বন্ধ করুন

আমাদের স্বেচ্ছাসেবক সম্প্রদায় কাজ করে যাচ্ছে বিশ্বের কোনা থেকে না বলা গল্পগুলো আপনাদের কাছে তুলে ধরতে। তবে আপনাদের সাহায্য ছাড়া আমরা তা পারব না। আমাদের সম্পাদনা, প্রযুক্তি এবং প্রচারণা দলগুলোকে সুষ্ঠুভাবে চলতে সহায়তার জন্যে আপনারা আপনাদের দানের অংশ থেকে কিছু গ্লোবাল ভয়েসেসকে দিতে পারেন।

সাহায্য করুন

উপরের ভাষাগুলো দেখছেন? আমরা গ্লোবাল ভয়েসেস এর গল্পগুলো অনুবাদ করেছি অনেক ভাষায় যাতে বিশ্বজুড়ে মানুষ এগুলো সহজে পড়তে পারে।

আরও জানুন লিঙ্গুয়া অনুবাদ  »

পাকিস্তান: করাচী বিস্ফোরনের পরবর্তী অবস্থা

আট বছর স্বনির্বাসন থেকে ফেরার পর প্রাক্তন প্রধান মন্ত্রী বেনজীর ভুট্টোকে করাচিতে স্বাগতম জানানো হয়েছিল হাজারো ভক্তের মিছিল এবং দুই সফল আত্মঘাতী বোমা হামলার মাধ্যমে। বোমা বিস্ফোরন রেখে গেল ১৩৬ জনের লাশ, আহত বহু শত লোক এবং শোকাহত একটি জনপদ, যাদের এই আক্রমণের প্রকৃতি এবং মাত্রা হতভম্ব করে দিয়েছে। বেশীরভাগ পাকিস্তানী রাজনীতিবিদের প্রাথমিক প্রতিক্রিয়া ছিল আজ প্রত্যুষ (১৯ অক্টোবর) পর্যন্ত একই, আক্রমণের জন্য দোষারোপ করা হয়েছে ঢালাওভাবে (প্রেসিডেন্ট) মুশাররফ থেকে গোয়েন্দা সংস্থা (আইএসআই), এমকিউএম নেতা আলতাফ হুসাইন, এবং পরিশেষে আল কায়েদা এবং তালেবানদের (বেনজীর বলেছেন)। বলাই বাহুল্য, জনগণেরও কে দায়ী এ সম্পর্কে নিজস্ব মতামত রয়েছে।

স্বভাবিকভাবেই পাকিস্তানী এই ভয়াবহ উগ্রপন্থী হামলার ঘটনাটি সম্পর্কে পাকিস্তানী ব্লগোস্ফিয়ার তাৎক্ষনিকভাবে প্রতিক্রিয়া ব্যক্ত করেছে। অল থিংস পাকিস্তান ব্লগ উপস্থাপন করেছে ঘটনার একটি যথোপযুক্ত প্রতিক্রিয়া; দ্য পাকিস্তানী স্পেকটেটর ব্লগ উপসংহার টেনেছেন যে আক্রমণ পি-পি-পির (পাকিস্তান পিপলস পার্টি) জন্য আরও সমর্থন তৈরি করবে; এবং আলি এতেরাজ বোমা হামলার দৃশ্যটির বিস্তারিত বর্ণনা করেছে এবং বিভিন্ন প্রতিক্রিয়াগুলো লিপিবদ্ধ করেছে।

টিয়ার্স অফ দ্য মুন ব্লগ পাকিস্তানের রাজনৈতিক পরিমন্ডল সম্পর্কে একটি ক্ষুব্ধ প্রতিক্রিয়া ব্যক্ত করেছে:

প্রথমত: আমরা জানি যে আমরা সর্বাপেক্ষা বিবেকবুদ্ধিসম্পন্ন নেতাদের পেয়েছি…নেতা? আমাকে ভালমত বুঝিয়ে বলতে দিন…আমরা পেয়েছি এমন নেতাদের যারা দয়া করে আমাদের শাষন করার মত গুরুত্বপূর্ন কাজ করে তাদের বদনগুলো খাঁচার ভেতরে সুরক্ষিত রেখে এবং সর্বদা বুলেটপ্রুফ গাড়ীবহরের ছত্রছায়ায় শামুকের মত চলে। তারা জনগনের জন্যে নিবেদিত এবং সর্বদা একপাল জনগন তাদের ঘিরে থাকে জনগন থেকে তাদেরকে নিরাপদ রাখতে। এটি কেমন অক্সিমরন (বিপরীত ভাবার্থক) হয়ে গেল না? কিন্তু শুধু মরন (হাবা) শব্দটি এখানে যথেষ্ট ছিল!

