বন্ধ করুন

আমাদের স্বেচ্ছাসেবক সম্প্রদায় কাজ করে যাচ্ছে বিশ্বের কোনা থেকে না বলা গল্পগুলো আপনাদের কাছে তুলে ধরতে। তবে আপনাদের সাহায্য ছাড়া আমরা তা পারব না। আমাদের সম্পাদনা, প্রযুক্তি এবং প্রচারণা দলগুলোকে সুষ্ঠুভাবে চলতে সহায়তার জন্যে আপনারা আপনাদের দানের অংশ থেকে কিছু গ্লোবাল ভয়েসেসকে দিতে পারেন।

সাহায্য করুন

উপরের ভাষাগুলো দেখছেন? আমরা গ্লোবাল ভয়েসেস এর গল্পগুলো অনুবাদ করেছি অনেক ভাষায় যাতে বিশ্বজুড়ে মানুষ এগুলো সহজে পড়তে পারে।

আরও জানুন লিঙ্গুয়া অনুবাদ  »

আরবদেশ: ব্লগ এবং একটি সামাজিক আন্দোলন

সৌদি ব্লগার এসাম মুদির সিএনএন আরবী থেকে একটি প্রতিবেদন তুলে ধরে প্রশ্ন তুলেছেন- গত সপ্তাহে আরব বিশ্বের গুরুত্বপূর্ণ ঘটনার প্রেক্ষিতে আরবী ব্লগগুলো কি অত্র অঞ্চলে একটা সামাজিক আন্দোলন এনে দেবে কি না।

تميّز الأسبوع الماضي في نشاط المدونين العرب بحركات احتجاج واسعة على أوضاع الحريات في دول عربية، ولاسيما في المملكة العربية السعودية وتونس، زيادة على تنامي تنديد المدونين بما يقولون إنّه “رقابة” باتت تمارس عليهم، زيادة على حكوماتهم، الهيئات المشرفة على منتديات عالمية، مثل “فليكر” و”فيس بوك.”

وتميّز نشاط الكثير من المدونات السعودية خلال الأسبوع بالدعوة إلى إضراب جوع تضامنا مع نشطين معتقلين.

وفي الوقت الذي لم تتوفر معلومات بعد عن حجم الإضراب الذي وقع في السادس والسابع من نوفمبر/ تشرين الأول، تميّز نشاط المدونين السعوديين بجرأة، “وذلك احتجاجاً على انتهاك حقوق المعتقلين، وعموم السجناء في المملكة العربية السعودية، الذين حرموا من ما أوجبه نظام الإجراءات الجزائية.”

والسجناء الذين تضامن معهم المدونون هم من “تيار العدل�والشورى وحقوق الإنسان، ومن ضمنهم متروك الفالح.

গত সপ্তাহে আরব ব্লগারদের বেশ কিছু উল্লেখযোগ্য কার্যক্রম চালিয়েছেন যখন তারা আরব দেশে বিশেষ করে সৌদি আরব আর তিউনিশিয়ায়, বাক স্বাধীনতার জন্য ব্যাপক বিক্ষোভের আয়োজন করেন। প্রচুর ব্লগার তাদের সমর্থনে এগিয়ে আসেন আর অন্যান্য আন্তর্জাতিক ওয়েবসাইট যেমন ফ্লিকার আর ফেসবুকের আয়োজকরা সেন্সরশীপ আরোপের জন্য সংশ্লিষ্ট সরকারের সমালোচনা করে।

সৌদি ব্লগগুলো এই সপ্তাহে আটককৃত সহব্লগারদের সাথে একাত্মতা প্রকাশের জন্য অনশনের ডাক দিয়েছেন। এখনো যদিও ৬-৭ নভেম্বরে সংঘটিত ধর্মঘটের আকার সম্পর্কে কোন তথ্য পাওয়া যায় নি তবে, সৌদি ব্লগারদের বন্দীদের আইনের আশ্রয় নেয়ায় বাধা আর তাদেরকে বিচার কার্যের স্বাভাবিক প্রক্রিয়া থেকে যে বঞ্চিত করা হয়েছে তার প্রতিবাদে ব্লগাররা যা করেছে এই সাহসিক কাজ অবশ্যই উল্লেখযোগ্য।

যে সব ব্লগাররা বন্দীদের ‘ন্যায়বিচার, শুরা আর মানবাধিকার’ আন্দোলন এর সাথে একাত্বতা প্রকাশ করেছেন তাদের মধ্যে মাকরুক আল ফালেহ অন্যতম ছিলেন।

আলোচনা শুরু করুন

লেখকেরা, অনুগ্রহ করে লগ ইন »

নীতিমালা

  • অনুগ্রহ করে অপরের মন্তব্যকে শ্রদ্ধা করুন. যেসব মন্তব্যে গালাগালি, ঘৃণা, অবিবেচনা প্রসূত ব্যক্তিগত আক্রমণ থাকবে সেগুলো প্রকাশের অনুমতি দেয়া হবে না .