যখন এটা পড়েছিল, অনেক সময় নিয়েছে এটা পরিষ্কার হতে।

মিঙ্ক তার দ্বিতীয় ছবি ব্যাখ্যা করেছেন:

ধুলি ঝড়ের একটা উৎকৃষ্ট দৃশ্য।

আর গ্রানোলা গার্ল এর জন্য, ধুলি একটা কারন যার জন্য তিনি কুয়েত ছেড়ে যাচ্ছেন:

মধ্য প্রাচ্যের একমাত্র দেশ লেবানন যেখানে মরুভূমি নেই। আজকে রাত ২টায় প্রবল বাতাসের শব্দে ঘুম ভেঙ্গে গিয়ে আর ভালোভাবে ঘুমাতে না পেরে তার পরে, আর সারা দিন খারাপ একটা ধুলি ঝড়ের কারনে ধুলা নি:শ্বাসের সাথে গ্রহণ করে, আমি খুব খুশি মরুভূমিটাকে পিছনে ফেলে যেতে।

কাছই সৌদি আরবের পূর্বের প্রদেশ খোবার থেকে আসাদ আবু হুসেইন কিছু ছবি পোস্ট করেছেন আর তার পাঠকদের আহ্বান করেছেন ইশ্বরের ক্ষমা আর বৃষ্টির জন্য প্রার্থনা করতে।

পূর্বের প্রদেশ থেকে আবু ওমর আসোয়াক সিটিতে ধুসরিত প্রান্তরের কিছু ছবি পোস্ট করেছেন। তিনি পাঠকদের সাবধান করে দিয়েছেন এই বলে:

عند تمام الساعة السابعة صباحا بدء الجو يتغير في لونه حتى اصبح مائلا الى اللون الاحمر مع ازدياد في الهواء وبعد ذلك بدقائق اصبح الجو شبه عديم الرئوية و يجب اخذ الحيطة والحذر وعدم السرعة الزائدة على الطرقات مع التأكد من اغلاق جميع النوافذ في المنزل وعدم تشغيل مراوح الشفط لعدم دخول الاتربة في المنازل

আজ সকাল ৭টায়, আবহাওয়া পরিবর্তিত হতে থাকে যতক্ষণ না প্রান্তর প্রায় লাল হয়ে যায়, আর বাতাস শুরু হয়। খুব শীঘ্রই, দৃশ্যতা কমে যায় তাই গাড়ি চালকদের সাবধান হওয়া উচিত আর দ্রুত যাওয়া উচিত না। মনে রাখবেন ঘরের সব জানালা বন্ধ রাখাতে আর একজস্ট ফ্যান না খোলার ব্যাপারটা, যাতে ধুলা ঘরে প্রবেশ করতে না পারে।

সৌদি আরবের রাজধানী রিয়াদ থেকে রুশাও ঝড়ের ছবি পোস্ট করেছেন আর আমাদেরকে ব্যাখ্যা প্রদান করেছেন বিভিন্ন ধরনের ধুলি বাটির যার সম্মুখীন আপনি হতে পারেন আরবের মরুভূমিতে:

মিহি ধুলা সব কিছুর ভিতরে ঢুকছে, সব ফাটল দিয়ে ঢুকছে- জানালা, দরজা, শীতাতপ নিয়ন্ত্রণের ভেন্ট, একজস্ট ভেন্ট। ফুসফুসে ঢোকার কারনে শ্বাস নিতে কষ্ট হচ্ছে। এতে মাটিতে আর আকাশে দৃষ্টিসীমা অনেক কমে যায়। মানুষ কবিত্ব করে শামাল নিয়ে, আমার তখন কাশি আসে।

ঝড়ের বিভিন্ন ধরন দেখে, মনে পড়ছে কি আমার আগের পোস্ট যেখানে বৃষ্টির মধ্য দিয়ে ধুলি ঝড়ের ভিতর দিয়ে গাড়ি চালিয়ে যাওয়ার কথা বলেছি? এটাকে অফিসিয়ালি হাবুব বলা হয়।

আলোচনা শুরু করুন

লেখকেরা, অনুগ্রহ করে লগ ইন »

নীতিমালা

  • অনুগ্রহ করে অপরের মন্তব্যকে শ্রদ্ধা করুন. যেসব মন্তব্যে গালাগালি, ঘৃণা, অবিবেচনা প্রসূত ব্যক্তিগত আক্রমণ থাকবে সেগুলো প্রকাশের অনুমতি দেয়া হবে না .