ডক্টর শহীদ মাসুদ (ARY চ্যানেলে একটি রাজনৈতিক বিশ্লেষক) একটি কৌতুহলউদ্দীপক তথ্য তুলে ধরেছেন। বেনজীর ভুট্টো তাকে ব্যক্তিগতভাবে জানিয়েছিলেন যে তার পাকিস্তান ভ্রমনের পূর্বে পারভেজ মুশাররফকে তিনি একটি চিঠি পাঠিয়েছেন যাতে তিনি তিনজন (রাজনৈতিক) ব্যক্তিত্বের নামের তালিকা দিয়েছেন। যদি তিনি পাকিস্তানে আগমনের পর কোন আততায়ী হামলায় মারা যান তাহলে সন্দেহভাজন হিসেবে এদের যাতে তদন্ত করা হয় এই তিনি ওই চিঠিতে লিখেছেন। স্বাভাবিকভাবেই তিনি নামগুলো গোপনীয় রেখেছেন। (আমি এই তথ্যটি দিলাম আরও ঘোট পাকানোর জন্যে)।

জিন্দেগী ব্লগ নিরাপত্তার শৈথিল্যের জন্য করাচির মেয়রকে দায়ী করেছেন। ওদিকে গ্লাসহাউজ ব্লগ, যে বেনজীরের পাকিস্তানে আগমন নিয়ে খুবই আশাবাদী ছিল তার পোষ্টে একটি বিষয় যোগ করেছে (বোমা হামলার ঘটনার পর) যাতে কিছু গুরুত্বপূর্ন প্রতিক্রিয়া রয়েছে:

বর্ষীয়ান পি-পি-পি দলের সদস্যবৃন্দ এই বিস্ফোরণগুলি ঘটানোর জন্য প্রথমেই সরকারের গোয়েন্দা সংস্থাকে দায়ী করেছিল। বেনজীর ভুট্টোর একটি সফল ফিরে আসা মুশাররফ সরকারের জন্যে হুমকি স্বরুপ, কাজেই এই অভিযোগগুলির একটি যৌক্তিক ভিত্তি রয়েছে, বিশেষভাবে যখন এই সংস্থাগুলি এরকম কাজ করে থাকে বলে সবাই জানে।

দেশীক্রিটিক্স ব্লগ এই হামলার পেছনে অন্য কিছু ষড়যন্ত্রমূলক কারন রয়েছে এমন বলেছে, অন্যদিকে কাউন্টারটেররিজম ব্লগও সেরকমই ধারনা দিয়েছে। এবং পরিশেষে, বিয়ন্ড দ্য পান্চলাইন ব্লগ মৃতের সংখ্যা এত বেশি হওয়ার জন্যে বেনজিরকে আংশিক দোষারোপ করেছেন।

আপনাদের জানিয়ে রাখছি, নভেম্বরের প্রথম সপ্তাহে কোন সময় আমিও করাচিতে ফিরে আসছি একটি ৮ মাসের স্বনির্বাসনের (কাজ সম্পর্কিত) পরে। চিন্তার কারন নেই কারন আমার আগমনের জন্য কোন স্বাগত মিছিল হবেনা।

আলোচনা শুরু করুন

লেখকেরা, অনুগ্রহ করে লগ ইন »

নীতিমালা

  • অনুগ্রহ করে অপরের মন্তব্যকে শ্রদ্ধা করুন. যেসব মন্তব্যে গালাগালি, ঘৃণা, অবিবেচনা প্রসূত ব্যক্তিগত আক্রমণ থাকবে সেগুলো প্রকাশের অনুমতি দেয়া হবে না .